বড় খবর

করোনাভাইরাসকে প্যানডেমিক ঘোষণা করল বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা, এর অর্থ কী?

এই ঘোষণার অর্থ সরকারি ভাবে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা মেনে নিল যে COVID 19-এর প্রকোপ নতুন মাত্রা পেয়েছে।

Coronavirus, Pandemic, WHO
ছবি- পার্থ পাল

বিভিন্ন দেশের করোনাভাইরাসের নতুন সংক্রমণের ঘটনার খবর পৌঁছচ্ছে অবিরত। তার জেরে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা অবশেষে ১১ ফেব্রুয়ারি নভেল করোনাভাইরাসকে প্যানডেমিক বলে ঘোষণা করেছে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার টুইটে বলা হয়েছে, “সংস্থা সর্বক্ষণ এই প্রাদুর্ভাবের উপর নজর রেথে চলেছে এবং যেভাবে এ রোগ ছড়িয়ে পড়ছে ও তারা মারাত্মক প্রভাব বাড়ছে এবং সক্রিয়তার অনুপস্থিতি মাত্রাতিরিক্ত বৃদ্ধি পাচ্ছে, তাতে আমরা উদ্বিগ্ন। ফলে আমরা একে প্যানডেমিক বলে ঘোষণা করছি।”

করোনাভাইরাস আটকাতে সারা দেশে জারি হওয়া ১৮৯৭ সালের মহামারী আইনে কী বলা আছে?

এর আগে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা কেন এ রোগকে কেবলমাত্র প্রাদুর্ভাব বলে বর্ণনা করেছে, মহামারী বলেনি, তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে।

প্যানডেমিক কী?

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার বয়ানে, সারা পৃথিবীতে নতুন কোনও রোগ ছড়িয়ে পড়লে তাকে প্যানডেমিক বলে।

রোগ নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরোধের মার্কিন কেন্দ্র প্যানডেমিকের যে সংজ্ঞা দিয়েছে, তাতে বলা হয়েছে, “এটি একরকমের মহামারী যা বিভিন্ন দেশে বা মহাদেশে ছড়িয়ে পড়েছে, এবং বৃহৎ সংখ্যক লোকজন তাতে আক্রান্ত হচ্ছেন।”

এরা মহামারীকে সংজ্ঞায়িত করেছেন এই বলে, “কোনও রোগের প্রায়শই হঠাৎ বৃদ্ধি, এবং সে বৃদ্ধির পরিমাণ ওই এলাকার জনসংখ্যার মধ্যে আশঙ্কার চেয়ে অধিক।”

জল-সাবানই কিন্তু করোনাভাইরাস সংক্রমণ আটকানোর মোক্ষম অস্ত্র

ফলে প্যানডেমিক কোনও রোগ কতটা মারাত্মক, তার চেয়ে বেশি নির্ভর করে কত দ্রুত ছড়াচ্ছে, তার উপর।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার বরিষ্ঠ আধিকারিক ডক্টর মাইকেল জে রায়ান গত ২৪ ফেব্রুয়ারি সাংবাদিকদের বলেন, “প্যানডেমিক শব্দটি এসেছে গ্রিক প্যানডেমোস থেকে, যার অর্থ প্রত্যেকে। ডেমোস মানে জনসংখ্যা। প্যান মানে প্রত্যেকে। ফলে প্যানডেমোস হল এমন একটা ধারণা, যেখানে বিশ্বাস জন্মায়ে যে সারা বিশ্বের জনসাধারণ এই রোগের সংক্রমণের পক্ষে উন্মুক্ত এবং তাঁদের একাংশ অসুস্থ হয়ে পড়তে পারেন।”

কয়েকদিন আগে পর্যন্তও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বলে এসেছে করোনাভাইরাস সংক্রমণের মাত্রা উদ্বেগজনক হলেও প্যানডেমিক ঘোষণার মত নয়।

গত ৫ মার্চ বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মহাসচিব ডক্টর টেড্রস অ্যাডহানম গেব্রেইয়েসুস বলেন, “সামান্য কয়েকটি দেশে বড় সংখ্যায় এ রোগের কথা জানালেও, ১১৫টি দেশ এ ব্যাপারে কিছু জানায়নি। ২১টি দেশ কেবলমাত্র একটি করে সংক্রমণের কথা জানিয়েছে। পাঁচটি দেশ সংক্রমণের কথা বললেও গত ১৪ দিনে নতুন কোনও সংক্রমণের কথা জানায়নি।”

প্যানডেমিক ঘোষণা- কী বদলাল?

খুব কিছু নয়। কোনও রোগকে প্যানডেমিক ঘোষণা করার অর্থ এই নয় যে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা তার মোকাবিলার জন্য বেশি অর্থ বা ক্ষমতা পাবে। তবে এই ঘোষণার অর্থ সরকারি ভাবে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা মেনে নিল যে COVID 19-এর প্রকোপ নতুন মাত্রা পেয়েছে।

১১ মার্চ মহাসচিব গেব্রেইয়েসুস বলেন, “প্যানডেমিক শব্দটাকে হালকাভাবে নিলে হবে না। অপব্যবহার করা হলে, এ শব্দ অপ্রয়োজনীয় আশঙ্কা সৃষ্টি করবে, অথবা লড়াই যে শেষ সে কথাকে স্বীকৃতি দিয়ে দেবে, যার জেরে দুর্ভোগ ও মৃত্যু বাড়বে। প্যানডেমিক ঘোষণার মাধ্যমে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার করোনাভাইরাসের ঝুঁকি সম্পর্কে মূল্যায়ন বদলাচ্ছে না। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার কাজ বদলাচ্ছে, দেশগুলি যা করে চলেছে তারও কোনও বদল ঘটছে না।”

 

Get the latest Bengali news and Explained news here. You can also read all the Explained news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Coronavirus pandemic world health organisation meaning of it

Next Story
করোনাভাইরাস আটকাতে সারা দেশে জারি হওয়া ১৮৯৭ সালের মহামারী আইনে কী বলা আছে?Corona Epidemic
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com