scorecardresearch

বড় খবর

অ্যামাজনকে ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানির সঙ্গে তুলনা আরএসএস-এর পত্রিকার

অ্যামাজন প্রাইম ভিডিও-য় দেখানো একাধিক প্রোগ্রাম হিন্দু ধর্মের ভাবাবেগে আঘাত করে বলে অভিযোগ ওই পত্রিকার।

‘টুকরে টুকরে গ্যাং’কে সমর্থনের অভিযোগে ইনফোসিস নিয়ে কভার স্টোরি ছাপার এক সপ্তাহের মাথায় এবার আরএসএস অনুমোদিত ‘পঞ্চজন্য’ ম্যাগাজিনের নিশানায় প্রখ্যাত ই-কমার্স সংস্থা অ্যামাজন। অ্যামাজনকে ”ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানি ২.০” বলে তোপ দেগেছে ‘পঞ্চজন্য’। আরএসএস-এর সাপ্তাহিক পত্রিকার সাম্প্রতিক সংখ্যায় তুলোধনা করা হয়েছে পূর্ব ভারতের অন্যতম বৃহৎ খুচরো বিক্রির সংস্থা অ্যামাজনকে। একইসঙ্গে অ্যামাজন প্রাইম ভিডিও-য় প্রকাশিত একাধিক সিরিজে হিন্দু ধর্মের ভাবাবেগে আঘাত লাগছে বলেও অভিযোগ এনেছে এই ম্যাগাজিনটি।

আরএসএস-এর সাপ্তাহিক এই পত্রিকার প্রতিবেদনে লেখা হয়েছে, যেভাবে ব্যবসার নামে ঢুকে ধীরে ধীরে গোটা দেশ দখল করেছিল ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানি, তেমন ভাবেই এগোচ্ছে অ্যামাজন। ওই পত্রিকায় লেখা হয়েছে, অ্যামাজনও ভারতের বাজারে একক অধিকার পেতে চায়। এখানকার মানুষের রাজনৈতিক, অর্থনৈতিক এবং ব্যক্তি স্বাধীনতাকে ঘিরে রাখার পদক্ষেপ নিচ্ছে সংস্থাটি। ওই প্রতিবেদনে আরও দাবি করা হয়েছে, অ্যামাজন ভারতের বাজারে একাধিপত্য বিস্তার করার জন্য যা খুশি তাই করতে পারে। অ্যামাজনের প্রাইম ভিডিও নিয়েও রীতিমতো তোপ দেগেছে আরএসএস-এর এই পত্রিকা। প্রতিবদেনে লেখা হয়েছে, অ্যামাজন প্রাইম ভিডিও-য় এমন কিছু প্রোগ্রাম সম্প্রচার করা হয় যা হিন্দু ধর্মের ভাবাবেগে আঘাত করে, যা ভারতীয় সংস্কৃতির বিরোধী।

‘পঞ্চজন্য’ পত্রিকায় প্রকাশিত প্রতিবেদনে আরও দাবি করা হয়, অ্যামাজন ভারতের ছোট ব্যবসায়ীদের পণ্য বিক্রির জন্য বৃহত্তর প্ল্যাটফর্ম পেতে সাহায্য করার প্রতিশ্রুতি দিয়ে ব্যাবসা শুরু করেছিল। আদতে এরা তাদের নিজস্ব কোম্পানিগুলিকেই কাজ করতে সাহায্য করেছে। অ্যামাজনকে ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানির সঙ্গে তুলনা করে ‘পঞ্চজন্য’-এর প্রতিবেদনে লেখা হয়েছে, ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানিও প্রথমে ভারতীয় সংস্কৃতিতের উপর আঘাত আনে। তারপর ধর্মান্তরিতকরণকে উৎসাহিত করে। ঠিক তেমনি আজ বিদেশি কোম্পানিগুলোও একই কাজ করছে।

আরও পড়ুন- কৃষকদের ধর্মঘটে রাজ্যে বামেদের রেল-রাস্তা অবরোধ, প্রভাব দিল্লি সীমানায়ও

এর আগে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রক ও বেশ কয়েকটি রাজ্য আ্যামাজনের ওটিটি প্ল্যাটফর্ম প্রাইম ভিডিওতে ‘তাণ্ডব’ এবং ‘পাতাললোক’ ছবি নিয়ে আপত্তি তোলে। ওই ছবিগুলিতে দেখানো বিষয়বস্তু হিন্দু ধর্মের ভাবাবেগে আঘাত এনেছে বলে দাবি করা হয়েছে প্রতিবেদনে। পরে অবশ্য সংস্থার তরফে ক্ষমা চাওয়া হয়েছে বলেও দাবি করা হয়েছে। অ্যামাজন প্রাইম ভিডিওয় দেখানো একের পর এক ছবিতে হিন্দু দেবতাদের নিয়ে মজা করা ও পারিবারিক মূল্যবোধকে আঘাত করা হয় বলে অভিযোগ আরএসএস-এর এই পত্রিকাটির।

Read full story in English

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Stay updated with the latest news headlines and all the latest General news download Indian Express Bengali App.

Web Title: In latest issue panchjanya targets amazon