scorecardresearch

বড় খবর

‘রাশিয়া থেকে পেট্রোপণ্য কেনায় কোন সমস্যা নেই’! সাফ বার্তা কেন্দ্রীয় পেট্রোলিয়াম মন্ত্রীর

এপ্রিল মাস থেকে রাশিয়া থেকে ভারতের অপরিশোধিত তেল আমদানি ৫০ গুণেরও বেশি বেড়েছে।

‘রাশিয়া থেকে পেট্রোপণ্য কেনায় কোন সমস্যা নেই’! সাফ বার্তা কেন্দ্রীয় পেট্রোলিয়াম মন্ত্রীর
অপরিশোধিত তেল আমদানি ৫০ গুণ বেড়েছে

রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের পর জ্বালানি সরবরাহ ব্যাহত হওয়ার ফলে তেলের দাম অভূতপূর্ব বৃদ্ধি পেয়েছে এবং বিশ্বব্যাপী জ্বালানি সংকট তৈরি করেছে। এই সংকটের মধ্যে, কেন্দ্রীয় পেট্রোলিয়াম ও প্রাকৃতিক গ্যাস সরবরাহ মন্ত্রী হরদীপ সিং পুরি বলেছেন, “কোনও দেশ ভারতকে রাশিয়া থেকে তেল কেনা বন্ধ করতে বলেনি। তিনি মার্কিন প্রতিনিধি  জেনিফার গ্রানহোমের সঙ্গে একটি দ্বিপাক্ষিক বৈঠক করেন। 

এর পরে, সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তর দেওয়ার সময়, কেন্দ্রীয় মন্ত্রী খোলাখুলিভাবে রাশিয়া থেকে তেল আমদানির বিষয়ে উত্তর দেন। তিনি বলেন, ভারত সরকারের নৈতিক দায়িত্ব তার জনগণকে শক্তি ও জ্বালানি সরবরাহ করা এবং ভারত যেখান থেকে সস্তায় তেল পাবে সেখান থেকে কিনবে। রাশিয়া থেকে তেল আমদানির প্রতিক্রিয়ায় কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বলেন, ভারতকে রাশিয়া থেকে তেল কিনতে কেউ নিষেধ করেনি। তিনি বলেছেন যে ভারত যেকোন জায়গা থেকে তেল কিনবে, ভারত তার জন্য বিশ্বের কাছে জবাবদিহি করতে বাধ্য নয়। ভারতের জনসাধারণের স্বার্থ সুরক্ষিত করাই সরকারের এক ও একমাত্র কর্তব্য”।

ভারতে তেলের দাম বেড়েছে মাত্র ২ শতাংশ

পেট্রোল এবং ডিজেলের দাম সম্পর্কে, কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বলেন, ” উত্তর আমেরিকায় জ্বালানির দাম ৪৩-৪৬% বৃদ্ধি পেয়েছে, তার তুলনায় ভারতে কেবলমাত্র ২% দাম বৃদ্ধি পেয়েছে।” প্রাকৃতিক গ্যাসের ক্ষেত্রে, বিশ্বব্যাপী দাম বেড়েছে ২৬০-২৮০% এবং সেখানে ভারতে বেড়েছে ৭০%। 

অপরিশোধিত তেল আমদানি ৫০ গুণ বেড়েছে

উল্লেখযোগ্যভাবে, এপ্রিল মাস থেকে রাশিয়া থেকে ভারতের অপরিশোধিত তেল আমদানি ৫০ গুণেরও বেশি বেড়েছে। ভারত বর্তমানে রাশিয়া থেকে মোট অপরিশোধিত তেল আমদানির ১০ শতাংশ আমদানি করছে। ইউক্রেন যুদ্ধের আগে ভারত রাশিয়া থেকে  অপরিশোধিত তেল আমদানি করত মাত্র ০.২ শতাংশ।

আরও পড়ুন: [ ৯০ তম ভারতীয় বায়ুসেনা দিবসে বিরাট ঘোষণা কেন্দ্রের, আগামী বছরই ‘মহিলা অগ্নিবীর’ নিয়োগ ]

কেন্দ্রীয় পেট্রোলিয়াম ও প্রাকৃতিক গ্যাস সরবরাহ মন্ত্রী হরদীপ সিং পুরি জ্বালানি খাতে ভারত-মার্কিন পারস্পরিক সহযোগিতার কথা জানিয়ে তিনি বলেন,  যে ভারত সরকার বর্তমান শক্তি সংকটকে দক্ষতার সঙ্গে পরিচালনা করেছে এবং দেশের কোন অংশকে শক্তি সংকটকে শক্ত হাতে মোকাবিলা করছে”। যদিও রাশিয়া থেকে ভারতের জ্বালানি আমদানির সমালোচনা করেছে যুক্তরাজ্য ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। ইউরোপীয় ইউনিয়ন রাশিয়ার অপরিশোধিত তেল ও পেট্রোলিয়াম পণ্যের উপর আংশিক নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে। এর পরিপ্রেক্ষিপ্তে পুরি বলেন, “আপনি যদি আপনার নীতি সম্পর্কে পরিষ্কার হন তাহলে জনগণের স্বার্থ সুরক্ষিত করতে যেখানে সস্তায় পণ্য পাবেন সেখান থেকেই কিনুন”।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest General news download Indian Express Bengali App.

Web Title: No one asked india to stop buying russian oil says union minister hardeep singh puri