বড় খবর

মেলেনি সরকারি হাসপাতালের বেড, তিলজলা ও গড়ফায় বিনা চিকিৎসায় করোনা আক্রান্ত দুই বৃদ্ধার মৃৃত্যু

কোথাও ১০ ঘণ্টা আবার কোথাও ১৬ ঘণ্টা বাড়িতে পড়ে রইল মৃতদেহ।

Pakistan Accident, Bus, Chin
প্রতীকী ছবি

কোভিডের বাড়বাড়ন্তের মধ্যেই শহরের দুই প্রান্তে দুই করোনা আক্রান্ত রোগীর মর্মান্তিক মৃত্যু হল। ২ দিন ধরে চেষ্টা করেও মিলল না সরকারি হাসপাতালে বেড। এমনকী স্বাস্থ্যভবনের হেল্পলাইন নম্বরেও ফোন করেও মেলেনি সাহায্য। বাড়িতে পড়ে থেকে মৃত্যু করোনা আক্রান্ত বৃদ্ধার। কার্যত বিনা চিকিৎসায় ফ্ল্যাটে পড়ে থেকে মারা গেলেন করোনা সংক্রমিত বৃদ্ধা। ঘটনাটি তিলজলায় হয়েছে।

জানা গিয়েছে, মৃত্যুর পর দেহ সৎকারেও দুর্ভোগে পরিবার। ১০ ঘণ্টা বাড়িতে পড়ে থাকল বৃদ্ধার মৃতদেহ। কলকাতা পুরসভায় বারবার জানিয়েও কাজ হয়নি বলে অভিযোগ। অবশেষে ১০ ঘণ্টা পর সৎকারের ব্যবস্থা করল পুরসভা। গত বছর করোনার প্রথম ঢেউয়ের সময় শহরে বেশ এমন ধরনের দুর্ভোগের চিত্র ধরা পড়েছিল। বছর ঘুরে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ আছড়ে পড়লেও, চিত্রটা বদলায়নি। তা চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিল তিলজলার ঘটনা।

এদিকে, শহরের অন্য প্রান্তে গড়ফায় এই ধরনের ঘটনা ঘটেছে। কোভিড টেস্টের রিপোর্ট না মেলায় সত্তরোর্ধ্ব মহিলাকে কোনও হাসপাতালই ভর্তি নিল না। এমনকী বিভিন্ন ওষুধের দোকানে ঘুরেও মেলেনি অক্সিজেন। বৃহস্পতিবার রাতে হাসপাতালে ভর্তি না হওয়ার জেরে, বাড়িতে অক্সিজেন না পেয়ে মৃত্যু হয় ওই বৃদ্ধার। মৃত্যুর তিন ঘণ্টা পর মেলে টেস্ট রিপোর্ট। রিপোর্ট পজিটিভ। কিন্তু দুর্ভোগের এখানেই শেষ নয়, ১৬ ঘণ্টা ঘরেই পড়ে থাকে দেহ। শুক্রবার দুপুরে পুরসভার তরফে শববাহী গাড়ি এসে নিয়ে যায় দেহ।

Get the latest Bengali news and Kolkata news here. You can also read all the Kolkata news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Gasping for oxygen crying for bed in hospital 2 covid patients died at home in kolkata

Next Story
করোনার জের, সোমবার থেকে কমছে মেট্রোর সংখ্যাkolkata metro corona
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com