বড় খবর

মাস্ক না পরার শাস্তি! শ্রমিকের হাতে-পায়ে পুলিশের ‘নির্মম’ আঘাত?

মাস্ক না পরার অভিযোগ করতেই রঞ্জিত কনস্টেবলকে অকথ্য ভাষায় গালাগালি করেন। পরে নিজেই নিজেকে আঘাত করতে শুরু করেন।

করোনাকালে এক ভিন্ন দৃশ্য উত্তরপ্রদেশে। ২৮ বছর বয়সি পেশায় ঠিকে শ্রমিক মাস্ক না পরায় তাঁকে গ্রেফতার করে হাতে-পায়ের নখে আঘাত করা হয়, এমনই ‘নির্মম’ অভিযোগ উঠল পুলিশের বিরুদ্ধে।

ঘটনাটি ঘটেছে উত্তরপ্রদেশের বারেলি জেলায়। যদিও এই অভিযোগ অস্বীকার করেছে পুলিশ। তাঁদের তরফে জানান হয়েছে যে রাস্তায় মাস্ক না পরায় ওই যোগী নাভাদা এলাকা থেকে রঞ্জিত নামে এক ব্যক্তিকে আটক করেন তাঁরা। পরে পুলিশকে আক্রমণ করে পালিয়ে যাওয়ায় তাঁকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

পুলিশের তরফে জানান হয়েছে যে অভিযুক্ত মাতাল অবস্থায় রাস্তায় ঘুরে বেড়াচ্ছিলেন। সামাজিক দূরত্ববিধি তো মানেনইনি এমনকী মাস্কও পরেননি। আটক করতে গেলে পুলিশকেই ধাক্কা মেরে পালিয়ে যান ওই ব্যক্তি। এরপর মঙ্গলবার তাঁর বাড়ি গিয়ে পুলিশ গ্রেফতার করলে সেখান থেকেও পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে।

বারাদাঁড়ি স্টেশন হাউস অফিসার শীতাংশু শর্মার কথায়, মাস্ক না পরার অভিযোগ করতেই রঞ্জিত কনস্টেবলকে অকথ্য ভাষায় গালাগালি করেন। পরে নিজেই নিজেকে আঘাত করতে শুরু করেন। এমনকী পুলিশকেও আঘাত করেন। সিনিয়র পুলিশ সুপার রোহিত সিং সাজওয়ানের শরীরে আঘাতে স্পষ্ট যে অভিযুক্ত মিথ্যে কথা বলছেন।

যদিও পুলিশ রঞ্জিতকে হাসপাতালে ভর্তি করে। সেখানেই আপাতত তাঁর চিকিৎসা চলছে। তবে তাঁর বিরুদ্ধে ভারতীয় দন্ডবিধির একাধিক ধারায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। যদিও পুলিশের খাতায় এর আগেও তাঁর নাম উঠেছে। মন্দির এবং মূর্তি ভাঙায় অভিযুক্ত ছিলেন এই ব্যক্তি, এমনটাই পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and General news here. You can also read all the General news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: For not wearing mask bareilly youth alleges cops hammered nails into hand foot

Next Story
টিকা না নিলে বন্ধ বেতন, কর্মীদের হুঁশিয়ারি ছত্তিশগড়ের উপজাতি দফতরের
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com