বড় খবর

টিকা নিয়েও ব্রিটেনে ১০ দিনের নিভৃতবাসে থারুর! মিস করলেন বই প্রকাশ অনুষ্ঠান

Sashi Tharoor: সাউথ আমেরিকা, ইউএই, ইন্ডিয়া, তুরস্ক, জর্ডন, থাইল্যান্ড এবং রাশিয়া থেকে কেউ ইউকে গেলে তাঁরা টিকাহীন হিসেবে গ্রাহ্য হবেন।

শশী থারুর। ফাইল ছবি

Sashi Tharoor: সাউথ আমেরিকা, ইউএই, ইন্ডিয়া, তুরস্ক, জর্ডন, থাইল্যান্ড এবং রাশিয়া থেকে কেউ ইউকে গেলে তাঁরা টিকাহীন হিসেবে গ্রাহ্য হবেন। ফলে দেশে ঢুকে ১০ দিন আবশ্যিক কোয়ারান্টিনে থাকতে হবে সেই সব পর্যটকদের। সম্প্রতি এই টিকানীতি ঘোষণা করেছে ব্রিটেন সরকার। আর এই পদক্ষেপেই খচে গিয়েছেন দুই কংগ্রেস নেতা তথা সাংসদ শশী থারুর এবং জয়রাম রমেশ।

দু’জনেই ট্যুইট করে এই সিদ্ধান্তকে বিদ্বেষমূলক দাবি করে বিরোধিতায় সরব। থারুর ট্যুইটে লেখেন, ‘এই কারণে আমি নিজের বই প্রকাশের অনুষ্ঠান থেকে বাদ চলে গিয়েছি। নিজেকে কেমব্রিজ ইউনিয়নের এক বিতর্কসভা থেকে সরিয়েছি। দুটি ডোজ নেওয়া ভারতীয়দের ফের কোয়ারান্টিনে রাখার সিদ্ধান্ত অত্যন্ত অপমানজনক।‘

জয়রাম রমেশ লেখেন, ‘এটা বিদ্বেষমূলক আচরণ। আমরা সবাই জানি কোভিশিল্ড ব্রিটেনে তৈরি আর সিরাম ইনস্টিটিউট এটা ভারতে উৎপাদন করছে।‘

করোনাকালে ভারতে কবে থেকে শিশুদের জন্য টিকা? এখনও জবাব মেলেনি। তবে আগামি এক মাসের মধ্যে মার্কিন মুলুকে শিশুদের টিকাকরণ শুরু করে দিতে পারবে প্রশাসন। ইতিমধ্যেই শিশু টিকার জরুরিকালীন প্রয়োগ চেয়ে সে দেশের নিয়ন্ত্রক সংস্থাকে দরবার করতে উদ্যোগ নিয়েছে ফাইজার। জানা গিয়েছে ফাইজার, বায়ো এন টেকের সঙ্গে হাত মিলিয়ে মার্কিন মুলুকে শিশুদের টিকা তৈরি করছে। ৫-১১ বছরের শিশুদের মধ্যে এই টিকার পরীক্ষামুলক প্রয়োগ সম্পন্ন।

সেই ট্রায়াল রিপোর্ট উল্লেখ করে ফাইজারের দাবি, শিশুদেহে বিশেষ করে ৫-১১ বছর বয়সীদের মধ্যে এই টিকা কার্যকর, নিরাপদ এবং পর্যাপ্ত অ্যান্টিবডি তৈরিতে সক্ষম। ইতিমধ্যে সে দেশে শিশুদের টিকাকরণের দাবিতে নাগরিক সমাজ সরব হয়েছেন। পাশাপাশি শুরু হতে চলেছে নতুন শিক্ষাবর্ষ। এই আবহে ডেল্টা প্রজাতির সংক্রমণ মার্কিন মুলুকে বেশ উদ্বেগের কারণ হয়ে উঠছে।   

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and General news here. You can also read all the General news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Britains new travel advisory for indians was slammed by tharoor ramesh national

Next Story
কাপড় দিয়ে যায় চেনা! গান্ধিজি আর রাখি সাওয়ান্তকে এক করলেন বিধানসভার অধ্যক্ষUP Assembly Speaker
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com