বড় খবর

মোদী সরকারের শেষ দেখে ছাড়বে কৃষকরা, হুঙ্কার কৃষক নেতার

সরকার যদি তিনটি কৃষি আইন বাতিল না করে তাহলে দীর্ঘকাল অবস্থানে অনড় থাকবেন কৃষকরা, এমনটাই হুঁশিয়ারি নরেন্দ্রর।

নরেন্দ্র মোদী সরকারের কার্যকাল আর রয়েছে সাড়ে তিন বছর। কিন্তু এই সাড়ে তিন বছর পর্যন্ত দিল্লির সীমান্তে বিক্ষোভ অবস্থানে বসে থাকার হুঁশিয়ারি দিলেন কৃষক নেতা নরেন্দ্র টিকায়েত। কিংবদন্তী কৃষক নেতা মহেন্দ্র সিং টিকায়েতের ছেলের হুঁশিয়ারি, দ্বিতীয় মোদী সরকারের কার্যকালের শেষ পর্যন্ত দেখে ছাড়বেন কৃষকরা। সরকার যদি তিনটি কৃষি আইন বাতিল না করে তাহলে দীর্ঘকাল অবস্থানে অনড় থাকবেন কৃষকরা, এমনটাই হুঁশিয়ারি নরেন্দ্রর।

এই কৃষক নেতা ভারতীয় কিষাণ ইউনিয়নের কোনও পদে নেই। কিন্তু পারিবারিক ভাবেই সংগঠনের সঙ্গে ওতপ্রোতভাবে জড়িত। বড় দুই দাদা নরেশ এবং রাকেশের সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কৃষক আন্দোলন করছেন নরেন্দ্র। দিল্লির টিকরি ও সিংঘু সীমান্তে ১০০ দিন পার করেছে আন্দোলন। কিন্তু হাল ছাড়তে নারাজ টিকায়েতরা।

সংবাদসংস্থা পিটিআইকে নরেন্দ্র জানিয়েছেন, তাঁদের বিরুদ্ধে যদি কোনও অন্যায়ের অভিযোগ ওঠে তাহলে সেই মুহূর্তে আন্দোলন থেকে সরে দাঁড়াবেন টিকায়েত ভাইয়েরা। অনেকেই অভিযোগ করেছেন, তাঁদের সম্পত্তি অনেক। কিন্তু সেসব অভিযোগ উড়িয়ে দিয়েছেন নরেন্দ্র।

বড় ভাই নরেশ সংগঠনের সভাপতি। রাকেশ টিকায়েত সংগঠবের জাতীয় মুখপাত্র। ১৯৮৬ সালে এই সংগঠন তৈরি করেন কিংবদন্তী কৃষক নেতা মহেন্দ্র সিং টিকায়েত। ২০১১ সালে তাঁর মৃত্যুর পর নরেশ ও রাকেশ সংগঠনের হাল কাঁধে নেন। কয়েক বছরে বিভিন্ন ছোট ছোট কৃষক সংগঠন ভারতীয় কিষাণ ইউনিয়নের সঙ্গে জুড়ে যায়। নরেন্দ্র জানিয়েছেন, তিনি গাজীপুর সীমান্তে মাঝেমধ্যেই যান কৃষকদের উৎসাহ বাড়াতে।

Get the latest Bengali news and General news here. You can also read all the General news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Farmers ready to continue protest on delhi borders till modi govt lasts narendra tikait

Next Story
টিকিট না পেয়ে ক্ষোভ, তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে মমতার মন্ত্রী-বিধায়ক
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com