‘গর্বিত, আমরা বাংলা টেলিজগতের অংশ’! সোশাল মিডিয়ায় সরব অভিনেতারা

সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যু ফের উস্কে দিয়েছে ছোটপর্দা বনাম বড়পর্দা বিতর্ক। কেন টেলিমাধ্যমকে বিনোদন জগতের অনেকেই নীচু নজরে দেখেন, সেই প্রশ্ন উঠছে।

By: Kolkata  Updated: June 18, 2020, 10:37:07 AM

সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর পরে সোশাল মিডিয়ায় আরও একবার চর্চার কেন্দ্রবিন্দুতে উঠে এসেছে বিনোদন জগতে ছোটপর্দার অভিনেতাদের সম্মান প্রদর্শনের বিষয়টি। জাতীয় বা আঞ্চলিক বিনোদন জগতে ছোটপর্দা ও বড়পর্দার একটি বিভাজন যে রয়েছে, তা বহু বার বহু অভিনেতা-অভিনেত্রী সংবাদমাধ্যমের কাছে এবং সোশাল মিডিয়াতে বলেছেন। অতি সম্প্রতি এই নিয়ে সোশাল মিডিয়ায় সরব হয়েছেন বাংলা বিনোদন জগতের অনেকেই, বিশেষ করে জয়জিৎ বন্দ্যোপাধ্যায় ও রাজা গোস্বামী।

তবে দুজনে দুটি ভিন্ন অনুঘটকের ভিত্তিতে সরব হয়েছেন। জয়জিৎ বন্দ্যোপাধ্যায় গত ১৫ জুন একটি ফেসবুক লাইভে এসে বলেন যে ধারাবাহিকের শুটিং শুরু হওয়ার পর সোশাল মিডিয়ায় অনেকে বলতে শুরু করেছেন, আবারও বস্তাপচা ধারাবাহিক শুরু হলো। অভিনেতা ওই লাইভ সেশনে উল্লেখ করেন, যাঁরা এই ধরনের কথা বলেন, তাঁদেরই একাংশ আবার ধারাবাহিকের পরবর্তী এপিসোডের গল্প জানতে চান। সেই কথার সূত্র ধরেই তিনি তাঁর লাইভ সেশনে জানান যে বড়পর্দা ও ছোটপর্দা, দুই মাধ্যমেই কাজ করলেও, মূলত তিনি টেলি-অভিনেতা এবং সেই নিয়ে তাঁর কোনও দুঃখ নেই।

অন্যদিকে, অভিনেতা রাজা গোস্বামী সম্পূর্ণ একটি ভিন্ন দৃষ্টিকোণ থেকে দেখেছেন বাংলা টেলিভিশনের সঙ্গে তাঁর দীর্ঘ সম্পর্কের কথা। সুশান্ত সিং রাজপুত ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের পড়া মাঝপথে থামিয়ে অভিনয়কে বেছে নিয়েছিলেন পেশা হিসেবে। হিন্দি ধারাবাহিকে অভিনয় দিয়ে তাঁর কাজের শুরু।

রাজা তাঁর সাম্প্রতিক ফেসবুক পোস্টে জানিয়েছেন যে একটা সময় তিনিও মুম্বই গিয়ে অভিনেতা হওয়ার পরিকল্পনা করেছিলেন, কিন্তু সেই সময়েই একটি বাংলা ধারাবাহিকে কাজের সুযোগ আসে এবং তার পর থেকে আজ পর্যন্ত এই জগত তাঁকে যত্ন করে লালন করে চলেছে। তাই তিনি এই জগতের অংশ হিসেবে অত্যন্ত গর্বিত-

ছোটপর্দা ও বড়পর্দার অভিনেতা-অভিনেত্রীদের আলাদা চোখে দেখার এই বিষয়টি বহু বছরের একটা অভ্যাস যা দর্শকের মধ্যেও রয়েছে, বিনোদন জগতের মধ্যেও রয়েছে। এর প্রধান কারণ, মাধ্যম হিসেবে টেলিভিশন জনপ্রিয় হয় আশির দশকে। তার আগে তারকা বলতে শুধুই সিনেমার তারকাদেরই বোঝানো হতো। যখন টেলিভিশনের অভিনেতা-অভিনেত্রীদের জনপ্রিয়তা হু হু করে বাড়তে থাকে, তখন টেলিভিশনের হাত ধরে একটা নতুন স্টারডম তৈরি হয়। আর সেখান থেকেই শুরু হয় ছোটপর্দা বনাম বড়পর্দার স্টারডম নিয়ে দ্বন্দ্ব।

যেহেতু বড়পর্দার প্রয়োগ ছোটপর্দার তুলনায় অনেক বেশি বহুমাত্রিক, তাই সেই কারণেও বিনোদন জগতের অনেকেই মনে করেন, ছোটপর্দার চেয়ে বড়পর্দায় অভিনয় অনেক বেশি কঠিন। তাই অভিনয় ক্ষমতা বা দক্ষতার দিক থেকেও বড়পর্দার অভিনেতারা ছোটপর্দার অভিনেতাদের তুলনায় উচ্চমার্গের।

এই দ্বন্দ্বটা ভুল কী ঠিক, সেটা অন্য প্রশ্ন, কিন্তু এই দ্বন্দ্বটা আছে এবং সম্ভবত আরও বহু বছর থাকবে। এই দ্বন্দ্বকে উপেক্ষা করেই যে বাংলা টেলিভিশনের অভিনেতারা তাঁদের কাজ নিয়ে গর্বিত, সেটাই প্রমাণ করে জয়জিৎ বন্দ্যোপাধ্যায় ও রাজা গোস্বামীর সাম্প্রতিক সোশাল মিডিয়া পোস্টগুলি। বাংলা টেলিভিশনের বহু অভিনেতা-অভিনেত্রীই এই পোস্টগুলিতে তাঁদের ব্যক্তিগত মতামত জানিয়েছেন, নিজেদের অভিজ্ঞতার কথাও বলেছেন। এই বিষয়ে আলাপ-আলোচনা সোশাল মিডিয়ায় যে আরও কিছুদিন চলবে, তা বেশ স্পষ্ট।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get all the Latest Bengali News and West Bengal News at Indian Express Bangla. You can also catch all the Entertainment News in Bangla by following us on Twitter and Facebook

Web Title:

Proud to be part of television bengali tv stars vocal on social media

The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com.
Advertisement

ট্রেন্ডিং
MUST READ
X