scorecardresearch

নমো টিভিতে সর্বদা, সর্বত্র কেবল প্রধানমন্ত্রী

নমো টিভিকে তার জন্মলগ্ন থেকেই একধরনের গোপনীয়তায় আড়ালে ঢেকে রাখা হয়েছিল এবং টেলিভিশনের বেশ কিছু আইনের ফাঁকফোকরকে হাতিয়ার করেই চলছে এই টিভি।

বিতর্কের নয়া নাম নমো টিভি

ভোট লগ্নে প্রধানমন্ত্রীর এক একটি পদেক্ষেপ রাজনৈতিক মহলে বিতর্কের ঝড় তুলে দিচ্ছে, তা সে ‘পি এম মোদী’ চলচ্চিত্র হোক কিংবা নমো টিভি। সেই বিতর্কেই ঘি ঢালল একটি নয়া ঘটনা। দেরাদুনের মঞ্চে জনতার উদ্দেশে বক্তব্য পেশের আগেই মোদীর ভারত নিজেকে পারমাণবিক রাষ্ট্র হিসেবে প্রমাণ করার কাজটি করে দিয়েছে। সেনাবাহিনীর একটি গোপন দল পোখরানে সফলভাবে কিছু “পারমাণবিক পরীক্ষা” করেছে এবং সম্পূর্ণ ঘটনাটি ‘নমো টিভি’তে সম্প্রচারিত করা হয়। আধঘন্টার এই অনুষ্ঠানের মাধ্যমে স্পষ্ট হয়ে গেল যে নমো টিভির প্রকৃত উদ্দেশ্য হল, জাতীয়তাবাদকে সামনে রেখে মোদী ও বিজেপি ব্র্যান্ডকে প্রচার করে চলা।

নমো টিভিকে তার জন্মলগ্ন থেকেই একধরনের গোপনীয়তায় আড়ালে ঢেকে রাখা হয়েছিল এবং টেলিভিশনের বেশ কিছু আইনের ফাঁকফোকরকে হাতিয়ার করেই চলছে এই টিভি। এই চ্যানেলে মূলত নরেন্দ্র মোদীর উদ্ধৃতি থাকছে, যেগুলি তাঁর সাম্প্রতিক ভাষণ অথবা তাঁর সাক্ষাৎকার থেকে নেওয়া এবং এই অ্যাপটির মাধ্যমে দর্শকদের প্রধানমন্ত্রীর পরবর্তী রাজনৈতিক সমাবেশ কোথায়,কখন করবেন তার বিস্তারিত তথ্য দেওয়া হয়।

আরও পড়ুন মমতাই সারদায় সবথেকে বড় ‘সুবিধাভোগী’, বিস্ফোরক মুকুল

গত কয়েক দিনে নমো টিভিতে ‘টয়লেট এক প্রেম কথা’ সিনেমাটি দেখানো হয়, যা মোদীর “স্বচ্ছ ভারত অভিযান”এর সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ। মোদীর প্রচারাভিযান, গত পাঁচ বছরে মোদির নেতৃত্বে সরকারের সাফল্যের উপর একটি উপস্থাপনা এবং কৃষক, নারী নিরাপত্তা, ডিজিটাল পেমেন্ট ইত্যাদি সম্পর্কে আলোচনা করে ব্যতীত অন্য কোনও বিশেষ অনুষ্ঠান এই চ্যানেলটিতে সম্প্রচার করা হয় না। দেশের প্রায় সব ডিটিএইচ পরিষেবাতেই এই চ্যানেলটি দেখতে পাওয়া যাচ্ছে।

https://platform.twitter.com/widgets.js

প্রসঙ্গত, গত শুক্রবার দেরাদুনে মোদীর বক্তৃতা চলাকালীন সম্প্রচারে খানিক বিঘ্ন ঘটে এবং সেই সময় এএনআই সংবাদসংস্থার লোগো এবং ফোন নাম্বার স্ক্রিনে দেখতে পাওয়া যায়। মনে করা হচ্ছে, এএনআই সংবাদসংস্থা থেকেও চ্যানেলটিকে সরাসরি অনুষ্ঠান সম্প্রচারের সম্মতি দেওয়া আছে।

আরও পড়ুন বিজেপির ইস্তেহারে রাম মন্দির, নাগরিকত্ব বিল

উল্লেখ্য, নরেন্দ্র মোদীর লেখা বই ‘এক্সাম ওয়ারিওর্স’ এর পরামর্শদাতা হিসেবে পরিচিত ব্লু কার্ট ডিজিট্যাল ফাউন্ডেশনের তৈরি মোদীর যোগ-ব্যায়ামের কিছু অ্যানিমেটেড ভিডিও সকালবেলায় সম্প্রচার করা হয়। শুক্রবার সন্ধ্যাবেলায় ‘ম্যায় ভি চৌকিদার’ অনুষ্ঠানের পুনরায় সম্প্রচার করা হয়। শুধু তাই নয়, অন্য নেতারাও মাঝে মাঝে প্রধানমন্ত্রী ও সরকারের সাফল্য সম্পর্কে কথা বলার জন্য উপস্থিত হন চ্যানেলটিতে।

নমো টিভির সমস্ত অনুষ্ঠান ও কার্যাবলী বিজেপির মস্তিস্কপ্রসূত বলেই মনে করছেন রাজনৈতিক দলের একাংশ। কারণ, এই চ্যানেলের প্রধান মুখ হলেন মোদী, সদাসর্বত্র তার জয়গান ও তার প্রচার হল মূল লক্ষ্য। সময়ের কারণে এবং “মোদীর অনুপস্থিতিতে” ঢাকতে কিছু প্রচার সংক্রান্ত গান ও কিছু অন্যান্য অনুষ্ঠান চ্যানেলটিতে সম্প্রচার করা হয়ে থাকে।

Read the full story in English

Stay updated with the latest news headlines and all the latest General news download Indian Express Bengali App.

Web Title: On namo tv the prime minister is everywhere