scorecardresearch

বড় খবর
এক ফ্রেমে কেন্দ্রীয় কয়লামন্ত্রী ও কয়লা মাফিয়া, বিজেপিকে বিঁধলেন অভিষেক

আমন্ত্রণে সাড়া মুখ্যমন্ত্রীর, টেলিদম্পতি নীল-তৃণাকে আশীর্বাদ করতে বিয়েতে হাজির মমতা

মমতাকে আসার জন্য অনুরোধ রেখেছিলেন তৃণা সাহা। সেই অনুরোধ ফেলেননি মুখ্যমন্ত্রী।

আমন্ত্রণে সাড়া মুখ্যমন্ত্রীর, টেলিদম্পতি নীল-তৃণাকে আশীর্বাদ করতে বিয়েতে হাজির মমতা

কথা রাখলেন মুখ্যমন্ত্রী। টেলি তারকা নবদম্পতি তৃণা সাহা ও নীল ভট্টাচার্যকে আশীর্বাদ করতে পৌঁছে গেলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)। তপসিয়ার ‘গ্রিন অর্কিড’-এ বসে বিবাহ আসর। জাকজমকপূর্ণ আয়োজন। তার মধ্যেই আসর আলো করে উপস্থিত হন মুখ্যমন্ত্রী। মমতাকে আসার জন্য অনুরোধ রেখেছিলেন তৃণা সাহা। সেই অনুরোধ ফেলেননি মুখ্যমন্ত্রী। শত ব্যস্ততার মধ্যেও সময় করে ঠিক পৌঁছে যান তিনি।

নিজের জন্মদিনে মুখ্যমন্ত্রীর কাছে গিয়ে আমন্ত্রণপত্র দিয়ে এসেছিলেন তৃণা সাহা। অনুরোধ করেছিলেন, দিদি যেন তাঁর জীবনের এই বিশেষ দিনে তাঁকে এবং নীলকে আশীর্বাদ করেন। আর সেই অপেক্ষা এবং আশা পূরণ হল ‘খড়কুটো’ ধারাবাহিকের অভিনেত্রী তৃণা সাহা এবং ‘কৃষ্ণকলি’ ধারাবাহিকের নায়ক নীলের। বেজায় উচ্ছ্বসিতও বটে তারকাজুটি।

আসলে তৃণা জানতে পেরেছিলেন যে, ‘খড়কুটো’ ধারাবাহিকটি মমতার ভীষণ পছন্দের। আর সেই সূত্রেই তিনি তৃণাকে চিনেছিলেন। এত ব্যস্ততার মধ্যেও সময় করে হটস্টার-এ ‘খড়কুটো’র নানা পর্ব দেখেন তিনি। আর সেই থেকেই অভিনেত্রীর সাধ জেগেছিল যে, মুখ্যমন্ত্রী যদি তাঁদের বিয়ের অনুষ্ঠানে উপস্থিত থেকে আশীর্বাদ করে যান। তাই নিমন্ত্রণপত্রও দিয়ে এসেছেন।

প্রসঙ্গত, বৃহস্পতিবার সকাল থেকেই হুলুস্থূল নীল-তৃণার বাড়িতে। তারকাজুটির গায়ে হলুদের অনুষ্ঠানও হল একেবারে সিনেমার মতোই। মেহেন্দি-সংগীত থেকে শুরু করে ব্যাচেলর পার্টি সবেতেই জমিয়ে দিয়েছেন নীল-তৃণা জুটি। বিয়েতেও যে এলাহি আয়োজন থাকছে, তা বলাই বাহুল্য।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Entertainment news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Cm mamata banerjee attends nil trinas marriage occasion