scorecardresearch

বড় খবর

‘আজম খানের পাশে রয়েছে দল’, বিরোধীদের স্পষ্ট বার্তা অখিলেশের

সম্প্রতি জেলবন্দি সপা নেতা আজম খানের সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলেন কংগ্রেস ও বিজেপি-র বেশ কয়েকজন নেতা।

‘আজম খানের পাশে রয়েছে দল’, বিরোধীদের স্পষ্ট বার্তা অখিলেশের
আজমের পাশে আছে দল, জানালেন অখিলেশ।

জেলবন্দি আজম খানের পাশে রয়েছে দল, বার্তা সমাজবাদী পার্টির প্রধান অখিলেশ যাদবের। জেলে আজম খানের সঙ্গে যাঁরা যাঁরা দেখা করতে গিয়েছিলেন তাঁদের ভূমিকা নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন সপা সুপ্রিমো।

জেলবন্দি সপা নেতা আজম খান সম্পর্কে বলতে গিয়ে অখিলেশ বলেন, ”সমাজবাদী পার্টি তাঁর (আজম খান) সঙ্গে আছে। প্রথম দিন থেকেই আমাদের দল তাঁর পাশে দাঁড়িয়েছে। এব্যাপারে যাঁরা প্রশ্ন তুলছেন তাঁদেরই জিজ্ঞাসা করা উচিত, যে যখন বিজেপি এবং কংগ্রেস তাঁর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করতে শুরু করেছিল তখন তাঁরা কোথায় ছিলেন। কোথায় ছিলেন বিজেপির বড় নেতারা? কোথায় ছিলেন কংগ্রেসের বড় নেতারা? আজ যাঁরা কথা বলছেন তাঁরা নিজেদেরকে প্রশ্ন করুন তখন তাঁরা কোথায় ছিলেন? যিনি মামলা করছেন, আমি তাঁর সঙ্গেও কথা বলেছি। আমি জিজ্ঞেস করেছিলাম, এত বড় নেতাকে কেন হয়রানি করছেন?”

সম্প্রতি, আজম খানের ঘনিষ্ঠ সহযোগী ফাসাহাত আলি খান অখিলেশের বিরুদ্ধে দলের প্রাক্তন সাংসদকে উপেক্ষা করা এবং মুসলিম সম্প্রদায়ের বিষয়ে নীরব থাকার অভিযোগ তুলেছিলেন। এর পরপরই কংগ্রেস, বিজেপির কয়েকজন নেতা সীতাপুর জেলে যান। সেখানেই বর্তমানে বন্দি রয়েছেন আজম খান।

সপা-র বন্ধু দল আরএলডি-র প্রধান জয়ন্ত চৌধুরিও আজমের স্ত্রী এবং ছেলের সঙ্গে দেখা করতে রামপুরে গিয়ে অনেককে অবাক করে দিয়েছিলেন। আজম খান নিজেও সম্প্রতি জেলে এসপি বিধায়ক রবিদাস মেহরোত্রার সঙ্গে দেখা করতে অস্বীকার করেছিলেন। অখিলেশই তাঁকে আজম খানের সঙ্গে দেখা করতে পাঠিয়েছিলেন। যদিও অখিলেশ নিজে যাননি।

আরও পড়ুন- ‘বকেয়া মেটান, ৫ বছর পেট্রোল-ডিজেলে সব কর ছাড় দেবে রাজ্য’, মোদীকে বার্তা তৃণমূলের

এদিকে, সোমবার কায়সারগঞ্জ (বাহরাইচ জেলা)-এর বিজেপি নেতা ব্রিজ ভূষণ শরণ সিং সবাইকে অবাক করে দিয়ে আজমকে “জননেতা” বলে অভিহিত করেছিলেন। সুযোগ পেলে জেলে তিনিও আজমের সঙ্গে দেখা করতে যেতে পারেন বলে জানিয়েছিলেন। যদিও ব্রিজ ভূষণ শরন সিংয়ের সেই মন্তব্য নিয়ে পাল্টা প্রতিক্রিয়া দেয়নি গেরুয়া শিবির।

অন্যদিকে, কাকা শিবপাল যাদব প্রসঙ্গেও সুর চড়িয়ে অখিলেশের মন্তব্য, ”বিজেপি যদি কাকাকে দলে নিতে চায় তাহলে দেরি করছে কেন? আপনারা নিজেই ভাবুন। ভাবা উচিত এর পিছনে কারণগুলি কী হতে পারে।” ভাইপোর এই টিপ্পনির জবাব দিয়েছেন বর্ষীয়ান রাজনীতিবিদ শিবপালও। অখিলেশের তাঁকে নিয়ে করা মন্তব্যকে দায়িত্বজ্ঞানহীন বলে পাল্টা মন্তব্য করেছেন বর্ষীয়ান এই রাজনীতিবিদ।

সপা প্রধানের নিশানা থেকে বাদ পড়েননি উত্তর প্রদেশের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা বসপা প্রধান মায়াবতীও। বহেনজিকে বিঁধে অখিলেশ বলেন, ”সাম্প্রতিক নির্বাচনে দলের ভোট বিজেপিতে স্থানান্তর করেছেন তিনি। বিজেপি তাঁকে এখন দেশের রাষ্ট্রপতি করার জন্য অপেক্ষা করছে।”

Read story in English

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Politics news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Akhilesh yadav slams rivals says party has always stood with azam khan