যুদ্ধের প্রভাব সব দেশে, ভেঙেছে সাপ্লাই চেইন: সীতারমন

এক মাসেরও বেশি সময় ধরে চলছে রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ। দফায়-দফায় শান্তি বৈঠক হলেও মেলেনি এখনও মেলেনি রফাসূত্র।

Ukraine war having impact on all countries, supply chains broken, says Finance Minister Sitharaman
এক মাসেরও বেশি সময় ধরে চলছে রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ।

এক মাসেরও বেশি সময় ধরে চলছে রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ। দফায়-দফায় শান্তি বৈঠক হলেও মেলেনি এখনও মেলেনি রফাসূত্র। দুই দেশের মধ্যে একটানা যুদ্ধের প্রভাব পড়েছে বিশ্বের বাকি দেশগুলিতেও। যুদ্ধের জেরে পুরনো বাজারগুলি এমন জায়গা থেকে পরিচালিত হচ্ছে যেখানকার পরিস্থিতি মোটেও স্বাভাবিক নয়, এমনই দাবি কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমনের। যুদ্ধের কারণে নতুন বাজার তৈরি হচ্ছে বলেও দাবি সীতারমনের।

মঙ্গলবার লোকসভায় কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী বলেন, ”রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের প্রভাব সব দেশেই পড়েছে। সাপ্লাই চেইনটাই ভেঙে পড়েছে। নতুন বাজার তৈরি হচ্ছে। একই সময়ে পুরনো বাজারগুলি এমন পরিস্থিতির মধ্যে চলছে যেখানে কিছুই স্বাভাবিক নয়।” মঙ্গলবার ২০২২ ফিনান্স বিল এবং অ্যাপ্রোপিয়েশন বিল ২০২২-এর উপর আলোচনা চলে সংসদে। সেই আলোচনায় কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী জানান, UNCTAD-এর রিপোর্ট অনুযায়ী ভারত এখনও বিদেশি প্রত্যক্ষ বিনিয়োগ গ্রহণকারী দেশের মধ্যে বিশ্বের মধ্যে প্রথম পাঁচেই রয়েছে।

অন্যদিকে, এদিন লোকসভায় বিরোধীরা কেন্দ্রীয় সরকারের বেসরকারিকরণ নীতির বিরুদ্ধে ট্রেড ইউনিয়নগুলির ডাকা দু’দিনের দেশব্যাপী ধর্মঘটের পক্ষে সওয়াল করে। লোকসভায় এবিষয়ে আলোচনা চাওয়া হয়। জিরো আওয়ারে বিষয়টি উত্থাপনের সময় তৃণমূল সাংসদ সৌগত রায় বলেন, ”ধর্মঘটে ব্যাপক সাড়া মিলেছে। সরকারের নীতির বিরুদ্ধে জনগণের ক্ষোভ ধর্মঘটের মধ্য দিয়ে প্রতিফলিত হয়েছে। সরকারের বোঝা উচিত, জনগণ তাদের সব কিছু বিক্রির নীতিতে অসন্তুষ্ট।”

আরও পড়ুন- লখিমপুর খেরি মামলা: সাক্ষীদের উপর হামলা হয়নি, সুপ্রিম কোর্টে জানাল যোগী সরকার

এরই পাশাপাশি, এদিন লোকসভায় পাকিস্তানে ভারতীয় সুপারসনিক মিসাইল আছড়ে পড়ার বিষয়টি তোলেন কংগ্রেস নেতা মণীশ তিওয়ারি। এব্যাপারে উদ্বেগ প্রকাশ করে তিনি পারমাণবিক বিষয়গুলি নিয়ে সুসংহত একটি আলোচনার আহ্বান জানিয়েছেন।

এদিন লোকসভার জিরো আওয়ারে এবিষয়ে মণীশ তিওয়ারি বলেন, ”এই ঘটনাগুলি থেকে বোঝা যায় যে পাকিস্তানও ক্ষেপণাস্ত্রটি তাদের ভূখণ্ডে ঢোকার পর প্রতিশোধমূলক হামলার প্রস্তুতি নিয়েছিল। মিসাইলটির গতিপথের আশেপাশে প্রচুর সংখ্যক বেসামরিক বিমান ছিল। অনাকাঙ্ক্ষিত একটি বিপর্যয়ও হতে পারত। তবে আমরা সেদিন ভাগ্যবান ছিলাম।”

Read story in English

Stay updated with the latest news headlines and all the latest General news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Ukraine war having impact on all countries supply chains broken says finance minister sitharaman

Next Story
লখিমপুর খেরি মামলা: সাক্ষীদের উপর হামলা হয়নি, সুপ্রিম কোর্টে জানাল যোগী সরকার