বড় খবর

শ্রম আইন বাতিল হোক, লকডাউনের জেরে দাবি কলকারখানা মালিকদের

শ্রমমন্ত্রক থেকে জানানো হয়েছে কল কারাখানাগুলো উৎপাদন বাড়ানোর জন্য কাজের সময় দিনে ১২ ঘণ্টা করে দেওয়ার আর্জি জানিয়েছে।

লকডাউন শেষ হলে নতুন করে ছন্দে ফেরার অপেক্ষায় সবাই। তবে এরই মধ্যে বদলে যেতে পারে শ্রম আইন। আগামী ২ থেকে ৩ বছরের জন্য পরিযায়ী শ্রমিকদের কাজের সময় বর্ধিত হতে পারে। কল কারখানা খোলার ক্ষেত্রে ৩৩ শতাংশ কর্মীর উপস্থিতি বাড়িয়ে ৫০ শতাংশ করার সম্ভাবনা। কেন্দ্রীয় শ্রম এবং কর্ম সংস্থান মন্ত্রী সন্তোষ কুমার গাঙ্গোর শুক্রবারের কেন্দ্রীয় বৈঠকে তেমন পরামর্শ দিয়েছেন বলেই খবর।

শ্রমমন্ত্রক থেকে জানানো হয়েছে কল কারাখানাগুলো উৎপাদন বাড়ানোর জন্য কাজের সময় দিনে ১২ ঘণ্টা করে দেওয়ার আর্জি জানিয়েছে। সম্প্রতি এক সাংবাদিক বিবৃতিতে জানানো হয়েছে “পরিযায়ী শ্রমিকদের ঘরে ফেরানোর জন্য কেন্দ্র যথেষ্ট উদ্বিগ্ন। তাঁদের আগামী ৬ মাসের জন্য অর্থ সাহায্য, মুদিখানার পণ্য পৌঁছে দেওয়ার দায়িত্ব নেবে কেন্দ্র”।

আরও পড়ুন- লকডাউনের ভারতে বেকারত্বের হার ছুঁল ২৭.১১ শতাংশ

ইতিমধ্যে বিশেষ কিছু শর্ত ছাড়া শ্রম আইন মুলতুবি রেখেছে উত্তরপ্রদেশ সরকার। লকডাউনের জেরে দেশের থমকে থাকা শিল্প, কলকারখানাকে চাঙ্গা করতেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানানো হয়েছে। রাজস্থান, হিমাচলপ্রদেশ, পাঞ্জাবের মতো রাজ্য ইতিমধ্যে কাজের সময় বাড়িয়েছে।

লকডাউনের সময় শিল্পক্ষেত্রকে যেসব সমস্যার মুখোমুখি হতে চলেছে, সেগুলির উল্লেখ করে নিয়োগকারী সংস্থাগুলির পক্ষ থেকে মন্ত্রকের কাছে ‘ইন্ডাস্ট্রিয়াল ডিসপিউট অ্যাক্ট’-এর শর্তাবলী নমনীয় করার কথা বলা হয়েছে। সংস্থাগুলি জানিয়েছে, বর্তমান পরিস্থিতি বিচার করে লকডাউনের সময়কালকে লে-অফ হিসাবে বিচার করা হোক। এই সময়ে শ্রমিকদের প্রদেয় বেতন কর্পোরেট সোস্যাল রেসপন্সিবিলিটির অংশ হিসাবে বিবেচনা করুক মন্ত্রক।

Read the full story in English

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and Business news here. You can also read all the Business news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Covid 19 employer longer working hours easing provisions 2 3 years

Next Story
লকডাউনে লক্ষ্মীলাভ? অজান্তেই কত সাশ্রয় হয়েছে জানেন?
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com