বড় খবর

“ভোটের সময় ‘পরীক্ষা পে চর্চা’ করছেন প্রধানমন্ত্রী, এটা কি বিধিভঙ্গ নয়?” প্রশ্ন মমতার

শুক্রবার বর্ধমানের জামালপুরের সভা থেকে ফের কমিশনকে একহাত নিলেন তৃণমূল সুপ্রিমো।

প্রথমে সংখ্যালঘু ভোট ভাগাভাগি, তারপর কেন্দ্রীয় বাহিনী নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্যের জেরে পরপর দুবার কমিশনের নোটিস গিয়েছে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাছে। দ্রুত জবাব চেয়েছে নির্বাচন কমিশন। কিন্তু মমতা আছেন মমতাতেই! শুক্রবার বর্ধমানের জামালপুরের সভা থেকে ফের কমিশনকে একহাত নিলেন তৃণমূল সুপ্রিমো। বললেন, “যখন ভোটের দিনগুলিতে রাজ্যে সভা করেন প্রধানমন্ত্রী, তখন নির্বাচনী বিধিভঙ্গ হয় না কেন?”

ভোটারদের ভয় দেখানো এবং বাড়ি বাড়ি গিয়ে বিজেপিকে ভোট দেওয়ার কথা বলছে কেন্দ্রীয় বাহিনী। গত কয়েকদিন ধরে প্রত্যেকটি জনসভায় এমনই অভিযোগ করছেন মুখ্যমন্ত্রী। এমনকী প্রয়োদেন কেন্দ্রীয় বাহিনীকে ঘেরাওয়ের নিদান দিয়েছেন মমতা। তার জেরেই দ্বিতীয়বার শোকজ নোটিস পাঠিয়েছে কমিশন। জবাব না পেলে নির্বাচনী বিধিভঙ্গের অভিযোগে ১৮৬, ১৮৯, ৫০৫ ধারায় মামলা দায়েরের হুঁশিয়ারি দিয়েছে কমিশন।

এরপরই জামালপুরের সভা থেকে রণংদেহী মূর্তি ধারণ করেন মমতা। পাল্টা প্রশ্ন করেন, যখন ভোটের দিনগুলিতে রাজ্যে সভা করেন প্রধানমন্ত্রী, “তখন নির্বাচনী বিধিভঙ্গ হয় না কেন? আমি বারবার কেন্দ্রীয় বাহিনীর কথা বলব। যতক্ষণ না ওরা বিজেপির হয়ে কাজ করা বন্ধ করবে, আমি সেন্ট্রাল ফোর্স নিয়ে বলবই। আমি ওদের শ্রদ্ধা করি, স্যালুট জানাই। আপনাদের শোকজ নোটিসকে পরোয়া করি না।”

তিনি ভোটের দিনগুলিতে রাজ্যে প্রধানমন্ত্রীর সভা নিয়ে কোনও পদক্ষেপ না করায় কমিশনের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন। বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী করেন বলে তিনিও ভোটের দিনগুলিতে নির্বাচনী সভা করছেন। “কেন বাংলায় ভোটের সময় পরীক্ষা পে চর্চা করছেন প্রধানমন্ত্রী, এটা কি নির্বাচনী বিধিভঙ্গ নয়?” প্রশ্ন মমতার।

Get the latest Bengali news and Election news here. You can also read all the Election news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: After ec notice for crpf remarks mamata says will not stop

Next Story
মাথাভাঙ্গায় তৃণমূল প্রার্থীর উপর নৃশংস আক্রমণ, কাঠগড়ায় বিজেপি
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com