বড় খবর

কেষ্টপুরে বিধ্বংসী আগুন, ভস্মীভূত ৩০টির বেশি দোকান

দমকলের ১৫টি ইঞ্জিনের কয়েক ঘণ্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে এলেও রবিবার সকালেও কয়েক জায়গায় পকেট ফায়ার রয়ে গিয়েছে।

Fire occured in a home at nimtala ghat street
প্রতীকী ছবি

শনিবার গভীর রাতে বিধ্বংসী আগুনে ভস্মীভূত কেষ্টপুরের শতরূপা পল্লির ৩০টিরও বেশি দোকান। রাতে আচমকা বিকট শব্দে কেঁপে ওঠে গোটা কেষ্টপুর। এরপরেই ঝুপড়িগুলোতে আগুনে জ্বলতে দেখেন স্থানীয় বাসিন্দারা। সঙ্গে সঙ্গে তাঁরা খবর দেওয়া হয় দমকলে। তবে দমকলের আসার আগেই আগুন ছড়িয়ে পড়ে। পুড়ে ছাই হয়ে যায় দোকানগুলো।

দমকলের ১৫টি ইঞ্জিনের কয়েক ঘণ্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে এলেও রবিবার সকালেও কয়েক জায়গায় পকেট ফায়ার রয়ে গিয়েছে। এদিন সকালেও ঝুপড়িগুলোর একাধিক জায়গায় আগুন জ্বলতে দেখা যায় বলে জানিয়েছেন স্থানীয় বাসিন্দারা। আগুন নেভাতে গিয়ে আহত হয়েছেন দমলের কর্মীরা।

কেষ্টপুরের শতরূপা পল্লিতে আগুনের খবর পেয়ে রাতেই ঘটনাস্থলে যান দমকলমন্ত্রী সুজিত বসু। তিনি বলেন, ‘রাত ২টো নাগাদ আগুন লাগার খবর পাই। এখানে বহু মানুষের দোকান ছিল। কিন্তু সেগুলো পুড়ে গিয়েছে। ক্ষিগ্রস্ত দোকানগুলোর তালিকা তৈরি করা হচ্ছে। তবে কেউ হতাহত হয়নি।’ সকালে ঘটনাস্থলে যায় স্থানীয় বিধায়কও। ভস্মীভূত দোকান মালিকদের সরকারি সাহায্যের আশ্বাস দিয়েছেন তিনি।

জানা গিয়েছে, কেষ্টপুরের শতরূপা পল্লিতে সাইকেল, খাবার সহ নানা দোকান ছিল। পাশেই ঝুপড়িতে বহু মানুষের বসবাস করে। ফলে আগুনে বহু ক্যক্ষতি হয়েছে। আগুন নেভাতে ব্যবহার করা হয় রোবট।

কীভাবে লাগল এই আগুন, তা এখনও স্পষ্ট নয়। দমকলকর্মীদের প্রাথমিক অনুমান গ্যাস সিলিন্ডার ফেটে এই অগ্নিকাণ্ডের দুর্ঘটনা।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and Kolkata news here. You can also read all the Kolkata news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Kestopur shatarupa pally fire

Next Story
সোমবার থেকে বাড়ছে মেট্রো! বদল টাইম টেবিলে, ক’টা থেকে প্রথম ট্রেন?kolkata metro corona
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com