বড় খবর

আপনিও মূল্যবান সময় নষ্ট করছেন না তো? মিলিয়ে দেখুন তালিকাটা

ভবিষ্যতে ‘যা হবে দেখা যাবে’ গোছের মনোভাব নিয়ে বর্তমানে সময়টা নষ্ট করেন বেশ কিছু মানুষ। আপনিও সেই দলে নেই তো? মিলিয়ে দেখুন তালিকাটা, আর আজই বদলে ফেলুন বদঅভ্যাসগুলো।

facebook-addiction-thinkstock-2
অকারণ সময় নষ্ট না করে কাজে মন দিন।

ছোটবেলায় স্কুলে শেখানো হয় সময়ের সঠিক ব্যবহারের কথা। এরপর বড় হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে আমাদের চারপাশের অবস্থার পরিবর্তন হয়। কেউ ছোটবেলার শিক্ষা মনে রাখেন, কেউ ভুলে গিয়ে জীবনযাপন করেন। বর্তমানে র‌্যাট-রেসের যুগে প্রতিযোগিতায় পা মেলান অনেকেই। তবে একদলের সেসবে বিন্দুমাত্র ভ্রুক্ষেপ থাকে না। অলস জীবনযাপনই পছন্দ করেন তাঁরা। বোকাবাক্স বা গালগল্প নিয়ে সময় কাটান। ভবিষ্যতে ‘যা হবে দেখা যাবে’ গোছের মনোভাব নিয়ে বর্তমানে সময়টা নষ্ট করেন বেশ কিছু মানুষ। আপনিও সেই দলে নেই তো? মিলিয়ে দেখুন তালিকাটা, আর আজই বদলে ফেলুন বদঅভ্যাসগুলো।

অনেকেই সারাদিনটা বিভিন্ন অপ্রয়োজনীয় কাজে অপচয় করেন। যেমন ঘণ্টার পর ঘণ্টা ভিডিও গেম খেলা, টিভি দেখা, অসময়ে ছুটি কাটানো ইত্যাদি। এই ধরনের কাজে সময় নষ্ট করার ফলে তাঁরা আসল কাজে মন দিতে পারেন না। তা সে পড়াশোনাই হোক বা অফিসের কাজ। মনে রাখতে হবে প্রতিটা মুহূর্তই ভীষণ প্রয়োজনীয়। তাই সময় নষ্ট করে ভবিষ্য়ত জীবনের ক্ষতি না করে সময়কে কাজে লাগান।

আরও পড়ুন: নিয়মিত শরীরচর্চা করে হয়ে যান এভারগ্রিন

খেয়াল রাখুন, শরীরের পাশাপাশি আপনার মস্তিষ্কেও সঠিক খাবার পৌঁছাচ্ছে কিনা। আসলে আমাদের শরীরের যেমন খাদ্য প্রয়োজন, ঠিক সেভাবেই আমাদের মস্তিষ্কেরও খাদ্যের প্রয়োজন। অর্থাৎ মনে রাখতে হবে জানার কোনও শেষ নেই। কাজেই আপনি যদি মনে করেন আপনি সবজান্তা সে ক্ষেত্রেও আপনি আদতে নিজের ক্ষতিই করছেন। জ্ঞানের পরিধি বাড়ান, নতুন কিছু জানার চেষ্টা করুন, শিখুন, বই পড়ুন, শিক্ষামূলক সিনেমা দেখতে পারেন। কারণ মস্তিষ্ক অলস হয়ে গেলে তা অকেজো হয়ে পড়ে।

অকারণ অভিযোগ করা মোটেও সুন্দর ভবিষ্যতের লক্ষণ নয়। অনেকেই আছেন যাঁরা সব পরিস্থিতিতে মনে করেন যে তাঁর সামনে মানুষটারই যত দোষ। এই দলে যদি আপনিও থাকেন, সারাদিন অভিযোগ অজুহাতেই যদি আপনার দিন কাটে সে ক্ষেত্রে কিন্তু আপনাকে আজই সতর্ক হতে হবে। বুঝতে হবে যে সমস্যা আপনার আশেপাশের মানুষদের মধ্যে নেই, সমস্যাটা রয়েছে আপনার মধ্যেই।

ভবিষ্যত সম্পর্কে নির্লিপ্ত থাকা একেবারেই বোকামি। যা হবে দেখা যাবে গোছের মনোভাব থাকলে অনেক সমস্যা তৈরি হয়ে থাকে। কাজেই ভবিষ্যত কীভাবে সুন্দর হবে সে নিয়েও ভাবতে হবে। ভবিষ্যত পরিকল্পনা করতে হবে সময় থাকতেই। সুতরাং বর্তমান সময়কে সঠিক ভাবে ব্যবহার না করলে যা কখনই সম্ভব নয়।

বর্তমানে স্মার্টফোনের প্রতি আসক্তি আমাদের মস্তিষ্ক অকেজো করে দেয়। কাজের মধ্যে ঘন ঘন ফেসবুক হোয়াটসঅ্যাপে ঢুঁ মারতে গিয়ে সারাদিনের অনেকটা মূল্যবান সময় নিজের অজান্তেই আপনি সময় নষ্ট করেন।

Web Title: Igns you are wasting your life but you can not admit it

Next Story
ঘন ঘন জলপান কিন্তু ডেকে আনতে পারে বিপদdrinking water
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com