scorecardresearch

বড় খবর

চোখেমুখে আতঙ্ক! ডুয়ার্সের জঙ্গলে পঙ্কজ ত্রিপাঠী, তারপর…

বাঘের খপ্পড়ে পড়েছিলেন? সঙ্গে বন্দুকধারী নীরজ কবিও। দেখুন।

চোখেমুখে আতঙ্ক! ডুয়ার্সের জঙ্গলে পঙ্কজ ত্রিপাঠী, তারপর…
ডুয়ার্সের জঙ্গলে পঙ্কজ ত্রিপাঠী

ডুয়ার্সের জঙ্গলে ‘কালিন ভাইয়া’! মাথায় বাঁধা লাল ফেট্টি। পরনে সোয়েটার। ছাপোষা পোশাক। কাঁধে ঝোলা ব্যাগ। চোখেমুখে আতঙ্কের ছাপ! প্রাণভয় তাড়া করে বেড়াচ্ছে। যেন কোনও জন্তুর সম্মুখীন হয়েছেন। জঙ্গলে কী এমন ঘটল যার জন্য আতঙ্কিত পঙ্কজ ত্রীপাঠী (Pankaj Tripathi)?

সঙ্গী হিসেবে অবশ্য অবিনেতা নীরজ কবিকেও (Neeraj Kabi) দেখা গেল। বন্দুকধারী নীরজ তাক করে রয়েছেন। বিষয়টা খোলসা করেই বলা যাক তাহলে। লাটাগুড়ির গহীন জঙ্গলে গিয়ে বলিউড অভিনেতা পঙ্কজের আতঙ্কের নেপথ্যে আসলে সৃজিত মুখোপাধ্যায় (Srijit Mukherji)। ‘শেরদিল’ সিনেমার শুটিং হয়েছে ডুয়ার্সের বেশকিছু অংশে। সেই শুটের জন্যই এমন সৃজিতের ক্যামেরার সামনে এমন অভিব্যক্তি দেওয়া পঙ্কজ ত্রিপাঠীর।

গত নভেম্বর মাসে লাটাগুড়ি, গরুমারা ফরেস্টে গিয়ে ‘শেরদিল’-এর শুটিং করেছে গোটা টিম। ‘মির্জাপুর’-এর ‘কালিন ভাইয়া’র এহেন অবতার দেখে তো অনুরাগীরা উন্মাদনায় ফুটছেন। ডুয়ার্সের জঙ্গলে গিয়ে বাঘের খপ্পড়ে পড়েছিলেন পঙ্কজ। সেটাও অবশ্য সিনেমার চিত্রনাট্যের জন্যই।

বুধবার ‘শেরদিল’ (Sherdil)-এর অভিনেতাদের লুক প্রকাশ্যে এনেছেন সৃজিত। পঙ্কজ ত্রিপাঠী, নীরজ কবিদের সঙ্গে দেখা গেল ছাপোষা গৃহিণী লুকে সায়নী গুপ্তাকেও (Sayani Gupta)। পঙ্কজের স্ত্রীয়ের ভূমিকায় অভিনয় করেছেন তিনি। মাটির ঘরের দাওয়ায় বসে সেলাই করছেন সায়নী আর পাশেই হাসিমুখে তাঁর কর্তার ভূমিকায় ধরা দিলেন পঙ্কজ।

প্রসঙ্গত, ২০১৯ সালেই ‘শেরদিল’ ছবির ঘোষণা করে ফেলেছিলেন সৃজিত মুখোপাধ্যায়। ‘সাবাশ মিঠু’ তখনও তাঁর ঝুলিতে আসেনি। মাঝে অতিমারী ভোগান্তি। তবে পর্দায় মিথিলা রাজের জীবনকাহিনি তুলে ধরার কাজ আগেভাগে শেষ করে, নিজের এই স্বপ্নের প্রজেক্টে হাত দিয়েছিলেন তিনি। ওদিকে ‘রাজকাহিনি’ দেখে দর্শকরা পরিচালকের মার্কশিটে ভাল নম্বর বসালেও ‘বেগমজান’-এর ক্ষেত্রে খানিক আশাহত হয়েছিলেন। তবে ‘শেরদিল’ নিয়ে উন্মাদনা তুঙ্গে। কারণ, এই ছবির গল্প সত্য ঘটনা অবলম্বনে। উপরন্তু এহেন ডাকসাইটে কাস্টিং- পঙ্কজ ত্রিপাঠী, নীরজ কবি।

‘শেরদিল’ নিয়ে ভাবনার সূত্রপাত কোথায়? ২০১৬ সালে আসলে খবরের কাগজে নেপালের একটি ঘটনার কথা জানতে পারেন সৃজিত মুখোপাধ্যায়। নেপাল সীমান্তে ৬০২ কিমি অঞ্চলজুড়ে একটি ব্র্যঘ্র প্রকল্প রয়েছে। যেখানে বাঘের সংখ্যা পঞ্চাশের বেশি। সরকারি নিয়ম অনুযায়ী, জঙ্গলের বাইরে বাঘের আক্রমণে কোনও এলাকাবাসীর মৃত্যু ঘটলে মৃতের পরিবারকে ১০ লক্ষ টাকা দেওয়া হবে। আর সেই টাকা পাওয়ার আশাতেই নাকি বহু দুঃস্থ পরিবার তাঁদের বৃদ্ধ কিংবা অসহায় কোনও পরিবারের সদস্যকে জঙ্গলে ছেড়ে দিয়ে আসত। পেটের দায় বড় দায়! খিদের জ্বালা মানবিকতার থেকেও বড় হয়ে ওঠে। সেইরকমই ঘটনা নিয়ে ‘শেরদিল’-এর গল্প সাজান সৃজিত। কবে রিলিজ করছে? জুন মাসের ২৪ তারিখে প্রেক্ষাগৃহে আসছে শেরদিল।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Entertainment news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Srijit mukherji shares pankaj tripathis sherdil look