বড় খবর

ব্রণ-মুক্ত ত্বক পেতে চান? এই খাবারগুলো দারুন কাজ দেবে

খাবারে বদল আনুন, ত্বক এমনই ভাল হবে

প্রতীকী ছবি

ব্রণর সমস্যায় অনেকেই দিনের পর দিন ভুগছেন। একটু তৈলাক্ত স্কিন মানেই, মুখে ফুসকুড়ি, র‍্যাশ এসবের সূত্রপাত। নানান চিকিৎসা পদ্ধতির পরেও কোনওভাবেই কমছে না ব্রণর সমস্যা। অবরুদ্ধ ছিদ্র, পিগমেন্টেশন, ব্রণ বা ত্বক সম্পর্কিত অন্য কোনও সমস্যার সমাধান পেতে কিন্তু শুধু চিকিৎসকের পরামর্শ নয়, দরকার ডায়েটের পরিবর্তন। অভ্যন্তরীণ শারীরিক অবস্থার উন্নতি, এইসব সমস্যা থেকে মুক্তি দিতে পারে।

এই প্রসঙ্গে কী বলছেন বিশেষজ্ঞরা? লক্ষিতা জৈন (প্রত্যয়িত ক্লিনিকাল ডায়েটিশিয়ান, প্রভাষক, ডায়াবেটিস শিক্ষাবিদ) উল্লেখ করেন, লেজার সিস্টেম এবং কোনওরকম কেমিক্যাল প্রসাধনী কিন্তু এর থেকে সুরাহা দেবে না। খাওয়াদাওয়ায় আনতে হবে পরিবর্তন। রক্ত পরিশুদ্ধকরণের মাধ্যমেই ব্রণর সমস্যা থেকে রেহাই পাওয়া সম্ভব। ডায়েটে প্রতিদিন দুটি ফল এবং পাঁচরকম শাক সবজি গ্রহণ করা উচিত। সেলেনিয়াম, জিংক, ওমেগা থ্রি এবং ভিটামিন ই সমৃদ্ধ খাবার যেমন সূর্যমুখী বীজ, পেয়ারা, কিউই, কমলা, ডিম, গম, ডিম, সামুদ্রিক আগাছা এবং মসুর এসব খাওয়া অভ্যাস করতে হবে।

কী কী ধরনের খাবার খাওয়া দরকার?

মাছ- স্যামন, ম্যাকেরেল এবং হেরিংয়ের মতো প্রতি সপ্তাহে তৈলাক্ত মাছের দুটি পরিবেশন আপনাকে উজ্জ্বল ত্বকে সাহায্য করতে পারে। ভিটামিন ই এবং জিঙ্ক সমৃদ্ধ হওয়ার পাশাপাশি মাছ ওমেগা-থ্রি এর সর্বোত্তম উৎস। মাছ খাওয়া ব্রণ এবং লালচে ভাব কমাতে পারে।

উলেখ্য, মাছের তেল কিন্তু দারুণ পরিপূরক হিসেবে কাজ দেয়। পরিষ্কার ত্বক পেতে মাছের তেল খাওয়া আরেকটি দুর্দান্ত উপায়। মাছের বিকল্প হিসেবে ১২০০ মিলিগ্রাম মাছের তেল খাওয়া উচিত।

ফ্ল্যাক্স বীজ– এটি একটি দারুণ নিরামিশ উপাদেয়। ওমেগা থ্রি-র উৎস। এটি জল ধরে রাখার ক্ষমতা রাখে এবং আপনাকে ত্বকের আর্দ্রতা ধরে রাখে। দিনে দুই চা চামচ শণ বীজ ( Flaxseeds) খাওয়া ব্রণ কমাতে সাহায্য করে, এমনকি ত্বকের টোনও দূর করে এবং স্বাস্থ্যকর উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি করে।

টম্যাটো– টম্যাটো লাইকোপিন সমৃদ্ধ। ত্বকে পিগমেন্টেশন বাড়াতে সাহায্য করতে পারে, এটি খাদ্য হিসেবেও বেশ উপকারি, ত্বক হাইড্রেটেড এবং উজ্জ্বল রাখে। ব্লেন্ড করা নারকেলের সঙ্গে প্রতিদিন একটি করে টম্যাটো খান। এটি আপনার ত্বককে এক সপ্তাহের মধ্যে উজ্জ্বল করবে।

লেবুর সরবত– এটি ত্বকের ৯০ শতাংশ সমস্যার সমাধান করবে। দুই গ্লাস চিনিবিহীন লেবু জল ত্বক পরিষ্কার করতে সাহায্য করে। বিকল্প হিসেবে নারকেল জলও খেতে পারেন।

কোলাজেন সমৃদ্ধ খাবার- কোলাজেন সমৃদ্ধ খাবার খাওয়া ত্বকের ক্ষেত্রে দরকারি। ধূমপান, দূষণ এবং অতিবেগুনি রশ্মি ত্বকের কোলাজেন ধ্বংস করতে পারে যার ফলেই স্কিন ধীরে ধীরে নিস্তেজ হতে থাকে। প্রাকৃতিক কোলাজেন সমৃদ্ধ খাবার যেমন মাছ, মুরগি, ডিমের সাদা অংশ, সাইট্রাস ফল, বেরি, লাল এবং হলুদ সবজি এবং রসুন যোগ করুন। গবেষণায় দেখা গেছে যে, ক্লোরোফিল সমৃদ্ধ খাবার যেমন গম গ্রাস, পালং শাক, বার্লি বীজ এবং আলফালফা যোগ করলে ত্বকের কোলাজেন বৃদ্ধি পেতে পারে।

তাই ক্রিম আর প্রসাধনী নয়, প্রতিদিনের খাবার বদলান সঙ্গে নিজের ত্বক মসৃণ এবং সুন্দর রাখুন।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and Lifestyle news here. You can also read all the Lifestyle news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Get pimple free skin with these tips and foods

Next Story
কোভিড ভ্যাকসিন কি কমাতে পারে মানসিক চাপ? কী বলছে গবেষণা
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com