scorecardresearch

বড় খবর

দু’হাজারের নীচে নামল দৈনিক সংক্রমণ, উচ্চ মৃত্যুহার বাড়াচ্ছে উদ্বেগ

এখনও পর্যন্ত দেশে ৪ কোটি ২৪ লক্ষ ৬৫ হাজার ১২২ জন করোনা থেকে মুক্ত হয়েছেন।

দু’হাজারের নীচে নামল দৈনিক সংক্রমণ, উচ্চ মৃত্যুহার বাড়াচ্ছে উদ্বেগ
প্রতিকী ছবি।

আবারও বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। গত এক সপ্তাহে ১ কোটি ১০ লক্ষের বেশি মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন জানিয়েছে বিশ্বস্বাস্থ্য সংস্থা। তার মাঝেই স্বস্তি অব্যাহত। রবিবার স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রকের (Ministry of Health and Family Welfare) দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে করোনা (Coronavirus) আক্রান্ত হয়েছেন ১ হাজার ৭৬১ জন। যা গতকালের তুলনায় ১৫ শতাংশ কম। দীর্ঘদিন পর দু’হাজারের নিচে নামল সংক্রমণ। দেশে ধীরে ধীরে কমছে অ্যাকটিভ কেসও। বর্তমানে দেশে সক্রিয় করোনা রোগীর সংখ্যা ২৬ হাজার ২৪০। আপাতত দেশে অ্য়াকটিভ কেসের হার ০.০৬ শতাংশ। সংক্রমণ উল্লেখযোগ্যভাবে কমলেও এখনও উদ্বেগে রাখছে দেশের মৃত্যুহার। রিপোর্ট বলছে, গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় প্রাণ হারিয়েছেন ১২৭ জন। শনিবারের বুলেটিনে যা ছিল ৭১। দেশে এখনও পর্যন্ত কোভিডে মৃত্যু হয়েছে ৫ লক্ষ ১৬ হাজার ৪৭৯ জনের।

এদিকে বিশ্বের একাধিক দেশে চোখ রাঙ্গাচ্ছে করোনা। যদিও আইসিএমআর জানিয়েছে এখনই আতঙ্কিত হওয়ার কোন কারণ নেই। তবে দেশে সামগ্রিক ভাবে মৃত্যুহার কিছুটা হলেও ভাবাচ্ছে জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞদের। পরিসংখ্যান অনুযায়ী, এখনও পর্যন্ত দেশে ৪ কোটি ২৪ লক্ষ ৬৫ হাজার ১২২ জন করোনা থেকে মুক্ত হয়েছেন। যার মধ্যে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা থেকে সেরে উঠেছেন ৩ হাজার ১৯৬ জন।

সুস্থতার হার বেড়ে হল ৯৮.৭৪ শতাংশ। স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রকের দেওয়া তথ্য জানাচ্ছে, এখনও পর্যন্ত দেশে প্রায় ১৮১ কোটি ২১ লক্ষ্যের বেশি ডোজ করোনার টিকা দেওয়া হয়েছে। এর মধ্যে গতকাল ভ্যাকসিন পেয়েছেন ১৫ লক্ষ ৩৪ হাজারের বেশি। দেশজুড়ে চলছে ১২ থেকে ১৪ বছর বয়সিদের টিকাকরণ। বুস্টার ডোজ পাচ্ছে ষাটোর্ধ্বরাও। টিকাকরণের পাশাপাশি চলছে টেস্টিংও। গতকাল যেমন ৪ লক্ষের ৩১ হাজার ৯৭৩ জনের নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। সেই সঙ্গে আগামীকাল থেকে রাজ্য জুড়ে শুরু হতে চলেছে ১২ থেকে ১৪ বছর বয়সিদের টিকাদান।

Read story in English

Stay updated with the latest news headlines and all the latest General news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Covid 19 pandemic omicron variant live updates 19 march