বড় খবর

একুশের ‘রণনীতি’ তুঙ্গে, তৃণমূলে যোগ ২ ডাকসাইটে অভিনেতা ভরত কল এবং দীপঙ্কর দে’র

রাজ্যের মন্ত্রী ব্রাত্য বসু এবং যুব তৃণমূলের সহ-সভাপতি তথা অভিনেতা সোহমের উপস্থিতিতেই ভরত ও দীপঙ্কর হাতে তুলে নেন ঘাসফুলের সবুজ পতাকা। যোগ দিলেন অভিনেত্রী লাভলি মৈত্রও।

Dipankar Dey, Bharat Kaul, Luvly Moitra joins TMC

কানাঘুষো আগেই শোনা যাচ্ছিল যে, ইন্ডাস্ট্রির বেশ ক’জন তারকা এবার সক্রিয় রাজনীতিতে নামতে চলেছেন। যোগ দিতে চলেছেন রাজ্যের শাসক দলে। দুয়ারে একুশের নির্বাচন। সম্মুখ সমরে বঙ্গ বিজেপির ‘স্টার স্ট্র্যাটেজি’ও তুঙ্গে। কাজেই পদ্ম শিবিরকে টেক্কা দিতে জোড়াফুলও বেশ গুছিয়ে ‘রণনীতি’ সাজাচ্ছে। সেই জল্পনার অবসান ঘটিয়েই শুক্রবার তৃণমূলে যোগ দিলেন টেলিভিশন ইন্ডাস্ট্রির দুই ডাকসাইটে অভিনেতা ভরত কল এবং দীপঙ্কর দে। রাজ্যের মন্ত্রী ব্রাত্য বসু এবং যুব তৃণমূলের সহ-সভাপতি তথা অভিনেতা সোহম চক্রবর্তীর উপস্থিতিতেই ভরত ও দীপঙ্কর হাতে তুলে নেন ঘাসফুলের সবুজ পতাকা।

দলে যোগ দিয়েই দীপঙ্কর দে আশাবাদী, “একুশের নির্বাচনে জিতছে তৃণমূল। বাংলায় মমতা সরকারই থাকছে।” ধারাবাহিক, সিনেমার দৌলতে ভরত কল, দীপঙ্কর দে বেজায় পরিচিত মুখ। আর সেই প্রেক্ষিতেই একুশের বিধানসভা নির্বাচনে তারকাদের মুখ যে কিছুটা হলেও তৃণমূলের নম্বর বাড়াবে, তা বোধহয় আর আলাদা করে বলার প্রয়োজন পড়ে না। বহু নেতামন্ত্রীদের দলবদলের হিরিকের মাঝেই এটা তৃণমূলের তরফে যে নতুন চমক, তা বলাই বাহুল্য। দীপঙ্কর ও ভরত কলের সাফ কথা, “মুখ্যমন্ত্রীর জনসেবাই তাঁদের অনুপ্রেরণা। রাজনীতিতে এসেছেন মানুষের জন্য কাজ করতে।”

প্রসঙ্গত রাজ্য-রাজনীতি একদিকে সরগরম। গ্ল্যামার ইন্ডাস্ট্রির সঙ্গে রাজনীতি মিলে মিশে একাকার। কারও গেরুয়া শিবিরে নাম লেখানোর জল্পনা হাওয়ায় ভাসছে, কেউ বা আবার রাজ্যের শাসক দলের হয়ে সুর চড়াচ্ছেন, তো কাউকে বা আবার দেখা যাচ্ছে ‘অ-পোক্ত’ বামদুর্গকে ফের খড়-মাটি লেপে দাঁড় করানোর প্রচেষ্টা চালাতে। সব মিলিয়ে একুশের বিধানসভা নির্বাচন এখন মধ্যমণি। এর মাঝেই রাজ্যের শাসক দলে নাম লেখালেন অভিনেতা ভরত কল, দীপঙ্কর দে, অভিনেত্রী লাভলি মৈত্র।

Web Title: Dipankar dey bharat kaul luvly moitra joins tmc

Next Story
স্বস্তিতে ‘জেলবন্দি’ মুনাবর ফারুকি, জামিনের আবেদন মঞ্জুর করল সুপ্রিম কোর্টMunawar Faruqui
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com