scorecardresearch

বড় খবর

শ্রীলঙ্কা বিস্ফোরণে স্থানীয় যোগ, এনআইএ-র তদন্তে সামনে এল নতুন তথ্য

এনআইএর তরফ থেকে আশঙ্কা করা হচ্ছে, স্থানীয় কিছু ফোন নম্বরগুলির সঙ্গে যোগাযোগ ছিল ইসলামিক স্টেট জঙ্গিগোষ্ঠীর।

শ্রীলঙ্কা হামলায় পাওয়া গেল নয়া তথ্য

শ্রীলঙ্কার ইস্টার সানডে বিস্ফোরণের তদন্তে উঠে এলো চাঞ্চল্যকর তথ্য। ভারতের জাতীয় তদন্তকারী সংস্থা (এনআইএ) প্রকাশ করল শ্রীলঙ্কার কয়েকটি স্থানীয় ফোন নম্বর। এনআইএ-র অনুমান, এই ফোন নম্বরগুলির সঙ্গে যোগাযোগ ছিল ইসলামিক স্টেট জঙ্গিগোষ্ঠীর। গত সপ্তাহে পড়শি দেশে তদন্তের স্বার্থে যায় এনআইএ-র একটি দল। তদন্তকারীদের প্রাথমিক অনুমান, ভারতে সক্রিয় দুই আইএস জঙ্গি গোষ্ঠী শ্রীলঙ্কার বিস্ফোরণের সঙ্গে জড়িত ছিল। ভারতের জাতীয় তদন্তকারী সংস্থার তরফ থেকে জানানো হয়, তাঁরা এমন চার, পাঁচটি ফোন নম্বরের হদিস পেয়েছেন যেগুলি প্রত্যক্ষভাবে বা সোশাল মিডিয়ার মাধ্যমে ভারতের আইএস সন্দেহভাজনদের সঙ্গে যোগাযোগ রাখত। তদন্তের স্বার্থে এই সংক্রান্ত যাবতীয় তথ্য এনআইএ-র তরফ থেকে শ্রীলঙ্কার কর্তৃপক্ষের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের এক আধিকারিক বলেন, “নম্বরগুলির সঙ্গে শ্রীলঙ্কার ইস্টার বিস্ফোরণের কোনও সম্পর্ক আছে কি না তা এখনও জানা যায়নি। তবে ওই হামলার ঘটনার আগাম সতর্কবার্তা আগেই দিয়েছিল এনআইএ। ঘটনাচক্রে ফরেন্সিক বিশেষজ্ঞরা যখন কোয়েম্বাটুরের কয়েকজন আইএস সন্দেহভাজনদের মোবাইল পরীক্ষা নিরীক্ষা করছিলেন তখনই তাঁদের হাতে একটি ভিডিও চলে আসে। ওই ভিডিওতে দেখা যায় শ্রীলঙ্কার আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণের মূলচক্রী জাহরান হাসিমকে। আসন্ন একটি আক্রমণের কথাও উল্লেখ রয়েছে ভিডিওটিতে।

আরও পড়ুন অর্থনীতি, মোদী সরকারের সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ

শ্রীলঙ্কার বিস্ফোরণের পর পরেই এনআইএ কেরালা থেকে রিয়াস আবুবকর নামে এক যুবককে গ্রেফতার করে। ওই যুবক ২০১৬ সালে আফগানিস্তানে পালিয়ে যাওয়ার জন্য কাসারগডের আইএস সদস্যদের সঙ্গে যোগাযোগ করেছিল। এনআইএ-র দাবি, আবুবকর স্বীকার করেছে সে নিজেও আত্মঘাতী হামলা চালানোর পরিকল্পনা করেছিল। ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের তরফ থেকে বলা হয়েছে, “ইনশাফ এবং ইলহাম ইব্রাহিম নামে দুই ভাই শ্রীলঙ্কার আত্মঘাতী বোমা হামলাকারীর সঙ্গে যোগাযোগ রেখেছিল। এরা শ্রীলঙ্কার প্রভাবশালী মশলাবিক্রেতা ইউসুফ ইব্রাহিমের পুত্র। তবে তারা আইএসের সঙ্গে সম্পর্কিত কিনা তা এখন স্পষ্ট নয়।” প্রসঙ্গত, ইব্রাহিমের সঙ্গে ভারতের দীর্ঘদিনের বাণিজ্যিক সম্পর্ক রয়েছে।

এনআইএ-র তদন্তে আদিল আমিজ নামের এক টেক গ্র্যাজুয়েটের নামও উঠে এসেছে। এই ব্যক্তি ভারতের একাধিক বিস্ফোরণের সঙ্গে যুক্ত ছিল। আইএস গোষ্ঠীর অনলাইন সাইটেও আদিল অত্যন্ত জনপ্রিয়। ২০১৭ সালে আহমেদাবাদের একটি সিনাগগে হামলার ছক কষার অভিযোগে গ্রেফতার উদেব মির্জা এবং কাশিম স্তিমবেরওয়ালাও রয়েছেন তদন্তকারীদের নজরে। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, “শ্রীলঙ্কার তদন্তকারীদের হাতে এখনও পর্যন্ত ইস্টার বোমা হামলার সাথে আদিলের নাম যুক্ত করার কোনও নির্দিষ্ট প্রমাণ নেই। তবে তদন্ত এখনও চলছে।”

Read the full story in English

Stay updated with the latest news headlines and all the latest General news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Easter attacks nia shares with sri lanka numbers of five locals linked to is