বড় খবর

এনকেফালাইটিসের পর এবার মড়ার খুলি, হাড় বিহারের হাসপাতালে

এস কে মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে অ্যাকিউট এনকেফালাইটিস সিন্ড্রোমে আক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন্ত মারা গিয়েছে ১২৮ টি শিশু। বিহার জুড়ে এই অসুখে মৃত্যু হয়েছে দেড়শোর বেশি রোগীর।

bihar baby deaths
হাসপাতালের ফাইল ছবি

ফের বিতর্কের কেন্দ্রে বিহারে মজফফরপুরের এসকে মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতাল। এই সেই হাসপাতাল যেখানে ১২০ টির বেশি শিশুর মৃত্যু হয়েছে অ্যাকিউট এনকেফালাইটিস সিন্ড্রোমে। এবার সেই হাসপাতালের পিছনের ময়নাতদন্ত ঘরের কাছেই পাওয়া গেল একটি মড়ার মাথার খুলি এবং তিনটি হাড়। হাড়গুলি মানুষের না কোনও জন্তুর, তা পরীক্ষা করে দেখা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

ময়নাতদন্ত ঘরের দায়িত্বে থাকা ডাঃ বিপিন কুমার বলেন ওই হাড় এবং খুলি এক বা একাধিক বেওয়ারিশ লাশের হতে পারে। তাঁর কথায়, “কিছু ক্ষেত্রে ময়নাতদন্তের পর বেওয়ারিশ লাশ কবর দেওয়া হয় বা দাহ করা হয়। সেসব পুরনো লাশের থেকে ওই খুলি এবং হাড় এসে থাকতে পারে, কিন্তু ফরেনসিক পরীক্ষা ছাড়া কিছুই নিশ্চিতভাবে বলা সম্ভব নয়।”

আরও পড়ুন: শিশুমৃত্যুর সংখ্যা ১০০ ছাড়িয়েছে, চাপের মুখে বিহার সরকার

হাসপাতালের মেডিক্যাল সুপারিন্টেনডেন্ট ডাঃ এস কে শাহি বলেছেন, ঘটনাটির তদন্ত করা হবে। তাঁর বক্তব্য, “প্রথমে আমাদের নিশ্চিত করতে হবে ওই হাড় মানুষের না কোনও জন্তুর। ঘটনাটিকে ঘিরে উত্তেজনা সৃষ্টি করার একটা চেষ্টা চলছে।”

ওই দেহাবশেষ এমন সময় উদ্ধার হয়েছে, যখন এস কে মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে অ্যাকিউট এনকেফালাইটিস সিন্ড্রোমে আক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন্ত মারা গিয়েছে ১২৮ টি শিশু। বিহার জুড়ে এই অসুখে মৃত্যু হয়েছে দেড়শোর বেশি রোগীর।

কিন্তু হাসপাতালের বক্তব্য, প্রত্যেক মৃত শিশুর দেহ তুলে দেওয়া হয়েছে সংশ্লিষ্ট পরিবারের হাতে, এবং এখন পর্যন্ত কোনও বেওয়ারিশ দেহের খবর পাওয়া যায় নি।

Get the latest Bengali news and General news here. You can also read all the General news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Human skull bones found near skmc hospital in muzaffarpur

Next Story
অ্যান্টিগাতে জেরা নয় মেহুল চোকসিকে, জানাল ইডি
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com