বড় খবর

সাইরাসকে পদে ফেরানোর নির্দেশ চ্যালেঞ্জ করে শীর্ষ আদালতে রতন টাটা

সাইরাস মিস্ত্রি মামলায় এনসিএলএটি-র রায়কে চ্যালেঞ্জ জানিয়েছে ভারত সরকারের রেজিস্ট্রার অব কোম্পানিজ (আরওসি)। সেই প্রসঙ্গেই এনসিএলএটি জানিয়েছে শীতের ছুটির পর সোমবার আদালত খুললে রায় দেবে আদালত।

সাইরাসকে টাটা সন্সের একজিকিউটিভ পদে ফেরানোর এনসিএলএটি-র রায়কে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে সুপ্রিম কোর্টে গিয়েছিল টাটা সন্স। এবার একই ইস্যুতে শীর্ষ আদালতে গেলেন রতন টাটা।  এছাড়া টাটা কনসালটেন্সি সার্ভিস, টাটা টেলি সার্ভিসও সাইরাসের পুনর্বহালের রায়ের বিরোধিতা করে সুপ্রিম কোর্টে গিয়েছে।

রতন টাটা সুপ্রিম কোর্টে জমা দেওয়া তাঁর আবেদনপত্রে জানিয়েছেন টাটা সন্স মামলায় ন্যাশনাল কোম্পানি ল ট্রাইব্যুনাল ১৮ ডিসেম্বর যে রায় দিয়েছে তা ভুল। তিনি আরো জানিয়েছেন টাটা সন্সে বহুকাল বিনিয়োগ করেছে পালনজি গোষ্ঠী।

আরও পড়ুন,  “গরিব মানুষের হাতে টাকা না এলে কর্পোরেট কর কমিয়ে লাভ নেই”

সাইরাস মিস্ত্রি মামলায় এনসিএলএটি-র রায়কে চ্যালেঞ্জ জানিয়েছে ভারত সরকারের রেজিস্ট্রার অব কোম্পানিজ (আরওসি)। সেই প্রসঙ্গেই এনসিএলএটি জানিয়েছে শীতের ছুটির পর সোমবার আদালত খুললে রায় দেবে আদালত।

টাটা সন্স-এর একজিকিউটিভ চেয়ারম্যান পদে সাইরাস মিস্ত্রিকে ফেরাতে হবে, গত ডিসেম্বরে ন্যাশনাল কোম্পানি ল ট্রাইব্যুনাল নির্দেশ (এনসিএলএটি) দেওয়ার পর এই রায় কে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে বৃহস্পতিবার শীর্ষ আদালতে গিয়েছে টাটা সন্স গোষ্ঠী।

আরো পড়ুন, ক্রমশ ফিকে হচ্ছে উজ্জ্বলা প্রকল্প

এই প্রসঙ্গে বিচারপতি এস জে মুখোপাধ্যায়ের নেতৃত্বে গড়ে ওঠা দুই সদস্যের বেঞ্চ জানিয়েছে আগামী সোমবার আদালতের শীতকালীন ছুটি শেষ হলে এনসিএলটি-র সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে জমা পড়া আবেদনের ভিত্তিতে নতুন করে রায় দেওয়া হবে। বিচারাধীন অবস্থায় কর্পোরেট বিষয়ক মন্ত্রক জানিয়েছে টাটা সন্সকে সরকারি থেকে বেসরকারি সংস্থায় রূপান্তরের সময় কোনও বেআইনি কাজ করা হয়নি।

১৮ ডিসেম্বর এনসিএলএটি সাইরাস মিস্ত্রিকে টাটা সন্সের একজিকিউটিভ চেয়ারম্যান পদে পুনর্বহালের নির্দেশ দিয়ে  জানিয়েছিল এর আগে সাইরাসকে সরিয়ে ওই পদে এন চন্দ্রশেখরনকে বসানোর পদক্ষেপ বেআইনি ছিল। ট্রাইব্যুনাল আরও জানিয়েছে বুধবারের নির্দেশের ঠিক ৪ সপ্তাহ পর থেকে কার্যকর হবে তা। এই সময়ের মধ্যে টাটার পক্ষ থেকে আবেদন জানানো যাবে। কোম্পানি ট্রাইব্যুনাল মুম্বই বেঞ্চে নিজের অপসারণকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে আবেদন করেছিলেন সাইরাস নিজে।

আরও পড়ুন, এক বছরে ১৮০০ কোটি! মহাদেশের শ্রেষ্ঠ বিত্তবান মুকেশ আম্বানি

এক বছর আগেই ট্রাইবুনাল নির্দেশ দিয়েছিল, সাইরাস মিস্ত্রির মামলার নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত তাঁকে তাঁর শেয়ার বিক্রির জন্য  বাধ্য করতে পারবে না টাটা সন্স। বুধবার সেই মামলায় সাইরাস মিস্ত্রির পক্ষেই রায় দিল ট্রাইব্যুনাল।

২০১৬ সালের অক্টোবর মাসে বোর্ড অফ দ্য গ্রুপ থেকে বহিষ্কার করা হয় সাপুরজি পালনজি গোষ্ঠীর মালিক পালনজি মিস্ত্রির পুত্র সাইরাসকে। ২০১২ সালে রতন টাটার উত্তরসূরি হিসেবে স্থলাভিষিক্ত হয়েছিলেন তিনি।

লন্ডনের ইম্পেরিয়াল কলেজ থেকে সিভিল ইঞ্জিনিয়রিং পাশ করে পারিবারিক নির্মাণ ক্ষেত্রের ব্যবসাতেই যোগ দিয়েছিলেন সাইরাস। তারপর টাটাতে যোগ দেন। টাটা ইন্ডাজট্রিজ, টাটা স্টিল, টাটা কেমিকালস এবং টাটা মোটরসের দায়িত্বে থেকেছেন বেশ কিছু সময়।

Web Title: Now ratan tata trustees move sc against nclat judgment on cyrus mistry

Next Story
“গরিব মানুষের হাতে টাকা না এলে কর্পোরেট কর কমিয়ে লাভ নেই”
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com