বড় খবর

মহিলাদের নিয়ে বেফাঁস মন্তব্যের জেরে বিপাকে কর্ণাটকের স্বাস্থ্যমন্ত্রী

এক অনুষ্ঠানে ভারতীয় মহিলাদের নিয়ে বেফাঁস মন্তব্য করে সোশ্যাল মিডিয়ায় সমালোচনার মুখে কর্ণাটকের স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডক্টর কে সুধাকর।

মহিলাদের নিয়ে বেফাঁস মন্তব্যের জেরে বিপাকে কর্ণাটকের স্বাস্থ্যমন্ত্রী

বেঙ্গালুরুর ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অফ মেন্টাল হেলথ অ্যান্ড নিউরোলজিক্যাল সায়েন্সে ১০ অক্টোবর আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে ভারতীয় মহিলাদের নিয়ে বেফাঁস মন্তব্য করে সোশ্যাল মিডিয়ায় সমালোচনার মুখে কর্ণাটকের স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডক্টর কে সুধাকর। বেঙ্গালুরুর ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অফ মেন্টাল হেলথ অ্যান্ড নিউরোলজিক্যাল সায়েন্সে আয়োজিত অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখতে উঠে কর্ণাটকের স্বাস্থ্যমন্ত্রী কে সুধাকর বলেন, আধুনিক ভারতীয় মহিলারা অবিবাহিত থাকতে চান এবং বিয়ের পরেও সন্তান দিতে রাজি নন। তিনি বলেন, আজকাল নারীরা সারোগেসির মাধ্যমে সন্তান কামনা করেন’। এর সঙ্গে ভারতীয় সমাজে ‘পশ্চিমী প্রভাব’ নিয়েও বেফাঁস মন্তব্য করেন তিনি। আর এই বক্তব্য মুহূর্তেই ভাইরাল হয় সোশ্যাল মিডিয়ায়। এদিকে মন্ত্রীর এহেন বক্ত্যবের বিরুদ্ধে মুখ খুলেছেন সমাজের বুদ্ধিজীবী মহল। 

সুধাকর তাঁর বক্তব্যে বলেন, ‘আজ আমরা চাই না আমাদের বাবা মা’রা আমাদের সঙ্গে থাকুক, আধুনিক ভারতীয় সমাজে মেয়েরা আজকাল অবিবাহিত থাকতে চান, তাঁরা তাঁদের বিয়ের পরও সন্তান ধারণ করতে রাজি হন না। আজকাল নারীরা সারোগেসির মাধ্যমে সন্তান কামনা করেন যা আমাদের চিন্তাধারার দৃষ্টান্তমুলক পরিবর্তন, এই চিন্তাধারা ভাল নয়’। এই ভিডিও মুহূর্তেই ভাইরাল হয়, আর তার তা ভাইরাল হতেই মন্ত্রীর এহেন বক্তব্যের বিরুদ্ধে ক্ষোভে ফেটে পড়েন অনেকেই। তাঁদের দাবি, মন্ত্রীর এই মন্তব্য ভিত্তিহীন। একই সঙ্গে তাঁদের বক্তব্য, মন্ত্রীর এই ভাষণ মহিলাদের ব্যক্তিস্বাধীনতাকে খর্ব করেছে। তবে অনেকেই আবার মন্ত্রীর এই বক্তব্যের সঙ্গে সহমত হয়েছেন। সব মিলিয়ে মন্ত্রীর এই বক্তব্য ঘিরে নেটদুনিয়ায় চর্চা অব্যাহত।  

মন্ত্রীর এই বক্তব্যের ভিডিও ভাইরাল হতেই এই বিবৃতিটি সোশ্যাল মিডিয়ায় বেশ আলোড়ন সৃষ্টি করেছে। অনেকেই তাঁদের মতামত জানিয়েছেন, কেউ কেউ তাঁর বক্তব্যকে প্রতিক্রিয়াশীল বলে ব্যাখ্যা করেছেন, আবার কয়েকজন সুধাকরের কথার সঙ্গে সহমত পোষণ করেছেন। একজন টুইটার ইউজার সরাসরি তাঁর প্রতিক্রিয়ায় জানিয়েছেন, ‘হ্যাঁ, অবশেষে নারীরা বিয়ে এবং মাতৃত্বের বাইরে ভাবতে শুরু করেছে’। অনেকে তাদের প্রতিক্রিয়ায় মন্ত্রীর এই বক্তব্যের সঙ্গে সহমত পোষণ করেননি। অনেকে আবার তাঁদের প্রতিক্রিয়ায় জানিয়েছেন ‘সন্তানদের বেড়ে ওঠা এবং তাদের শিক্ষাদীক্ষা অনেকাংশেই নির্ভর করে পরিবারের উপর, সুতরাং বাবা মাকে ছেড়ে একা থাকার মানসিকতাকে মেনে নেওয়া যায় না’।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and General news here. You can also read all the General news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Viral karnataka health minister remark on modern indian women leaves internet divided

Next Story
‘স্বেচ্ছায় নয়, মহাত্মার পরামর্শে ব্রিটিশদের মুচলেকা দেন সাভারকর’, দাবি রাজনাথেরGandhi asked Savarkar to file mercy plea before British: Rajnath Singh
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com