বড় খবর

পেগাসাস তদন্তে বিশেষজ্ঞ কমিটি গঠন! সুপ্রিম কোর্টকে জানাল মোদী সরকার

Pegasus Row: কেন্দ্রীয় ইলেক্ট্রনিক্স এবং তথ্য-প্রযুক্তি মন্ত্রকের তরফে একটি হলফনামা দাখিল করা হয়েছে।

প্রতীকী ছবি

Pegasus Row: পেগাসাস-কাণ্ডের তদন্তে বিশেষজ্ঞ কমিটি গড়বে কেন্দ্র। সোমবার সুপ্রিম কোর্টকে অবস্থান স্পষ্ট করে জানিয়েছে মোদী সরকার। এদিন কেন্দ্রীয় ইলেক্ট্রনিক্স এবং তথ্য-প্রযুক্তি মন্ত্রকের তরফে একটি হলফনামা দাখিল করা হয়েছে। মন্ত্রকের অতিরিক্ত সচিব দুই পাতার এই হলফনামা প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বাধীন বেঞ্চে দাখিল করেছেন। সেই হলফনামায় পেগাসাস-কাণ্ডে সরকারি ভূমিকা খারিজ করেছে মোদী সরকার।

হলফনামায় উল্লেখ, ‘কোনওভাবেই পেগাসাস স্পাইওয়ার বিরোধী নেতা, সাংবাদিক এবং অন্যদের বিরুদ্ধে ব্যবহার করেনি সরকার। ক্ষুদ্র স্বার্থে ছড়ানো ভুল বিশ্লেষণের বিরোধিতায় এবং বিভিন্ন মহল থেকে তোলা এই ইস্যু খতিয়ে দেখতে আমরা একটা বিশেষজ্ঞ কমিটি গঠন করব। যে কমিটি এই ইস্যুর সার্বিক তদন্ত করবে।‘

এই ইস্যুতে নিরপেক্ষ তদন্ত চেয়ে সুপ্রিম কোর্টে একাধিক জনস্বার্থ মামলা দায়ের হয়েছে। সেই মামলাগুলোকে এক করে শুনানি চলছে প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বাধীন বেঞ্চে। আগের শুনানিতে প্রধান বিচারপতি এনভি রামান্না এই অভিযোগকে গুরুতর আখ্যা দিয়েছেন। পাশাপাশি এখনও কেন কোনও এফআইআর দায়ের হয়নি? এই প্রশ্নও তুলেছেন তিনি।

এদিকে, সিস্টেমে আস্থা রাখুন, সোশ্যাল মিডিয়ায় সমান্তরাল বিতর্ক থেকে বিরত থাকুন। গত শুনানিতে পেগাসাস ইস্যুতে মামলাকারীদের পরামর্শ দিল সুপ্রিম কোর্ট। মঙ্গলবার শুনানিতে প্রধান বিচারপতি এনভি রামান্না-সহ তিন বিচারপতির বেঞ্চ জানায়, “কেউ যেন সীমা না ছাড়ায়। প্রত্যেকেই নিজের নিজের সুযোগ পাবেন এই মামলায়।”

রামান্না আরও বলেছেন, “আমরা আলোচনার বিপক্ষে নই। কিন্তু মামলা যখন বিচারাধীন তখন ধৈর্য ধরা উচিত। আদালত আরও নির্দেশ দিয়েছে, এই মামলায় যাবতীয় প্রশ্ন যেন নিখিতভাবে আদালতে জমা দেওয়া হয়, বাইরে এই নিয়ে শোরগোল যেন না হয়।” সোমবার পর্যন্ত এই মামলায় শুনানি স্থগিত করেছে শীর্ষ আদালত। কারণ, সলিসিটর জেনারেল তুষার মেহেতা সরকারের তরফে আরও কিছু সময় চেয়েছেন।

এই কাণ্ডে সলিসিটর আইনজীবী কিপল সিব্বল বর্ষীয়ান সাংবাদিক এন রাম ও শশী কুমারের তরফে মামলা লড়ছেন। সিব্বল আদালতে জানিয়েছেন, এন রামকে সোশ্যাল মিডিয়ায় ট্রোল করা হচ্ছে ক্যালিফোর্নিয়ায় পেগাসাস ইস্যুতে মামলার শুনানির জন্য। সেই কারণে এদিন, শীর্ষ আদালত বলে, “এই কারণেই আমরা বলছি সব পক্ষ আদালতে প্রশ্ন করুক। আমরা সবার কথা শুনব। কিন্তু সোশ্যাল মিডিয়ায় এই নিয়ে আলোচনা চললে হবে না। বিচারব্যবস্থার উপর আস্থা রাখতে হবে সবাইকে।”

   

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and General news here. You can also read all the General news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Centre will form fact finding committee to investigate pegasus issue national

Next Story
সুপ্রিম কোর্টের বাইরে আত্মঘাতী হওয়ার চেষ্টা! কারণ খতিয়ে দেখছে দিল্লি পুলিশWont file detailed affidavit Centre tells SC on Pegasus row
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com