scorecardresearch

বড় খবর

করোনা উল্লেখ করা যাবে না ‘ডেথ সার্টিফিকেটে’, চিনে জারি সরকারি নির্দেশ, তুমুল বিতর্ক

চিন সরকারের ৬০,০০০ মৃত্যুর সর্বশেষ দাবিতেও বিশ্ব জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা আশ্বস্ত নন।

করোনা উল্লেখ করা যাবে না ‘ডেথ সার্টিফিকেটে’, চিনে জারি সরকারি নির্দেশ, তুমুল বিতর্ক

ভয়াবহ করোনার কামড়ে ত্রস্ত চিন। পরিস্থিতি এতটাই জটিল যে পরিসংখ্যান গোপন করতে মরিয়া চিন সরকার। সংবাদ সংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদনে দাবি করা হয়েছে চিনে সরকার চিকিৎসকদের জন্য নয়া নির্দেশ জারি করেছে। কী রয়েছে সেই নির্দেশে?

ডেথ সার্টিফিকেটে রোগীর মৃত্যুর কারণ হিসেবে করোনা না লেখার পরামর্শ দিয়েছে চিন সরকার। আদেশে বলা হয়েছে, রোগীর কোন ক্রনিক রোগ থাকলে মৃত্যুর কারণ হিসাবে ডেথ সার্টিফিকেটে সেই কথাই উল্লেখ করতে হবে। চিকিৎসকদের পাঠানো এই নির্দেশকে কেন্দ্র করে তোলপাড় শুরু হয়েছে। সরকার নির্দেশ দিয়েছে যে রোগীর মৃত্যুর কারণ যদি শুধুমাত্র কোভিড-১৯ হয়, তাহলে চিকিৎসকরা তাদের ঊর্ধ্বতনদের সঙ্গে কথা বলতে হবে। এরপর দু’জন বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ নেওয়া হবে। এর পরে, নিশ্চিত হওয়ার পরেই কোভিড ১৯ এর উল্লেখ ডেথ সার্টিফিকেটে উল্লেখ করতে পারবেন সংশ্লিষ্ট চিকিৎসক।

সূত্রের খবর, নির্দেশটি ইতিমধ্যেই চিনের সকল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। বিশ্বজুড়ে চিনের এহেন পদক্ষেপের সমালোচনাও শুরু হয়েছে। বিশ্বজুড়ে স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা বলছেন, চিন করোনা আক্রান্ত ‘মৃতের সংখ্যা’ গোপন করছে। শনিবারই চিনের জাতীয় স্বাস্থ্য কমিশন স্বীকার করেছে যে মাত্র ৩০দিনে হাসপাতালে করোনা মহামারীতে এ পর্যন্ত প্রায় ৬০,০০০ মানুষ মারা গেছেন।  

চিন সরকারের ৬০,০০০ মৃত্যুর সর্বশেষ দাবিতেও বিশ্ব স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা আশ্বস্ত নন। বিশেষজ্ঞরা বিশ্বাস করেন যে চিন সরকার এখনও সঠিক পরিসংখ্যান বলছে না এবং চিনে করোনার কারণে প্রায় এক মিলিয়ন মানুষ মারা গেছেন।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest General news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Try not to write covid china hospitals notice for doctors preparing death certificates