বড় খবর

প্রশান্ত ভূষণকে ১ টাকা জরিমানা সুপ্রিম কোর্টের

১৫ সেপ্টেম্বরের মধ্যে জরিমানা বাবাদ ১ টাকা দিতে হবে। নয়তো তিন মাসের জন্য জেলে থাকতে হবে ও আগামী তিন বছর আদালতে কোনও মামলা তিনি লড়তে পারবেন না ভূষণ।

প্রশান্ত ভূষণকে ১ টাকা জরিমানা সুপ্রিম কোর্টের

আদালত অবমাননার দায়ে আগেই দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছিল বর্ষীয়ান আইনজীবী প্রশান্ত ভূষণকে। শাস্তি হিসাবে ১ টাকা জরিমানা করা হল ভূষণকে। সোমবার এই নির্দেশ দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট।

সর্বোচ্চ আদালতের বিচারপতি অরুণ মিশ্র, বিতারপতি বি আই গাভাই ও বিতারপতি কৃষ্ণ মুরারীর বেঞ্চের নির্দেশ, ভূষণকে আগামী ১৫ সেপ্টেম্বরের মধ্যে জরিমানা বাবাদ ১ টাকা আদালতে জমা করতে হবে। নয়তো ভূষণকে তিন মাসের জন্য জেলে থাকতে হবে ও আগামী তিন বছর আদালতে কোনও মামলা তিনি লড়তে পারবেন না।

গত ২৭ জুন সুপ্রিম কোর্টের বিরুদ্ধে একটি টুইট করেছিলেন ভূষণ। লেখেন, ‘সরকারিভাবে জরুরি অবস্থা না থাকা সত্ত্বেও গত  ৬ বছরে কীভাবে দেশের গণতন্ত্র ধ্বংস করা হয়েছে, তা দেখার সময় ঐতিহাসিকরা সুপ্রিম কোর্টের ভূমিকা বিশেষভাবে চিহ্নিত করবেন, বিশেষ করে ভারতের শেষ চারজন প্রধান বিচারপতির ভূমিকা ।’

দু’দিন পর ২৯ জুন, প্রধান বিচারপতি এস এ বোবদকে নিয়ে টুইট করেন বিখ্যাত আইনজীবী ও সমাজকর্মী। লেখেন ‘মাস্ক বা হেলমেট না পরেই নাগপুরের রাজভবনের এক বিজেপি নেতার ৫০ লক্ষ টাকার মোটরসাইকেল চালিয়েছেন ভারতের প্রধান বিচারপতি। সেই সময়, যখন তিনি সুপ্রিম কোর্টকে লকডাউন মোডে রেখে নাগরিকদের বিচার পাওয়ার মৌলিক অধিকার থেকে বঞ্চিত করছেন।’

ভূষণের এই দুই টুইটের পরিপ্রেক্ষিতে আদালত অবমাননার মামলা হয় সুপ্রিম কোর্টে। গত ১৪ অগাস্ট ভূষণকে দোষী সাব্যস্ত করা হয়।

ভূষণের এই দুই টুইটের পরিপ্রেক্ষিতে আদালত অবমাননার মামলা হয় সুপ্রিম কোর্টে। গত ১৪ অগাস্ট ভূষণকে দোষী সাব্যস্ত করা হয়। এরপরই ভূষণ আদালতে বলেন, তাঁর উদ্দেশ্যের স্বপক্ষে কোনও প্রমাণ ছাড়াই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। আদালক এরপর ভূষণকে নিজের অবস্থান নিয়ে সরে এসে ওই দুই টুইটের জন্য ক্ষমা চাওয়ার কথা বলে। ২৪ অগস্টও নিজের অবস্থানে অনড় থাকেন ভূষণ। জানিয়ে দেন, এর জন্য মন থেকে ক্ষমা চাইতে তিনি পারবেন না। ক্ষমা চাইলেও নিজের বিবেকের সঙ্গে প্রতারণা করা হবে।

এরপর অ্যাটর্নি জেনারেল কে কে বেণুগোপালও প্রশান্ত ভূষণের শাস্তি মুকুবের আর্জি জানিয়েছিলেন। তাঁকে কেবল সতর্ক করে ছেড়ে দেওয়ার দাবি জানান। কিন্তু, আদালত জানতে চায়, প্রশান্ত ভূষণ নিজের কাজের জন্য় অনুশোচনা করেননি, এমনকী বিরূপ প্রতিক্রিয়া দিয়েছেন। তাহলে কীভাবে বিনা শাস্তিতে অপরাধীকে ছেড়ে দেওয়া সম্ভব। এরপরই আদালত অবমাননা মামলায় দোষী প্রসান্ত ভূষণকে এদিন শর্ত সাপেক্ষে এক টাকা জরিমানা করে সর্বোচ্চ আদালত।

Read in English

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and General news here. You can also read all the General news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Prashant bhushan contempt case fined rs 1 by supreme court

Next Story
মহামারী কাটলেও রেলের বাতানুকূল কামরায় আর কম্বল-বালিশ-তোয়ালে নয়!
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com