scorecardresearch

বড় খবর

রাজীব গান্ধীর বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ উড়িয়ে দিলেন অবসরপ্রাপ্ত অ্যাডমিরাল

ওই প্রেস বিবৃতিতে ১৯৮৭ সালের বিভিন্ন ঘটনাক্রমের কথা উল্লেখ করা হয়েছে। বলা হয়েছে ১৯৮৭ সালের ডিসেম্বর মাসে দ্বীপ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের এক বৈঠকের নেতৃত্ব দেওয়ার জন্য রাজীব গান্ধী ও তাঁর স্ত্রী সোনিয়া গান্ধী ত্রিবান্দ্রম থেকে আইএনএস বিরাটে চড়ে রওনা দেন। 

রাজীব গান্ধীর বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ উড়িয়ে দিলেন অবসরপ্রাপ্ত অ্যাডমিরাল
নরেন্দ্র মোদী

রাজীব গান্ধীর বিরুদ্ধে তোলা মোদীর অভিযোগ উড়িয়ে দিলেন প্রাক্তন নৌসেনা অ্যাডমিরাল এল রামদাস। গত কাল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বলেছিলেন, রাজীব গান্ধী ব্যক্তিগত ছুটি কাটানোর জন্য ভারতীয় নৌবাহিনীর জাহাজ আইএনএস বিরাট ব্যবহার করেছিলেন। রামদাস জানিয়েছেন গান্ধী পরিবারের ব্যক্তিগত ব্যবহারের জন্য কোনও জাহাজ পাঠায়নি নৌসেনা।

আজ একটা প্রেস বিবৃতিতে অবসরপ্রাপ্ত অ্যাডমিরাল এল রামদাস জানিয়েছেন, “কোনও জাহাজ বিশেষভাবে গান্ধী পরিবারের জন্য পাঠানো হয়নি। কাবরাত্তি এলাকায় প্রধানমন্ত্রী ও তাঁর স্ত্রীর আপৎকালীন ব্যবস্থার জন্য একটি ছোট হেলিকপ্টার রাখা হয়েছিল।”

ওই বিবৃতিতে বলা হয়েছে, “আমি আইএনএস বিরাটের তৎকালীন ক্যাপ্টেন এবং কম্যান্ডিং অফিসার  অ্যাডমিরাল পসরিচা, আইএনএস বিরাটের সঙ্গী আইএনএস বিন্ধ্য়গিরির দায়িত্বে থাকা অ্যাডমিরাল অরুণ প্রকাশ, এবং আইএনএস গঙ্গার কম্যান্ডিং অফিসার ভাইস অ্যাডমিরাল মদনজিৎ সিংয়ের একটি লিখিত জবাবের দিকে দৃষ্টি আকর্ষণ করছি। একই সঙ্গে আমি উল্লেখ করছি লাক্ষাদ্বীপ দ্বীপপুঞ্জের দায়িত্বে থাকা নৌ অফিসারের একটি নোটের কথাও।”

ওই প্রেস বিবৃতিতে ১৯৮৭ সালের বিভিন্ন ঘটনাক্রমের কথা উল্লেখ করা হয়েছে। বলা হয়েছে ১৯৮৭ সালের ডিসেম্বর মাসে দ্বীপ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের এক বৈঠকের নেতৃত্ব দেওয়ার জন্য রাজীব গান্ধী ও তাঁর স্ত্রী সোনিয়া গান্ধী ত্রিবান্দ্রম থেকে আইএনএস বিরাটে চড়ে রওনা দেন।

তিনি আরও লিখেছেন এর নিশ্চয়তা পাওয়া যাবে এমন ফোটোও রয়েছে। ওই বিবৃতিতে বলা হয়েছে স্থানীয় দ্বীপের বাসিন্দাদের সঙ্গে মিলিত হওয়ার জন্য হেলিকপ্টারে চড়ে সে দ্বীপগুলিতে গিয়েছিলেন রাজীব ও তাঁর স্ত্রী, কবে রাহুল কখনওই তাঁদের সঙ্গে ছিলেন না।

দিল্লির রামলীলা ময়দানে ভাষণ দেওয়ার সময়ে প্রধানমন্ত্রী মোদী অভিযোগ করেছিলেন গান্ধী পরিবার বিরাট যুদ্ধজাহাজকে ব্যক্তিগত ট্যাক্সি হিসেবে ছুটি কাটানোর জন্য ব্যবহার করেছিলেন। এর একদিন পরেই রামদাসের বিবৃতি প্রকাশ্যে এল।

 

এর আগে কংগ্রেসের তরফ থেকে প্রধানমন্ত্রীর এই অভিযোগের সরাসরি জবাব না দেওয়া হলেও, অন্য দিক থেকে আক্রমণ হেনেছেন দলের মুখপাত্র রণদীপ সুরজেওয়ালা। একটি সংবাদমাধ্যমের রিপোর্ট উদ্ধৃত করে তিনি বলেন, দৃষ্টি ঘোরানো এবং মিথ্যাভাষণ আপনার শেষ আশ্রয়। ভারতীয় বিমানবাহিনীর বিমানকে আপনি ব্যক্তিগত ট্যাক্সি হিসাবে ব্যবহার করেছেন। নির্বাচনী ভ্রমণে ভারতীয় বিমানবাহিনীর বিমান ব্যবহার করে মাত্র ৭৪৪ টাকা ভাড়া দিয়েছেন আপনি।

নিজের পাপ আপনাকে তাড়া করছে, তাই আপনি নির্লজ্জের মতো অন্যদের দিকে আঙুল তুলছেন। বলেছেন সুরজেওয়ালা।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Election news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Retired admiral l ramdas refutes allegation on ins virat personal use of rajiv gandhi