scorecardresearch

বড় খবর

Explained: গায়ক থেকে রাজনীতিবিদ, গ্যাংস্টারের গুলির বলি, কে এই সিধু মুসেওয়ালা?

বারবার অভিযোগ উঠেছে যে তাঁর গানের অ্যালবাম আগ্নেয়াস্ত্রর সংস্কৃতিকে মদত দেয়।

sidhu moosewala

জনপ্রিয় গায়ক, গীতিকার, অভিনেতা আর অসংখ্য ফ্যান। শুভদীপ সিং সিধু, অচিরেই পঞ্জাববাসীর কাছে হয়ে উঠেছিলেন সিধু মুসেওয়ালা। পঞ্জাবের সংস্কৃতি মহলে তাঁর উত্থান ঘটেছিল উল্কার বেগে। রবিবার মানসা জেলার জওহারকে গ্রামের সন্ধ্যা সেই উল্কার পতনের সাক্ষী হল। গ্যাংস্টারদের গুলি কেড়ে নিল সিধু মুসেওয়ালার প্রাণ।

প্রথম জীবন
মানসা জেলার মুসা গ্রামে বাড়ি। কৃষক পরিবারের ছেলে। ২০১৬-য় লুধিয়ানার গুরুনানক দেব ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজ থেকে ইলেকট্রিকাল ইঞ্জিনিয়ারিং-এ গ্র্যাজুয়েট। এরপর কানাডায় পাড়ি। সেখানেই ২০১৭ সালে প্রকাশ পায় তাঁর প্রথম গান। মুসেওয়ালার বাবা বালকউর সিং অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মচারী। পারিবারিক চাষবাসও সামলান। মা চরণ কউর মুসা গ্রামের পঞ্চায়েত সদস্য। ২০১৮-র ডিসেম্বরে ৬০০ ভোটে জিতেছিলেন।

মুসেওয়ালার জনপ্রিয় গান-ছবি
কানাডায় প্রকাশ পেয়েছিল মুসেওয়ালার প্রথম গান ‘জি ওয়াগন’। তবে, জনপ্রিয়তা আসতে শুরু করে ২০১৮ সালে প্রকাশিত ‘ সো হাই’-এর পর। তাঁর প্রথম গানের অ্যালবাম ‘পিবিএস১’ বিলবোর্ড কানাডিয়ান অ্যালবামস চার্টে জায়গা পায়। তাঁর একক ‘৪৭’, ইংল্যান্ডে রীতিমতো জনপ্রিয় হয়েছিল। তাঁর ‘বামবিহা বোলে’ গান ইউটিউব মিউজিক চার্টের প্রথম পাঁচে জায়গা করে নিয়েছিল। ২০২১ সালে মুক্তি পায় তাঁর ‘মুসটেপ’। যা গোটা বিশ্বে জনপ্রিয় হয়েছিল। তারই মধ্যে দেশ-বিদেশে বেশ কয়েকটি লাইভ করেছেন মুসেওয়ালা। ৫,৯১১টি গান রেকর্ড করেছেন। শিখ ও জাঠ সম্প্রদায়ই ছিল তাঁর গানের বিষয়বস্ত। কয়েকটি,পঞ্জাবি সিনেমাও করেছেন। যেমন, ‘ইয়েস, আই অ্যাম স্টুডেন্ট’, ‘তেরি মেরি জোড়ি’, ‘গুনাহ’। ২০২১-এর অক্টোবরে মুক্তি পায় তাঁর ছবি ‘মুসা জাঠ’। এই ছবির প্রধান চরিত্রে ছিলেন সিধু মুসেওয়ালা। এবছর মার্চে মুক্তি পেয়েছিল তাঁর ছবি, ‘জাট্টান দা মুন্ডন গাঁও লাগিয়া’।

আরও পড়ুন- ‘বিজেপি’র কর্ণাটকে মুখে কালি টিকায়েতের, অনুগামীদের বেধড়ক মারধর

বিতর্ক
বারবার অভিযোগ উঠেছে যে তাঁর গানের অ্যালবাম আগ্নেয়াস্ত্রর সংস্কৃতিকে মদত দেয়। ২০২০-র মে মাসে মুসেওয়ালার দুটো ভিডিও ভাইরাল হয়েছিল। যার একটাতে দেখানো হয়েছিল, পাঁচ জন পুলিশকে। আর মুসেওয়ালা একে-৪৭ চালানোর প্রশিক্ষণ নিচ্ছেন। অন্য ভিডিওটিতে পিস্তল হাতে দেখা গিয়েছে মুসেওয়ালাকে। এই সব ভিডিও প্রকাশের পর ছ’জন পুলিশকর্মীকে সাসপেন্ড করা হয়েছিল। অ্যালবামটি তৈরি হয়েছিল বারনালায়। সেই কারণে বারনালা পুলিশ মুসেওয়ালার বিরুদ্ধে অস্ত্র আইনে মামলা করেছিল। ২০২০ সালের জুলাইয়ে তিনি জামিন পান। তারপরও এই গায়কের বিরুদ্ধে তদন্ত চলতে থাকে। ২০২০ সালেই বেআইনি ভাবে গাড়িতে কালো কাচ ব্যবহারের জন্য মুসেওয়ালার জরিমানা হয়। তার মধ্যেই ২০২০ সালের জুলাইয়ে প্রকাশ পায় তাঁর গান ‘সঞ্জু’। সেই গানের কথায় মুসেওয়ালা বোঝানোর চেষ্টা করেন যে কারও বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের হলে সম্মানই বাড়ে। ২০২০ সালের ডিসেম্বরে মুক্তি পায় তাঁর গান, ‘পঞ্জাব’। যে গানে খালিস্তানপন্থী বিচ্ছিন্নতাবাদী জার্নেল সিং ভিন্দ্রেনওয়ালেকে বড় করে দেখানোর অভিযোগ ওঠে। ২০২০ সালের মার্চে, তাঁর নতুন গান ‘গাচেয়া গুরবক্স’-ও ব্যাপক সমালোচনার শিকার হয়। ইতালি থেকে পঞ্জাবে এসে করোনায় মৃত্যু হয় গুরবক্স সিংয়ের। সেটাই ছবি পঞ্জাবে প্রথম কোভিডে মৃত্যু। এই ঘটনায় গানের মধ্য দিয়ে গুরবক্সের সমালোচনা করেছিলেন মুসেওয়ালা।

Read full story in English

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Explained news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Who was sidhu moosewala