Bhaiyyu Maharaj suicide: আত্মহত্যা করলেন ধর্মগুরু ভাইয়ু মহারাজ

Bhaiyyu Maharaj suicide: ইন্দোরের ডিআইজি জানিয়েছেন, নিজের বাড়িতেই আত্মহত্যা করেন ভাইয়ুজি মহারাজ। প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছে পারিবারিক বিবাদের জেরেই এই চরম পদক্ষেপ নিয়েছেন ধর্মগুরু।

By : IE Bangla Web Desk | New Delhi Updated: Jun 12, 2018, 20:07:12 PM

Spiritual leader Bhaiyyuji Maharaj suicide: মধ্যপ্রদেশের ইন্দোর শহরে নিজের বাড়িতে স্বহস্তে গুলিবিদ্ধ হয়ে প্রয়াত হলেন ধর্মগুরু ভাইয়ুজি মহারাজ। গুরুতর আহত অবস্থায় তাঁকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়, কিন্তু শেষরক্ষা করা যায় নি। মধ্যপ্রদেশ সরকারের পক্ষ থেকে যে পাঁচজন ধর্মগুরুকে মন্ত্রী পদমর্যাদা দেওয়া হয়েছিল, ভাইয়ুজি মহারাজ তাঁদেরই একজন।

ভাইয়ুজি মহারাজের মৃত্যুর পর তাঁর মানসিক অবসাদ নিয়ে জল্পনা শুরু হয়েছে। হাসপাতালের বাইরে এখন ভিড় করে রয়েছেন বিপুল সংখ্যক সমর্থক। ইন্দোরের ডিআইজি হরিনারায়ণচারী মিশ্র ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে জানিয়েছেন, নিজের বাড়িতেই আত্মহত্যা করেন ভাইয়ুজি মহারাজ। প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছে পারিবারিক বিবাদের জেরেই এই চরম পদক্ষেপ নিয়েছেন ধর্মগুরু।

আরও পড়ুন, কম্পিউটার বাবা সহ ৫ বাবা মন্ত্রী হলেন মধ্যপ্রদেশে, শিবরাজ সিং চৌহানের পদক্ষেপকে রাজনৈতিক গিমিক আখ্যা দিল কংগ্রেস

সম্ভ্রান্ত পরিবারের সন্তান ভাইয়ুজি মহারাজের আসল নাম উদয়সিং দেশমুখ। নিজের বিলাসবহুল জীবনযাত্রার দৌলতে তিনি বরাবরই বহু চর্চিত এক ব্যক্তিত্ব। সর্বদা শৌখিন পোষাক পরিহিত ভাইয়ুজি মহারাজের ইন্দোরের কাছেই ছিল প্রশস্ত আশ্রম। বাইরে বেরোতে হলে সঙ্গে থাকত সাদা মার্সিডিজ এসইউভি গাড়ি, এবং নিজের কিছু বাছাই করা শিষ্য, থাকতেন ব্যায়বহুল রিসর্টে। বিশেষ রাজনৈতিক নেতা এবং বিশিষ্ট ব্যবসায়ীরা তাঁর কাছে প্রায়ই আসতেন ধর্ম সংক্রান্ত ‘উপদেশ’ নিতে। এবং ২০১১ সালে আন্না হাজারের লোকপাল অনশন ধর্মঘটের অবসানে তিনি অগ্রণী ভূমিকা নেন।

ভাইয়ুজি মহারাজের ওয়েবসাইটে তাঁর পরিচিতি অনুযায়ী, যুব রাষ্ট্র সন্ত শ্রী সদগুরু ভাইয়ুজি মহারাজ একজন ধর্মগুরু, সমাজ সংস্কারক, এবং ‘মোটিভেটর’ বা প্রেরণাদায়ী, যাঁর জীবনের একমাত্র লক্ষ্য হলো দরিদ্রের এবং নিপীড়িতের সেবা, যাতে তাঁরা সসন্মানে জীবনধারণ করতে পারেন। এতদসত্ত্বেও সংবাদ শিরোনামে থাকা ‘সন্ত’ বহুসংখ্যক ভক্তের মনে আঘাত দিয়ে ইন্দোরের এক ডাক্তারকে বিবাহ করেন।