scorecardresearch

ভোটের জন্য হায়দরাবাদের ভারতভুক্তি উদযাপনে অনেকে ভয় পান, চন্দ্রশেখরকে কটাক্ষ শাহর

পালটা চন্দ্রশেখর রাও জনগণকে ‘ইতিহাস বিকৃত করার ষড়যন্ত্র’ থেকে সতর্ক থাকার আহ্বান জানিয়েছেন।

ভোটের জন্য হায়দরাবাদের ভারতভুক্তি উদযাপনে অনেকে ভয় পান, চন্দ্রশেখরকে কটাক্ষ শাহর
হায়দরাবাদের ভারতভুক্তি পালন

ভারতে হায়দরাবাদের অন্তর্ভুক্তির ৭৫ বছর উপলক্ষে শনিবার শহরে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ ও তেলেঙ্গানার মুখ্যমন্ত্রী কে চন্দ্রশেখর রাও আলাদা অনুষ্ঠানে যোগ দিলেন। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ, ‘হায়দরাবাদ মুক্তি দিবস’ উপলক্ষে প্যারেড গ্রাউন্ডে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেন। বলে তিনি জানান, স্বাধীন ভারতের প্রথম স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সর্দার বল্লভভাই প্যাটেল না-থাকলে নিজামের শাসন থেকে হায়দরাবাদকে মুক্ত করতে আরও অনেক বছর লেগে যেত। পালটা, তেলেঙ্গানার মুখ্যমন্ত্রী কে চন্দ্রশেখর রাও এই বিশেষ দিনের উপলক্ষে ‘তেলেঙ্গানা জাতীয় সংহতি দিবস’ পালন করেন। একইসঙ্গে তিনি জনগণকে ‘ইতিহাস বিকৃত করার ষড়যন্ত্র’ থেকে সতর্ক থাকার আহ্বান জানান।

এই বিতর্কে ক্ষমতাসীন তেলেঙ্গানা রাষ্ট্রীয় সমিতি দলকে কটাক্ষ করে শাহ বলেন, ‘এত বছর পর, হায়দরাবাদের স্বাধীনতাকে রাষ্ট্রীয় পৃষ্ঠপোষকতায় উদযাপন করার দাবি জনগণ তুলেছে। কিন্তু, দুর্ভাগ্যবশত যে স্বাধীনতার ৭৫ বছর পেরিয়ে এলেও যাঁরা এই অঞ্চল শাসন করেছেন, তাঁরা ভোটব্যাংকের রাজনীতির কারণে হায়দরাবাদের স্বাধীনতা দিবস উদযাপনের সাহস দেখাতে পারেননি।’
কেন্দ্রীয় পর্যটন ও সংস্কৃতি মন্ত্রক আয়োজিত শাহের অনুষ্ঠানে আমন্ত্রিত ছিলেন মুখ্যমন্ত্রী চন্দ্রশেখর রাও। তিনি অবশ্য অনুষ্ঠানটি এড়িয়ে যান। বদলে কয়েক কিলোমিটার দূরে পাবলিক গার্ডেনসে তিরঙ্গা উত্তোলন করেন।

এই প্রসঙ্গে শাহ বলেন, ‘নির্বাচনী প্রচারের সময় যারা প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল, তারা (টিআরএস) কিন্তু ক্ষমতায় আসার সঙ্গে সঙ্গেই রাজাকারদের ভয়ে প্রতিশ্রুতির কথা ভুলে গিয়েছে।’ প্রসঙ্গত, রাজাকাররা ছিল মুসলিম আধাসামরিক স্বেচ্ছাসেবক বাহিনী। তারা নিজামের জমানায় সক্রিয় ছিল। মহাত্মা গান্ধীর কল্পনাপ্রসূত অখণ্ড ভারতের স্বপ্ন পূরণের জন্য সর্দার প্যাটেলের সংকল্পের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করেন শাহ।

আরও পড়ুন- কংগ্রেসের মুখ্যমন্ত্রী বাঘেলের আমন্ত্রণে ছত্তিশগড়ে মন্দির পরিদর্শন ভাগবতের, ফাঁপড়ে বিজেপি নেতৃত্ব

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র্মন্ত্রী বলেন, ‘আজ একটি ঐতিহাসিক দিন। ভারত ১৫ আগস্ট, ১৯৪৭-এ স্বাধীনতা লাভ করেছে। কিন্তু, হায়দরাবাদ নিজামের অধীনে থেকে গিয়েছিল। পরবর্তী ১৩ মাস হায়দরাবাদ রাজ্যের মানুষ রাজাকারদের দ্বারা আতঙ্কিত ছিল। এই দিনে আমাদের অবশ্যই সর্দার বল্লভভাই প্যাটেলের ভূমিকা স্মরণ করতে হবে। তিনি জানতেন, রাজাকাররা শাসন করলে হায়দরাবাদ রাজ্য ভারতীয় যুক্তরাষ্ট্রে যোগ দেবে না এবং অখণ্ড ভারত (অবিভক্ত ভারত)-এর স্বপ্ন পূরণ হবে না। সর্দার প্যাটেল না-থাকলে হায়দরাবাদ মুক্ত হতে আরও অনেক বছর লেগে যেত। সর্দার প্যাটেলই পুলিশি অ্যাকশনের মাধ্যমে নিজামের সেনাবাহিনী এবং রাজাকারদের পরাজিত করেছিলেন।’

শাহর এই অনুষ্ঠানে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী জি কিষাণ রেড্ডি, মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী একনাথ শিণ্ডে ও কর্ণাটকের পরিবহণমন্ত্রী বি শ্রীরামুলু উপস্থিত ছিলেন। শুধু বল্লভভাই প্যাটেলই নন। শাহ ‘হায়দরাবাদ মুক্তি দিবস’ উদযাপনের জন্য প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর গৃহীত সিদ্ধান্তকেও কৃতিত্ব দিয়েছেন। শাহর মতে, ‘প্রধানমন্ত্রীর, এই সিদ্ধান্ত সমস্ত দল অনুসরণ করতে বাধ্য হয়েছে। অবশ্য তারা উদযাপন করলেও এখনও এই দিনটিকে মুক্তি দিবস বলতে ভয় পাচ্ছে। আমি তাঁদের নির্ভীক হওয়ার কথা বলতে চাই। কারণ, স্বাধীনতার ৭৫ বছর হয়ে গেছে। এখন রাজাকাররা এদেশে সিদ্ধান্ত নিতে পারে না।’

Read full story in English

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Politics news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Amit shah says that many fear celebrating hyderabad liberation