scorecardresearch

“তুইও বিক্রি হয়ে গেলি, খেলতে নামলি?” সায়নীর তৃণমূলে যোগদানের পরই ‘আক্রমণ’ শ্রীলেখার

বুধবারই তৃণমূলে যোগ দিয়েছেন সায়নী ঘোষ। আর সহকর্মীর এমন পদক্ষেপেই আক্ষেপ প্রকাশ বাম মনোভাবাপন্ন শ্রীলেখা মিত্রর।

“তুইও বিক্রি হয়ে গেলি, খেলতে নামলি?” সায়নীর তৃণমূলে যোগদানের পরই ‘আক্রমণ’ শ্রীলেখার

“এটা আশা করিনি। তুইও বিক্রি হয়ে গেলি। খেলতে নেমে গেলি? খুবই দুঃখের”, বুধবার তৃণমূলে যোগ দেওয়ার পরই সায়নী ঘোষকে (Sayani Ghosh) কটাক্ষ শ্রীলেখা মিত্রর (Sreelekha Mitra)।

প্রসঙ্গত, সায়নী ও শ্রীলেখা দুই টলি-নায়িকাই বামপন্থী মতাদর্শে বিশ্বাসী। একাধিকবার তাঁদের সোশ্যাল মিডিয়া পোস্ট এবং মন্তব্যেও তা প্রকাশ পেয়েছে। তবে সায়নী ঘোষের ক্ষেত্রে সেই মতাদর্শ এখন অতীত। কারণ, বুধবারই তিনি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের আদর্শে দীক্ষিত হয়ে নাম লিখিয়েছেন সবুজ শিবিরে। আর তাতেই বেজায় চটে গেলেন শ্রীলেখা। যিনি কিনা আজও মনে-প্রাণে আদ্যন্ত বামপন্থী। আর তাই সায়নী ঘোষের রাজনৈতিক মতাদর্শ বদলকে ভাল চোখে মেনে নিতে পারেননি শ্রীলেখা মিত্র। তাই সোশ্যাল সাইটেই সহকর্মীর উদ্দেশে বিস্ফোরক মন্তব্য করেছেন। আক্ষেপ করেছেন, ‘কেন এই রাজনৈতিক রং-বদলের দিনে সায়নীও বিক্রি হয়ে গেলেন!’

উল্লেখ্য, ‘ভবিষ্যতের ভূত’ সিনেমা প্রদর্শন নিয়ে যখন টলিউডের বিদ্বজ্জনেরা মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে মুখ খুলেছিলেন, সেই দলে শামিল ছিলেন সায়নী ঘোষও। ‘তৎকালীন’ বামপন্থী মতাদর্শে বিশ্বাসী অভিনেত্রীও তীব্র সমালোচনা করেছিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের। সেই তিনিই কিনা এবার ঘাসফুল শিবিরে নাম লেখালেন! হতবাক শ্রীলেখাও। তাই তাঁর এই আক্ষেপ। কারণ, শিক্ষা-সংস্কৃতি, বুদ্ধি যে কোনও ময়দানেই ঘাসফুল কিংবা পদ্ম শিবিরের তুলনায় বামপন্থী মনোভাবাপন্নদের কয়েক গুণ এগিয়ে রাখেন অভিনেত্রী-পরিচালক।

উল্লেখ্য দিন কয়েক আগেই, রাজনৈতিক দল-বদলের পালাকে কটাক্ষ করে শ্রীলেখা বলেছিলেন, “সেল… সেল… তারকাদের বিক্রি আছে, কিন্তু শিল্পীদের নয়!” বরাবরই তিনি স্পষ্টবক্তা। এবারও সেই পন্থা অবলম্বন করলেন। সম্প্রতি টলিউড ইন্ডাস্ট্রির তারকারা যেভাবে নিত্যদিন কেউ শিবির বদলাচ্ছেন, ‘এ ফুল, ও ফুল’ করছেন, আবার কেউ বা রাজনীতির ময়দানে ‘শিক্ষানবীশ’ হিসেবে অভিষেক ঘটাচ্ছেন, সেই প্রেক্ষিতেই মুখ খুলেছিলেন শ্রীলেখা। অতঃপর স্বভাবসিদ্ধগতভাবেই বিঁধেছিলেন ‘ওঁদের’, যাঁরা কিনা গ্ল্যামার ইন্ডাস্ট্রির অংশ হয়েও রাজনীতির ময়দানে শিল্পীসত্ত্বা বিসর্জন দিয়ে একে-অপরের দিকে কাঁদা ছোঁড়াছুঁড়িতে মত্ত হয়েছেন বর্তমানে। তখনই স্পষ্ট জানিয়েছিলেন যে, ‘বাম শিবিরের (CPM) পক্ষ থেকে সেরকমভাবে কোনও প্রস্তাব এলে, যদি তিনি ‘কনভিনসড’ হন, তাহলে বাম শিবিরে যোগ দেবেন।’ সেই প্রেক্ষিতেই সম্ভবত মনে-প্রাণে বামপন্থী শ্রীলেখা মিত্র সায়নী ঘোষের এই পালা-বদলকে মেনে নিতে পারেননি।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Entertainment news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Sreelekha mitra slams sayani ghosh after shes joins tmc