scorecardresearch

বড় খবর

ইউক্রেন থেকে ভারতে ফেরা এক ‘অলৌকিক ঘটনা’, মন্তব্য ভারতীয় পড়ুয়াদের

১৩ দিন ধরে যুদ্ধ বিধ্বস্ত ইউক্রেনে টিকে থাকা এক ভয়ঙ্কর অভিজ্ঞতা

Indian students in Ukraine
ভারতীয় পড়ুয়াদের ভবিষ্যৎ কী তবে অনিশ্চিত?

ভারতীয় পড়ুয়ারা, যারা উত্তর-পূর্ব ইউক্রেনের ক্ষতবিক্ষত সুমিতে আটকে ছিল, ভারতে ফিরে আসার পর তারা জানায় যে যুদ্ধ থেকে বেঁচে যাওয়া এটি একটি “অলৌকিক ঘটনা”। শুক্রবার সকালে অবশেষে দিল্লিতে ফিরে স্বস্তি পেয়েছেন বলে জানিয়েছেন পড়ুয়ারা । সুমি স্টেট ইউনিভার্সিটির ষষ্ঠ বর্ষের মেডিকেল ছাত্র ধীরাজ কুমার এদিন সকালে ইন্দিরা গান্ধী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে তার বাবা-মাকে দেখে জড়িয়ে ধরে নিজের উচ্ছ্বাস প্রকাশ চেপে রাখতে পারেননি। ছুটে এসে জড়িয়ে ধরেন মাকে!

সংবাদ সংস্থাকে দেওয়া সাক্ষাতকারে ধীরাজ কুমার বলেন, “আমরা সুমিতে অভূতপূর্ব চ্যালেঞ্জের মধ্য দিয়ে গেছি। ১৩ দিন ধরে যুদ্ধ বিধ্বস্ত ইউক্রেনে টিকে থাকা এক ভয়ঙ্কর অভিজ্ঞতা । আমার কাছে আমার দেশে ফিরে আসা একটি ‘অলৌকিক ঘটনা’ বলে মনে হচ্ছে,”। হিমাচল প্রদেশের চাম্বা থেকে ছেলেকে নিতে বিমান বিন্দরে এসে হাজির হন তাঁর বাবা-মা! ছেলেকে দেখে নিজের চোখে জল ধরে রাখতে পারেন নি। বাবা-মা’র কথায়, ‘ছেলেকে আবার কাছে ফিরে পাব ভাবতে পারিনি। ধন্যবাদ ভারত সরকারকে’।

কুমার ভারত সরকার এবং ইউক্রেন এবং পোল্যান্ডের দূতাবাসগুলিকে পড়ুয়াদের সরিয়ে নেওয়া এবং নিরাপদে ভারতে প্রত্যাবর্তনে সাহায্য করার জন্য ধন্যবাদ জানিয়েছেন৷ তাঁর কথায় “আমাদের সরকার আমাদের অনেক সাহায্য করেছে৷ তারা আমাদের ফিরিয়ে আনার জন্য সবকিছু করেছে। আমি দেশে ফিরে আসটে পেরে খুশি”। পড়ুয়াদের যুদ্ধ-বিধ্বস্ত ইউক্রেনের সুমিতে প্রায় দু সপ্তাহ আটকে থাকার পর অবশেষ এদিন সকালে তাদের দেশে ফিরিয়ে আনা হয়। উত্তর প্রদেশের মুজাফফরনগরের বাসিন্দা মহিমা রাঠি বলেছেন, ‘যতবার সাইরেন বাজে ততবার আমাদের নিরাপদ আশ্রয়ের খোঁজে বাঙ্কারের দিকে ছুটটে হয়’। দু সপ্তাহে আমরা প্রতিনিয়ত লড়াই চালিয়েছি বেঁচে থাকার জন্য। আমাদের সঙ্গে খাবার জল কিছুই ছিল না। কঠিন পরিস্থিতির মধ্যে লড়াই চালিয়ে গেছি। মা বাবাকে মিথ্যা বলতে হয়েছে। ভারতে ফেরার পর আমরা এখন ‘স্বস্তি’ অনুভব করছি।

আরো পড়ুন: সংকটেও ত্রাতা হয়ে উঠেছিলেন এজেন্টরা, জানালেন ইউক্রেন ফেরত পড়ুয়ারা

শুক্রবার সকাল ৫টা ৪৫ মিনিটে সুমিতে আটকে থাকা পড়ুয়াদের নিয়ে একটি বিশেষ বিমান দিল্লিতে অবতরণ করে। বিদেশ মন্ত্রকের তরফে জানানো হয়, সুমিতে আটকে থাকা ৬০০ পড়ুয়াকে ফিরিয়ে আনতে ভারত পোল্যান্ডে তিনটি বিমান পাঠিয়েছে । আধিকারিকরা জানিয়েছেন, সকাল ৮টা ৪০ মিনিটে অপর একটি বিমান দিল্লিতে অবতরণ করবে বলে আশা করা হচ্ছে। ভারত সরকার ইউক্রেনে আটকে পড়া ভারতীয়দের ইউক্রেন থেকে উদ্ধারের জন্য ‘অপারেশন গঙ্গা’ মিশন চালু রেখেছে। এই মিশনের অধীনে মঙ্গলবার সকালে সুমিতে আটকে থাকা ৬০০ জন পড়ুয়াকে ফিরিয়ে আনাতে বিশেষ অভিযান শুরু হয়।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest General news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Its a miracle to have survived war evacuated indian students recall experience