বড় খবর

পেগাসাস কাণ্ড: NSO গ্রুপ নিয়ে সংসদে বড়সড় বয়ান কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর

শীতকালীন অধিবেশনেও সংসদে উঠল পেগাসাস এবং তার নির্মাতা সংস্থা এনএসও গ্রুপের প্রসঙ্গ।

Pegasus snooping row
প্রতীকী ছবি

গত বাদল অধিবেশনে সংসদ উত্তাল হয়েছিল পেগাসাস স্পাইওয়্যার কাণ্ড নিয়ে। এবার শীতকালীন অধিবেশনেও সংসদে উঠল পেগাসাস এবং তার নির্মাতা সংস্থা এনএসও গ্রুপের প্রসঙ্গ। শুক্রবার কেন্দ্রীয় তথ্যমন্ত্রক সংসদে জানাল, ইজরায়েলের এনএসও গ্রুপ সংস্থাকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র নিষিদ্ধ করেছে কি না তা নিয়ে কোনও তথ্য নেই সরকারের কাছে। তাই ভারতেও এই সংস্থাকে নিষিদ্ধ করার কোনও প্রশ্নই নেই।

কেন্দ্রীয় মন্ত্রী রাজীব চন্দ্রশেখর সমাজবাদী পার্টির সাংসদ বিশ্বম্ভর প্রসাদ নিষাদ এবং চৌধুরি সুখরাম সিং যাদবের প্রশ্নের উত্তরে সাফ জানিয়েছেন, ভারতে ইজরায়েলি সংস্থাকে ব্যান করার কোনও প্রশ্ন নেই। সরকারের এমন কোনও ভাবনাচিন্তা নেই। সাংসদরা প্রশ্ন তোলেন, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র এনএসও গ্রুপ এবং কান্দিরু সংস্থাকে কালো তালিকাভুক্ত করেছে।

কারণ পেগাসাস স্পাইওয়্য়ারের মাধ্যমে সাংবাদিক, দূতাবাসের কর্মী এবং সমাজকর্মীদের উপর নজরদারি চলত। যখন তথ্য রয়েছে তাহলে মন্ত্রক কেন এই দুই সংস্থাকে নিষিদ্ধ করা হচ্ছে না। নাহলে তার কারণ জানতে চান সাংসদরা। এনএসও গ্রুপ এবং কান্দিরু দুই সংস্থাই সাইবার নজরদারি সফটওয়্যারের বাজারে প্রতিযোগী সংস্থা। তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ, তারা বিভিন্ন দেশের সরকারকে এই নজরদারি সফটওয়্যার দিয়ে থাকে।

আরও পড়ুন আতঙ্ক বাড়ল, ‘ঝুঁকিপূর্ণ’ দেশগুলি থেকে বিমানবন্দরে নামা ১২ জনের ৮ জনই করোনা পজিটিভ

উত্তরে চন্দ্রশেখর জানিয়েছেন, মন্ত্রকের কাছে এমন কোনও তথ্য নেই। তাই এনএসও গ্রুপ নামে কোনও সংস্থাকে নিষিদ্ধ করার প্রস্তাবনা নেই সরকারের। প্রসঙ্গত, গত নভেম্বর মাসে মার্কিন বাণিজ্য দফতর এই দুই ইজরায়েলি সংস্থাকে নিষিদ্ধ ঘোষণা করে। দুই সংস্থাকে অবৈধ সাইবার কার্যকলাপের বিদেশি সংস্থার তালিকায় রাখে।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and General news here. You can also read all the General news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: No plan to ban nso group centre tells parliament

The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com