scorecardresearch

বড় খবর

এবার মমতার পাড়ার দুর্গাপুজোর থিম ‘খেলা হবে’, অভিনব ভাবনা উদ্যোক্তাদের

৫৬তম বর্ষে ভবানীপুর দুর্গোৎসব সমিতির এবারের থিম ‘খেলা হবে’।

এবার মমতার পাড়ার দুর্গাপুজোর থিম ‘খেলা হবে’, অভিনব ভাবনা উদ্যোক্তাদের
এবার পুজোর থিমেও খেলা হবে। নেপথ্যে ভবানীপুর দুর্গোৎসব সমিতি।

যে স্লোগানে ভর করে রাজ্যে তৃতীয় বার ক্ষমতায় এসেছে তৃণমূল কংগ্রেস। এবার সেই থিমেই দুর্গাপুজো হচ্ছে কলকাতায়। তাও আবার খোদ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের পাড়াতে। ৫৬তম বর্ষে ভবানীপুর দুর্গোৎসব সমিতির এবারের থিম ‘খেলা হবে’। তবে রাজনৈতিক উদ্দেশে নয়, বরং খেলাধুলাকে জীবনের অন্যতম অঙ্গ হিসাবে তুলে ধরতেই এমন ভাবনা উদ্যোক্তাদের। মুখ্যমন্ত্রীর পাড়ায় এবার খেলার আঙ্গিকে পুজো সাজাচ্ছে এই সর্বজনীন পুজো কমিটি।

দিন ঘোষণা না হলেও মনে করা হচ্ছে, সামনেই উপনির্বাচন রয়েছে ভবানীপুর কেন্দ্রে। বিধায়ক শোভনদেব চট্টোপাধ্যায় ইস্তফা দেওয়ায় এটা আর আলাদা করে বলার দরকার নেই, নিজেপ পুরনো কেন্দ্রে ফের প্রার্থী হবেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কিছুদিন আগেই ১৬ অগস্ট রাজ্যজুড়ে পালিত হয়েছে ‘খেলা হবে’ দিবস। খেলাধুলাকে রাজ্যে সর্বত্র প্রাধান্য দিতেই রাজ্য সরকার এই কর্মসূচি পালন করছে। এবার পুজোর থিমেও ‘খেলা হবে’। নেপথ্যে ভবানীপুর দুর্গোৎসব সমিতি।

থিমের দায়িত্ব যাঁর কাঁধে তিনি হলেন প্রখ্যাত ফ্যাশন ডিজাইনার সৌমেন ঘোষ। বিশ্বভারতীতে অধ্যপনার পাশাপাশি তিনি শিল্পকর্মও করেন। তিনি জানিয়েছেন, খেলা হবে থিম হলেও এর সঙ্গে দূর-দূরান্ত পর্যন্ত রাজনীতির কোনও সম্পর্ক নেই। ভারতের প্রচলিত খেলাধুলার আঙ্গিকে সাজবে পুজো মণ্ডপ। সব খেলার সেরা বাঙালির প্রিয় ফুটবলের বিশেষ জায়গা থাকবে থিমে। দুই চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ক্লাব মোহনবাগান-ইস্টবেঙ্গলের ফুটবলাররা মায়ের মূর্তি কাঁধে করে মণ্ডপে নিয়ে যাচ্ছেন, এমনই দৃশ্য দেখা যাবে পুজোয়। থিমের কাজে তাঁকে সাহায্য করছেন আরেক প্রখ্যাত শিল্পী সুবর্ণা ঘোষ।

শিল্পী দ্য ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা-কে জানিয়েছেন, “করোনা কালে বাচ্চারা খেলাধুলা ছেড়ে অনলাইন গেমে আসক্ত হয়েছে। মাঠে খেলাধুলা তারা ভুলতে বসেছে। তাদের তাই খেলাধুলার গুরুত্ব বোঝাতে চেয়েছি থিমের মধ্যে দিয়ে। পাশাপাশি, খেলাধুলার প্রতি মুখ্যমন্ত্রীর টান-ভালবাসা দেখে এমন ভাবনা মাথায় আসে। তাঁরই পাড়ায় যখন পুজো, তখন খেলাধুলাকে তুলে ধরা যেতে পারে।” উদ্যোক্তাদের তরফে পুজো কমিটির সাধারণ সম্পাদক শুভঙ্কর রায়চৌধুরি বলেছেন, “রাজনীতি নয়, খেলার প্রাসঙ্গিকতা বোঝাতে এই থিম ভাবনা। বাঙালির খেলার প্রতি আদি অকৃত্রিম টান যাতে না কমে তাই সবাইকে এই থিম দিয়ে খেলার প্রতি আকৃষ্ট করার চেষ্টা হচ্ছে এবার।”

আরও পড়ুন পুজোর দায়িত্বে ৪ মহিলা পুরোহিত, কলকাতায় প্রথমবার ‘মায়ের হাতে মায়ের আবাহন’

পুজোয় এবার জ্যাভেলিনে অলিম্পিক সোনাজয়ী সোনার ছেলে নীরজ চোপড়াকে বিশেষ ভূমিকায় দেখা যাবে মণ্ডপে। এছাড়াও বিভিন্ন খেলার সঙ্গে যুক্ত রথী-মহারথীরাও থিমের অংশ হিসাবে থাকছেন। শিল্পীর হাওড়ার মন্দিরতলার ওয়ার্কশপে এখন জোরকদমে কাজ চলছে ইনস্টলেশনের। পুজোয় এবার খেলতে তৈরি হচ্ছেন ভবানীপুরের পুজো কমিটির সদস্যরা। উল্লেখ্য, এই পুজো সমিতির সভাপতি আবার ৭২ নম্বর ওয়ার্ডের কো-অর্ডিনেটর সন্দীপরঞ্জন বক্সি। তিনি আবার রাজ্যসভার সাংসদ তথা তৃণমূলের রাজ্য সভাপতি সুব্রত বক্সির ছোট ভাই।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Kolkata news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Khela hobe theme to be depict in cm mamata banerjees bhawanipore durga puja committee