বড় খবর

লকডাউনের নিয়ম ভেঙে স্যাঁলোতে! মার্কিন মুলুকে পুলিশি বিপাকে প্রিয়াঙ্কা চোপড়া

তারপর কী হল?

priyanka

ব্রিটেনজুড়ে করোনার নয়া স্ট্রেনের দাপট তুঙ্গে। ইতিমধ্যেই শুরু হয়ে গিয়েছে দ্বিতীয় দফার কড়া লকডাউন। আর এর মাঝেই মার্কিন মুলুকে পুলিশি বিপাকে পড়লেন দেশি গার্ল। হলটা কী? আসলে সেদেশে যখন করোনার নয়া স্ট্রেনের থেকে বাঁচতে কড়া লকডাউন চলছে, ঠিক সেই সময়েই বাড়ির বাইরে বেরনোয় নোটিস পাঠানো হল প্রিয়াঙ্কা চোপড়াকে (Priyanka Chopra)।

পরবর্তী সিনেমা ‘টেক্সট ফর ইউ’-এর শুটিংয়ের জন্যই লন্ডনে পাড়ি দেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। হঠাৎই সেখানে লকডাউন ঘোষণা করায় লন্ডন থেকে লস এঞ্জেলসে ফিরতে পারেননি অভিনেত্রী। ফলে আপাতত সেখানেই রয়েছেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া, নিক জোনাসরা। লন্ডনে আচমকাই এক স্থানীয় স্যালোঁতে ঢুঁ মারেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া এবং তাঁর মা মধু চোপড়া। সঙ্গে পোষ্য ডায়নাও ছিল। আর তা পুলিশের নজরে পড়তেই তড়িঘড়ি সেই স্যাঁলোতে গিয়ে প্রিয়াঙ্কাকে পুলিশের তরফে সাবধান করা হয়।

একেই অতিমারীর জের, উপরন্তু করোনার নয়া স্ট্রেন। মার্কিন মুলুকের স্বাস্থ্য পরিকাঠামোর কপালে যে রীতিমতো চিন্তার ভাঁজ পড়েছে, তা বলাই বাহুল্য। আর এসবের মাঝেই একজন নামী ব্যাক্তিত্ব হয়েও কিনা স্যাঁলোতে গিয়েছেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া! দায়িত্ব-কর্তব্যেরর প্রশ্ন তো ওঠেই। আর তাই পুলিশের তরফে সাবধানবাণী দেওয়া হয় ভারতীয় অভিনেত্রীকে। শুধু তাই নয়, স্যালোঁ কতৃপক্ষকেও সাবধান করা হয় সে দেশের পুলিসের তরফে। যদিও প্রথমবার বলেই কোনও জরিমানা করা হয়নি পুলিসের তরফে।

অন্যদিকে ঘটনার পরপরই প্রিয়াঙ্কা চোপড়ার টিমের তরফে মুখ খোলা হয়। অভিনেত্রীর টিমের তরফে জানানো হয়, প্রিয়াঙ্কা লন্ডনে রয়েছেন পরবর্তী সিনেমার শ্যুটিংয়ের জন্য। একজন হলিউড তারকা হিসেবে প্রযোজনা সংস্থার জন্যই ওই স্যালোঁয় যান প্রিয়াঙ্কা। ব্যক্তিগত কোনও প্রয়োজনে নয়। এদিকে মার্কিন সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, ওই স্যাঁলোতে ব্যক্তিগত প্রয়োজনেই ঘণ্টাখানেকের জন্য নিজস্ব সেশন বুক করিয়েছিলেন প্রিয়াঙ্কা ও তাঁর মা মধু চোপড়া।

Web Title: Actress priyanka chopra flouts pandemic lockdown rules in london

Next Story
অমিতাভের কণ্ঠ শুনতে নারাজ, করোনা নিয়ে কলার টিউন বন্ধের আর্জি আদালতেamitabh
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com