বড় খবর

মাথায় আঘাত অকেজো করে দিতে পারে গোটা শরীর! মেনে চলুন এই নিয়মগুলি

আঘাত লাগলে এড়াবেন না, চিকিৎসা করান

প্রতীকী ছবি

মাথায় কোনও আঘাত লাগলে তা ভয়ঙ্কর বিপদ জেকে আনতে পারে জীবনে। কথায় বলে, বিপদ জেনে বুঝে আসে না। এবং কিছু কিছু ক্ষেত্রে কিন্তু মস্তিষ্কের আঘাত শারীরিক স্থিতাবস্থাকে নাড়িয়ে দিতে পারে। মানুষ শরীর চালনা করার ক্ষমতা হারাতে পারে। মস্তিষ্ক মানুষের গোটা শরীরকে চালিত করে। সেটি কাজ না করলে ভীষণ মুশকিল। তবে বিশেষজ্ঞ এবং চিকিৎসক তুষাও প্রসাদ বলছেন, বিভিন্ন সময়ে এর প্রতিক্রিয়া কিন্তু আলাদা হয়। সঠিক সময় চিকিৎসা হলে সমাধান হতে পারে। 

ট্রমাটিক ব্রেনের আঘাত কিন্তু নানান কারণে হতে পারে। অনেকের ক্ষেত্রে মাথায় রক্ত জমে থাকতে পারে, আবার কারওর আঘাতের পরিমাণ ফাটল ধরাতে পারে। সম্ভবত রাস্তাঘাটের দুর্ঘটনা অথবা বাচ্চা কিংবা বয়স্কদের ক্ষেত্রে সিঁড়ি থেকে পড়ে যাওয়া কিংবা উঁচু জায়গা থেকে পড়ে যাওয়া ছাড়াও নানানভাবে হতে পারে। খেলাধুলায় বক্সিং, ফুটবল, স্কেট বোটিং এগুলি থেকেও হতে পারে তবে কোনওটির বিষয় থেকেই এড়ানো উচিত নয়। ডক্টর প্রসাদ বলেন যদিও বা ছোটখাট আঘাত থেকে ক্ষতির পরিমাণ কম তারপরেও কঠিন আঘাত থেকে কিন্তু মাথার টিস্যু ছিঁড়ে যাওয়া, ড্যামেজ করে দেওয়া এগুলির মত ক্ষত সৃষ্টি করতে পারে। 

লক্ষণ কী কী দেখা দিতে পারে? 

এর লক্ষণ কিছু ক্ষেত্রে অল্প সময়েই দেখা যায় আবার কিছু ক্ষেত্রে বেশ কদিন সময় লাগে। এক সপ্তাহ কিংবা কয়েকদিন হতে পারে। তবে জোড়ালো আঘাত না হলেও যে বিষয়গুলি লক্ষণীয় তার মধ্যে অত্যধিক মাথা যন্ত্রণা, কথা বলার সমস্যা, শরীরের ভার নিতে না পারা, মাথা ঘোরানো, বমি, সঠিকভাবে হাঁটাচলা না করা, দৃষ্টিশক্তি হ্রাস, অমানসিক আচরণ এবং অদ্ভুত ব্যবহার করা, অবসাদ, উদ্বেগ, স্মৃতি হারিয়ে ফেলা, ঘুমাতে অস্বস্তি, দুর্বলতা এগুলি খুব সাধারণ বিষয়। 

অসুবিধার প্রসঙ্গেই তিনি জানান, এমন সময়ে কিন্তু মানুষের নানান ধরনের সমস্যা দেখা দিতে পারে। তার প্রাণের ঝুঁকি যেমন থাকতে পারে তেমনই মস্তিষ্কের কার্যক্ষমতা কমে যায়, তেমনই সমস্যা হতে পারে মানসিক অবসাদের। অনেক সময় যিনি রোগী তিনি বুঝতেও পারেন না আদৌ তিনি কী পরিস্থিতিতে আছেন, চারিদিকের সবকিছু বুঝে উঠতেই মস্তিষ্কে চাপ পড়ে। অনেকের ব্রেন ডেথ হতে পারে। অনেক সময় ফেসিয়াল প্যারালাইসিস, দুটো দুটো দেখা এমনও হতে পারে। 

কীভাবে এর থেকে রক্ষা সম্ভব? 

গাড়ি চালানোর সময় অবশ্যই সিটবেল্ট পরে নেবেন। বিপদ এড়াতে এটি অবশ্যই করুন। 

  • মদ্যপান করে গাড়ি চালাবেন না। 
  • মোটরবাইক এবং সাইকেল চালানোর সময় হেলমেট অবশ্যই পড়ুন। 
  • বাথরুমে পরে যাওয়া কিংবা সিড়ি থেকে পড়ে যাওয়া থেকে বিরত থাকুন। 
  • তৈলাক্ত জিনিস পড়ে গেলেও সেটিকে মুছে নিন, নয়তো বিপদ। 
  • সিঁড়ি থেকে নামতে গিয়ে হাতল ব্যবহার করুন। 
  • ঘর অন্ধকার রাখবেন না, আলো জ্বালিয়ে রাখুন। 
  • চোখের দৃষ্টি মাঝে মধ্যেই পরীক্ষা করান। 
  • ভিজে মাটিতে হাঁটবেন কিংবা দৌড়বেন না। 

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and Lifestyle news here. You can also read all the Lifestyle news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Brain injury causes life risk have talk with doctor and medicate

Next Story
অফিসের ব্য়স্ততায় ন ঘণ্টা চেয়ারে বসেই ফিট রাখুন নিজেকেA women working in a desk
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com