scorecardresearch

বড় খবর

‘KK যেখানেই থাকুন, ভাল থাকুন’, হাতজোড় করে ক্ষমাভিক্ষা রূপঙ্কর বাগচির

বিতর্কে ইতি টানতে ভিডিও ডিলিট করলেন রূপঙ্কর।

‘KK যেখানেই থাকুন, ভাল থাকুন’, হাতজোড় করে ক্ষমাভিক্ষা রূপঙ্কর বাগচির
রূপঙ্কর, কেকে

“কেকে… কেকে.. হু ইজ কেকে, ম্যান?”, এই প্রশ্নটা ছুঁড়েই ভয়ঙ্কর বিপাকে পড়েছেন রূপঙ্কর বাগচি (Rupankar Bagchi)। বিতর্কিত সেই ভিডিওর ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই মুম্বইয়ের জনপ্রিয় শিল্পী কৃষ্ণকুমার কুন্নথের আকস্মিকপ্রয়াণ (KK Death)। তারপর থেকেই নেটদুনিয়ায় সমালোচনা। বিতর্কের ঝড়। ক্রমাগত হুমকি ফোনও পেয়েছেন। এবার সেই প্রেক্ষিতেই সাংবাদিক সম্মেলন করে হাতজোড় করে ক্ষমাভিক্ষা চাইলেন রূপঙ্কর।

বিতর্কে ইতি টানতে ভিডিও ডিলিট-ও করলেন রূপঙ্কর। তাঁর কথায়, কেকে সম্পর্কে কোনও বিদ্বেষ নেই। ভারত বিখ্যাত শিল্পী তিনি। গুছিয়ে কথা না বলতে পারাতেই বিতর্ক। আমি তো শুধু বাংলার শিল্পীদের কথাই বলতে চেয়েছিলাম। যাঁদের নাম সেদিন ভিডিওতে উল্লেখ করেছি, তাঁদের জিজ্ঞেস করে নাম নেওয়া উচিত ছিল। আমার সঙ্গীতজীবনের কেরিয়ারে এরকম বিভীষিকার শিকার হইনি কখনও। দক্ষিণ ভারত, ওড়িশার শিল্পীরা ঐক্যবদ্ধভাবে থাকেন, তবে বাংলায় এখনও শিল্পীদের সেই বিষয়ে খানিক ধন্দ রয়েছে। প্রেসক্লাবের সাংবাদিক সম্মেলনে ঠিক কী বললেন রূপঙ্কর বাগচি? শুনুন।

[আরও পড়ুন: শাস্তি পেলেন রূপঙ্কর! বাজবে না আর ‘মিও আমোরে..’ গান]

প্রসঙ্গত, কৃষ্ণকুমার কুন্নথের আকস্মিকপ্রয়াণের পর থেকেই নেটদুনিয়ার রোষানলে রূপঙ্কর। সোশ্যাল মিডিয়াতেও ট্রেন্ডিং রূপঙ্কর। নেটদুনিয়ায় কটাক্ষ, কটুক্তি ভরা মন্তব্যের ছয়লাপ। শিল্পী হিসেবে তাঁর নৈতিকতা নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন বিনোদনমহলের একাংশ তো বটেই, এমনকী নেটিজেনরাও। এমতাবস্থায়, রূপঙ্করের গাওয়া গান, পুরনো ভিডিও সবই কেচ্ছা-আলোচনার শীর্ষে। যাঁদের হয়ে প্রতিবাদ করেছিলেন, সেই ইমন চক্রবর্তী, রাঘব চট্টোপাধ্যায়রা কেউই রূপঙ্করের পাশে দাঁড়াননি। তবে নচিকেতা, শ্রীলেখারা যদিও রূপঙ্করের এমন মন্তব্যকে সমর্থন না করলেও শিল্পী হিসেবে তাঁর পাশে দাঁড়িয়েছেন।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Entertainment news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Rupankar bagchi apologised on kk death remark