scorecardresearch

বড় খবর

সংবিধানের ৩৭১ নং অনু্চ্ছেদে আছেটা কী?

দেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ আশ্বাস দিয়েছেন, ৩৭১ ধারায় হাত দেওয়ার পরিকল্পনা নেই সরকারের। কী আছে ৩৭১ ধারায়, কোন কোন রাজ্য এ ব্যাপারে সুবিধা ভোগ করে, একবার চোখ বুলিয়ে নেওয়া যাক।

সংবিধানের ৩৭১ নং অনু্চ্ছেদে আছেটা কী?
সংবিধানের ৩৭০ নং অনুচ্ছেদে জম্মু কাশ্মীরের সংস্থান বিষয়ে উল্লেখ রয়েছে

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ লোকসভায় মঙ্গলবার বলেছেন সংবিধানের ৩৭১ ধারা প্রত্যাহার করার কোনও পরিকল্পনা সরকারের নেই। ৩৭১ ধারা বলে উত্তর পূর্বাঞ্চলের ৬টি রাজ্য সহ ১১টি রাজ্যের বিশেষ কিছু সুযোগ সুবিধা রয়েছে। কংগ্রেস নেতার ৩৭০ ধারা নিয়ে সরকারের পদক্ষেপের পর আশঙ্কা প্রকাশ করেছিলেন যে এবার ৩৭১-এ হাত দেবে সরকার। অমিত শাহের আশ্বাসবাণী এই আশঙ্কার প্রেক্ষিতেই।

অনুচ্ছেদ ৩৭১, মহারাষ্ট্র ও গুজরাট– রাজ্যপালের বিশেষ দায়িত্ব রয়েছে বিদর্ভ, মারাঠওয়াড়া, এবং বাকি মহারাষ্ট্রের জন্য বিশেষ উন্নয়ন বোর্ড তৈরি করার। গুজরাটের কচ্ছ ও সৌরাষ্ট্র এলাকায়  উন্নয়নের খাতে খরচ যথাযথভাবে করার জন্য এবং প্রযুক্তিগত ও বৃত্তিমূলক শিক্ষার সুবিধার্থে যথাযথ ব্যবস্থা করার জন্য ও যথেষ্ট কর্মসংস্থানের জন্য বোর্ড তৈরির বিশেষ দায়িত্ব রয়েছে রাজ্যপালের।

আরও পড়ুন, মর্যাদাহীন জম্মু কাশ্মীর হারাল তাদের নিজস্ব পতাকাও

৩৭১ এ (১৩তম সংশোধনী, ১৯৬২), নাগাল্যান্ড– ১৯৬০ সালে নাগা পিপলস কনভেনশনের সঙ্গে কেন্দ্রের ১৬ দফা চুক্তির পর এই সংস্থান গৃহীত হয়, যার জেরে ১৯৬৩ সালে নাগাল্যান্ড গঠিত হয়। নাগাদের নিজস্ব ধর্ম ও আচরণের ব্যাপারে সংসদ নাক গলাতে পারে না এবং রাজ্য বিধানসভার সম্মতি ছাড়া কোনও জমি হস্তান্তর করতে পারে না।

৩৭১ বি (২২ তম সংশোধনী, ১৯৬৯), আসাম- রাজ্যের জনজাতি এলাকা থেকে নির্বাচিত সদস্যদের নিয়ে রাষ্ট্রপতি বিশেষ কমিটি তৈরি করতে পারেন।

৩৭১ সি (২৭ তম সংশোধনী, ১৯৭১) মণিপুর– বিধানসভার পার্বত্য এলাকার নির্বাচিত প্রতিনিধিদের নিয়ে কমিটি গঠন করতে পারেন রাষ্ট্রপতি এবং তার কাজকর্মের দেখভালের জন্য বিশেষ অধিকার দিতে পারেন রাজ্যপালকে।

৩৭১ ডি, অন্ধ্রপ্রদেশ ও তেলেঙ্গানা– রাষ্ট্রপতিকে সর্বত্র সুযোগ সুবিধার সমবণ্টন ও রাজ্যের বিভিন্ন এলাকার মানুষের কর্মসংস্থান ও শিক্ষা নিশ্চিত করতে হবে।

আরও পড়ুন, এমন বন্দিদশা কাশ্মীর আগে কখনও দেখেনি

৩৭১ ই,  সংসদের আইনবলে অন্ধ্রপ্রদেশে একটি বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপন করা যেতে পারে। তবে এটি কোনও বিশেষ সংস্থান নয়।

৩৭১ এফ, সিকিম– বিধানসভার সদস্যরা প্রতিনিধি নির্বাচন করবেন। সিকিমের বিভিন্ন জনগোষ্ঠী মানুষজনের জন্য বিধানসভায় প্রিনিধিত্বের জন্য সংসদ বিধানসভায় আসন সংখ্যা স্থির করে দিতে পারে, যে সব আসনগুলিতে ওই জনগোষ্ঠীর সদস্যরাই থাকবেন।

৩৭১ জি, মিজোরাম– মিজোদের ধর্মীয় বা সামাজিক আচরণ নিয়ে বা মিজোদের নিজস্ব আইনকানুন নিয়ে বা সেখানকার জমির মালিকানা বা হস্তান্তর নিয়ে সংসদ কোনও আইন বিধানসভার সম্মতি ছাড়া প্রণয়ন করতে পারবে না।

৩৭১ এইচ, অরুণাচল প্রদেশ– মন্ত্রিপরিষদের সঙ্গে পরামর্শ করে নিজস্ব সিদ্ধান্ত গ্রহণ করতে পারেন রাজ্যপাল এবং সে মোতাবেক পদক্ষেপও করতে পারেন তিনি।

৩৭১ জে, কর্নাটক– হায়দরাবাদ-কর্নাটকের জন্য বিশেষ উন্নয়ন বোর্ডের সংস্থান রয়েছে। এই এলাকায় উন্নয়নের জন্য প্রয়োজনীয় অর্থ যথাযথ বণ্টনের জন্য এবং যথাযথ সুযোগ সুবিধার বন্দোবস্ত রয়েছে যাতে এলাকার মানুষ সরকারি চাকরি ও শিক্ষা পান। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে এবং রাজ্য সরকারি চাকরিতে হায়দরাবাদ-কর্নাটকের মানুষের জন্য সংরক্ষণ করা যেতে পারে।

Read the Full Story in English

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Explained news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Article 371 indian constituition