scorecardresearch

থমকালো রাজ্য, এবারও কলেজে কেন্দ্রীয়ভাবে অনলাইনে ভর্তি নয়

মঙ্গলবার রাজ্যের সব বিশ্ববিদ্যালয়গুলির উপাচার্যদের সঙ্গে বৈঠক শেষে এই খবর জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী।

wb Higher Education dept announces the rules of admission at the undergraduate level
কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির নির্ঘণ্ট প্রকাশ।

চলতি শিক্ষাবর্ষে কলেজে ভর্তির ক্ষেত্রে কেন্দ্রীয় অনলাইন ব্যবস্থা চালু হবে, এই আশ্বাস দিয়েছিলেন খোদ শিক্ষামন্ত্রী ব্রাত্য বসু। কিন্তু, ঘোষণাই সার। এবারও বাংলায় কেন্দ্রীয়ভাবে অনলাইনে ভর্তি প্রক্রিয়া চালু হচ্ছে না। মঙ্গলবার রাজ্যের সব বিশ্ববিদ্যালয়গুলির উপাচার্যদের সঙ্গে বৈঠক শেষে এই খবর জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী।

কেন এবারও স্নাতকস্তরে ভর্তির ক্ষেত্রে কেন্দ্রীয় অনলাইনে ব্যবস্থা চালু করা গেল না? শিক্ষামন্ত্রী ব্রাত্য বসুর কথায়, ‘কেন্দ্রীয় অনলাইনের পোর্টাল ঠিকমতো তৈরি হয়ে কাজ চালু করতে এখনও পাঁচ থেকে ছয় মাস সময় লাগবে। কিন্তু উচ্চমাধ্যমিকে তো বটেই, এছাড়া ইতিমধ্যেই বোর্ডের দ্বাদশ শ্রেণির ফলাফল প্রকাশ হয়ে গিয়েছে। তাই এখন অনলাইন পোর্টালে ভর্তির প্রক্রিয়া চালানো হলে সেক্ষেত্রে নানা ত্রুটি থাকার আশঙ্কা রয়েছে উপাচার্যদের, তাই তাড়াহুড়ো করা ঠিক হবে না। আগামী শিক্ষাবর্ষ থেকে কলেজে ভর্তির ক্ষেত্রে কেন্দ্রীয়ভাবে অনলাইনে ভর্তি প্রক্রিয়া চালু হবে।’

ফলে আগে কলেজগুলিতে যেভাবে পথক পৃথকভাবে অনলাইনে ভর্তি প্রক্রিয়া চলত, এবারও সেভাবেই ভর্তি প্রক্রিয়া চলবে।

আরও পড়ুন- করোনা সংক্রমণ ঊর্ধ্বমুখী, বাতিল মেডিক্যাল কলেজের পরীক্ষা

শিক্ষাবিদ নৃসিংহপ্রসাদ ভাদুড়ী শিক্ষামন্ত্রী আজকের ঘোষণা সমন্ধে বলেছেন, ‘সরকারের সাধু উদ্যোগ ছিল। কিন্তু, প্রযুক্তি তৈরি হয়নি। ভর্তি প্রক্রিয়া স্বচ্ছ করতেই কেন্দ্রীয়ভাবে অনলাইনে ভর্তির উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। কিন্তু তা একবার শুরু হয়ে অভিযোগ এলে বাজে হবে। তাই সবটা খতিয়ে দেখে আগামী বছর থেকে হসে ক্ষতি নেই।’

তবে বিরোধীদের অভিযোগ, শাসক দলের ছাত্র সংগঠনের অনুমতি না মেলাতেই রাজ্য সরকার ভর্তিতে কেন্দ্রীয় পোর্টাল চালু করতে পারল না।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Education news download Indian Express Bengali App.

Web Title: This year too no central online college admission in bengal