scorecardresearch

Covid-এ ধুঁকতে থাকা শিল্পের হাল ফেরাতে ৮ দাওয়াই Nirmala-র, পর্যটনকে চাঙা করতে ফ্রি ভিসা

Covid Relief Package: মোট ১ লক্ষ ১০ হাজার কোটি টাকার লোন নিশ্চয়তা প্রকল্পের ঘোষণা করেছেন।

Covid-এ ধুঁকতে থাকা শিল্পের হাল ফেরাতে ৮ দাওয়াই Nirmala-র, পর্যটনকে চাঙা করতে ফ্রি ভিসা
অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ

Covid Relief Package: করোনার কারণে ধুঁকতে থাকা শিল্পগুলোকে উজ্জীবিত করতে আর্থিক ত্রাণ ঘোষণা অর্থ মন্ত্রকের। সোমবার কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ ৮টি পৃথক আর্থিক ত্রাণ প্রকল্প ঘোষণা করেন। সেই ৮টি প্রকল্পের মধ্যে ৪টি নতুন এবং একটি স্বাস্থ্য পরিকাঠামো উন্নয়ন কল্পে ঘোষণা করা হয়েছে। এদিন এমনটাই জানান অর্থমন্ত্রী। মূলত সঙ্কটে থাকা অর্থনীতিকে চাঙা করতেই অর্থ মন্ত্রকের এই এই ৮ দাওয়াই।

মোট ১ লক্ষ ১০ হাজার কোটি টাকার লোন নিশ্চয়তা প্রকল্পের ঘোষণা করেছেন। কোভিড প্রকল্পে ধুঁকতে থাকা শিল্পকে উজ্জীবিত করতে এই লোন প্রদান করা হবে। এই কর্মসূচিতে বার্ষিক ৭.৯৫ শতাংশ সুদে ১০০ কোটি টাকা পর্যন্ত ঋণ পাবে শিল্পসংস্থাগুলি। গ্যারেন্টার হিসেবে থাকবে কেন্দ্র।

পর্যটন শিল্পকে চাঙা করতে পৃথক ঘোষণা করেছে অর্থ মন্ত্রক। এদিন অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘ভারত ভ্রমণে বিনামূল্যে ৫ লক্ষ ট্যুরিস্ট ভিসা দেবে ভারত সরকার। সেই আর্থিক সাহায্য প্রায় ১১ হাজার নথিবদ্ধ ট্যুরিস্ট গাইড, ট্যুর এবং ট্রাভেল সংস্থাগুলোর মধ্যে ভাগ করে দেওয়া হবে।‘ পাশাপাশি পর্যটনক্ষেত্রে বিশেষ ঋণের ব্যবস্থাও রাখা হয়েছে। এখানেই শেষ নয়। অর্থমন্ত্রীর ঘোষণা, ‘করোনার কারণে ক্ষতিগ্রস্ত গরিব ও প্রান্তিক মানুষের সাহায্যের ঘোষিত একাধিক প্রকল্পের সময়সীমা বাড়ানো হবে।‘ এদিকে, গত বছর মে মাসে লকডাউন আবহে ২০ লক্ষ কোটি টাকার আর্থিক প্যাকেজ ঘোষণা করেছিলেন অর্থমন্ত্রী। গরিব কল্যাণ যোজনা এবং আত্মনির্ভর প্রকল্পে সেই আর্থিক প্যাকেজের একটি অংশ বরাদ্দ ছিল।

অপরদিকে, করোনার টিকাকরণে আমেরিকাকে ছাপিয়ে গেল ভারত। সোমবার স্বাস্থ্যমন্ত্রকের তরফে টুইটে এই দাবি করা হয়েছে। সংক্রমণ রুখতে টিকাকরণে জোর দিয়েছে কেন্দ্র। যদিও, টিকার বন্টন ঘিরে বিস্তর অভিযোগ তুলেছে বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলো। কিন্তু, আমেরিকা ও ভারতের টিকাকরণের পরিসংখ্যানের তুলনা টেনে মোদী সরকারের বার্তা- টিকাকরণে ভারত এখন সর্বপ্রথম।

স্বাস্থ্যমন্ত্রকের দেওয়া তথ্য অনুসারে, সোমবার সকাল ৮টা পর্যন্ত আমেরিকায় করোনা টিকাকরণের হার ৩২ কোটি ৩৩ লক্ষ ২৭ হাজার ৩২৮ ডোজ। সেই সময়কালেই ভারতে একটি বা দু’টি ডোজ টিকা পেয়েছেন ৩২ কোটি ৩৬ লক্ষ ৬৩ হাজার ২৯৭ জন। অর্থাৎ টিকাকরণের গতিতে গোটা বিশ্বে এখন শীর্ষে ভারত। একে ‘মাইলফলক’ সাফল্য হিসাবেই দেখছে কেন্দ্রীয় সরকার। সোমবার স্বাস্থ্যমন্ত্রকের তরফে টুইটে জানানো হয়েছে যে, ‘কোভিড-১৯ টিকাকরণে ভারত আরও একটি মাইলফলক অর্জন করেছে। আমেরিকায় এখন পর্যন্ত যে হারে টিকাকরণ হয়েছে তা ছাপিয়ে গিয়েছে ভারত।’

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Business news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Finance minister announces another round of covid relief packages to boost economy national