‘আমার কিছু হলে একদম কাঁদবে না’, মৃত্যুর কয়েক ঘণ্টা আগে রাহুলকে বলেন ইন্দিরা

ইন্দিরার ৩৭তম মৃত্যুদিবসে আবেগতাড়িত হয়ে পড়লেন নাতি রাহুল গান্ধি।

Rahul Gandhi: Hours before her death, grandma told me not to cry if something happened to her
রবিবার ইন্দিরার ৩৭তম মৃত্যুদিবসে আবেগতাড়িত হয়ে পড়লেন নাতি রাহুল গান্ধি।

৩১ অক্টোবর। ভারতের ইতিহাসে একটা কালো দিন। এই দিনই ৩৭ বছর আগে দেহরক্ষীর হাতে নিহত হন ভারতের প্রথম মহিলা প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধি। আজ, রবিবার ইন্দিরার ৩৭তম মৃত্যুদিবসে আবেগতাড়িত হয়ে পড়লেন নাতি রাহুল গান্ধি। ঠাকুমার স্মৃতি ঘিরে ধরল তাঁকে। ইউটিউবে একটি ভিডিও পোস্ট করেছেন কংগ্রেস সাংসদ। সেই ভিডিওতে ইন্দিরার মৃত্যুকে জীবনের দ্বিতীয় সবচেয়ে কঠিন দিন হিসাবে বর্ণনা করেছেন রাহুল।

রাহুল বলেছেন, “সেদিন সকালে মৃত্যুর কিছুক্ষণ আগেও তিনি আমাকে বলেছিলেন, আমার কিছু হয়ে গেলে একদম কাঁদবে না। আমি তখন এচার মানে বুঝতে পারিনি। তার ঠিক দু-তিন ঘণ্টা পর তাঁর মৃত্যু হয়।” সেদিনের কথা বলতে বলতে গলা ধরে আসে তাঁর। রাহুল আরও বলেন, “ঠাকুমা বুঝতে পেরেছিলেন তাঁকে হত্যা করা হবে। আমার মনে হয় অনেকেই সেটা বুঝতে পেরেছিলেন। একবার ডিনার টেবিলে আমাদের তিনি বলেছিলেন, রোগে মৃত্যু সবচেয়ে বড় অভিশাপ।”

ঠাকুমার কথা বলতে গিয়ে নস্ট্যালজিক হয়ে পড়েন রাহুল। তিনি ইন্দিরা সম্পর্কে বেশ কিছু কথা বলেন। রাহুল বলেছেন, “আমার দুটো মা। ঠাকুমা ছিলেন সুপার মা, কারণ বাবা রেগে গেলে আমাকে বাঁচাতেন। আর আমার মা। ঠাকুমাকে হারানো মা-কে হারানোরই সমান।”

ভিডিওতে ইন্দিরা গান্ধির শেষযাত্রা এবং অন্ত্যেষ্টির দৃশ্য রয়েছে। সেখানে দেখা যাচ্ছে ছোট্ট রাহুল ঠাকুমার মৃত্যুতে শোকসন্তপ্ত। উল্লেখ্য, রবিবার শক্তি স্থলে ইন্দিরার স্মৃতিসৌধে পুষ্পার্ঘ দেন রাহুল। এরপর হিন্দিতে টুইট করে লেখেন, “আমার ঠাকুমা অকুতোভয় হয়ে দেশের সেবা করেছেন শেষ মুহূর্ত পর্যন্ত। তাঁর জীবন আমাদের কাছে অনুপ্রেরণার উৎস। নারীশক্তির বিরাট দৃষ্টান্ত, তাঁর শহিদ দিবসে ইন্দিরা গান্ধিকে বিনীত শ্রদ্ধা জানাই।”

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and General news here. You can also read all the General news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Rahul gandhi hours before her death grandma told me not to cry if something happened to her

Next Story
ফেডারেল ফ্রন্টের ঢাকে কাঠি!
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com