বড় খবর

কারাগারে ১০০ দিন, আমূল বদলেছে মণিপুরের ধৃত সাংবাদিকের স্ত্রী রঞ্জিতার জীবনও

“রাষ্ট্র শক্তি ব্যক্তিগত মত প্রকাশে বাধা দিচ্ছে। বিগত কয়েক মাস ধরেই আমরা দেখছি মণিপুরের নাগরিকদের সাংবিধানিক অধিকার খর্ব করার চেস্তা চালাচ্ছে বিজেপি সরকার। যারাই সরকারকে প্রশ্ন করছে, জেলে যেতে হচ্ছে তাঁদের”।

family of manipuri journalist kishorechandra

মণিপুরে ঝাঁসির রানী লক্ষ্মীবাইয়ের জন্মজয়ন্তী উদযাপনের প্রাসঙ্গিকতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন সে রাজ্যের সাংবাদিক কিশোরচন্দ্র ওয়াংখেম। সেই ‘অপরাধ’-এ জাতীয় নিরাপত্তা আইনের আওতায় গ্রেফতার করা হয় সাংবাদিককে। বৃহস্পতিবার কিশোরচন্দ্রের কারাবাসের ১০০ দিন পূর্ণ হল। গত বছরের নভেম্বরের শেষ সপ্তাহ থেকেই বদলেছে কিশোরচন্দ্রের স্ত্রী রঞ্জিতা এলাংবামের জীবনও।

“শেষ ১০০টা দিন আমায় বদলে দিয়েছে। সমাজে কী হচ্ছে, এখন অনেক বেশি খবর রাখি। আগে আমি মূলত আমার সন্তান, আমার পরিবারের কথা ভাবতাম। এখন অনেক বেশি মানবাধিকার লঙ্ঘনের খবর রাখি, আইনজীবী-সমাজকর্মীদের সঙ্গে কথা বলি”, ইম্ফল থেকে ফোনে ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে জানালেন রঞ্জিতা।

দুই মেয়ে তাদের বাবার অনুপস্থিতি অনুভব করছে, জানালেন রঞ্জিতা। “ছোটটা (এক বছর) কিছু বঝাতে পারে না, কিন্তু বড় মেয়ে (৫ বছর) মাঝে মাঝেই জিজ্ঞেস করে বাবা কবে ফিরবে”?

মণিপুরের বিজেপি সরকার এবং মুখ্যমন্ত্রী বীরেন সিং সম্পর্কে সোশাল মিডিয়ায় ‘অসম্মানজনক’ মন্তব্যের অভিযোগে ন্যাশনাল সিকিউরিটি অ্যাক্ট-এ গত ২৭ নভেম্বর গ্রেফতার করা হয় ওয়াংখেমকে। তবে এই প্রথম নয়। ২০১৮ -এর আগস্ট মাসেও ‘বিতর্কিত’ মন্তব্যের জেরে কিশোরচন্দ্রকে গ্রেফতার করেছিল প্রশাসন। জাতীয় নিরাপত্তার পক্ষে তিনি, বিপজ্জনক, এই কারণ দেখিয়ে গ্রেফতার করা হয়েছিল তাঁকে।

আরও পড়ুন, কাশ্মীর হামলা নিয়ে ফেসবুক পোস্ট লিখে সাসপেন্ড এলআইসি কর্মী

কিশোরচন্দ্রের গ্রেফতারের পরই ২ জানুয়ারি কংগ্রেসের সর্ব ভারতীয় সভাপতি রাহুল গান্ধী তাঁর পরিবারকে চিঠিতে লেখেন, “রাষ্ট্র শক্তি ব্যক্তিগত মত প্রকাশে বাধা দিচ্ছে। বিগত কয়েক মাস ধরেই আমরা দেখছি মণিপুরের নাগরিকদের সাংবিধানিক অধিকার খর্ব করার চেস্তা চালাচ্ছে বিজেপি সরকার। যারাই সরকারকে প্রশ্ন করছে, জেলে যেতে হচ্ছে তাঁদের”।

বৃহস্পতিবার ওয়াংখেমের আইনজীবী চংথাম ভিক্টর জানিয়েছেন, “আমরা আদালতে এই গ্রেফতারকে বেআইনি বলে আবেদন করেছিলাম। গত ৪ মার্চ শুনানি ছিল। কিন্তু আদালত এখনও এই নিয়ে কিছু রায় দিল না। আমি সপ্তাহ দুয়েক আগে কিশোরচন্দ্রের সঙ্গে দেখা করেছি। ঠিক আছেন উনি। বিচার ব্যবস্থার ওপর আমাদের আস্থা রয়েছে”।

সাংবাদিকের গ্রেফতারির প্রসঙ্গে মণিপুরের মুখ্যসচিব ডঃ জে সুরেশ বাবুকে জিজ্ঞেস করা হলে তিনি ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে জানালেন, “বিষয়টি উচ্চ আদালতে বিচারাধীন রয়েছে। আইন নিজের পথে চলবে”।

সাংবাদিকের স্ত্রী রঞ্জিতা জানালেন তাঁর স্বামীর মুক্তি চেয়ে পরিবারের তরফে কেউ কোনঅ রাজনৈতিক নেতা-মন্ত্রীর দ্বারস্থ হবেন না। “আমরা আইনের পথেই লড়াই করতে চাই। গত আগস্টে যখন ওঁকে গ্রেফতার করা হয়েছিল, চিকিৎসাগত কারণে জামিনে ছাড়া পান উনি। আমাদের ভুল পথে চালিত করা হয়েছিল বলে আইনি লড়াই লরতে পারিনি তখন। সেই জন্য ‘অপরাধের পুনরাবৃত্তি’র দায় বয়ে বেরাতে হচ্ছে ওনাকে”, বললেন রঞ্জিতা।

Read the full story in English

Get the latest Bengali news and General news here. You can also read all the General news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Lifes changed will fight it out legally says jailed manipur journalist kishorchandra wangkhems wife

Next Story
অযোধ্যা মামলায় মধ্যস্থতার নির্দেশ সুপ্রিম কোর্টেরsupreme court, সুপ্রিম কোর্ট
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com