বড় খবর

খুনের ষড়যন্ত্র করছে বিজেপি, বিস্ফোরক ত্রিপুরার কংগ্রেস সভাপতি

তাঁকে খুন করার ষড়যন্ত্র করছে বিজেপি, মঙ্গলবার এমনই অভিযোগ তুলেছেন বিরাজিত। শুধু রাজ্যের শাসকদলই নয়, ডিজিপি-র বিরুদ্ধেও আঙুল তুলেছেন ওই কংগ্রেস নেতা।

birajit sinha, বিরাজিত সিনহা
প্রদেশ কংগ্রেস ভবনে বিরাজিত সিনহা। ছবি: ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস।

ত্রিপুরায় বিজেপির বিরুদ্ধে চাঞ্চল্যকর অভিযোগ তুললেন সে রাজ্যের প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি বিরাজিত সিনহা। তাঁকে খুন করার ষড়যন্ত্র করছে বিজেপি, মঙ্গলবার এমনই অভিযোগ তুলেছেন বিরাজিত। শুধু রাজ্যের শাসকদলই নয়, ডিজিপি-র বিরুদ্ধেও আঙুল তুলেছেন ওই কংগ্রেস নেতা। তাঁর অভিযোগ, প্রত্যন্ত গ্রামে যাওয়ার জন্য তিনি পুলিশি নিরাপত্তা চেয়েছিলেন, কিন্তু তা পুলিশের তরফে মঞ্জুর করা হয়নি।

এদিন প্রদেশ কংগ্রেস ভবনে বিরাজিত সিনহা বলেন,‘‘যদি আমার কিছু হয়, তবে তার জন্য দায়ী থাকবেন ডিজিপি।’’ ওই কংগ্রেস নেতা আরও বলেন যে, এ বছরের সেপ্টেম্বরে পঞ্চায়েত উপনির্বাচনে পশ্চিম ত্রিপুরার ঢালাই জেলা ও ডুকলিতে তিনি হেনস্থার শিকার হয়েছেন বলে। তিনি বলেন,‘‘প্রত্যন্ত গ্রামে যেতে আমায় বাধা দিয়েছিলেন বিজেপি সমর্থকরা। রাস্তা আটকে দিয়েছিলেন ওঁরা। আমার গাড়িতে হামলা চালিয়েছিলেন, এটা স্পষ্টতই যে, আমায় খুন করার উদ্দেশ্য ছিল। একইরকম ঘটনা ঘটেছিল ডুকলিতে। দুটি ঘটনাতেই অভিযোগ দায়ের করেছিলাম। কিন্তু কেউই গ্রেফতার হয়নি।’’

আরও পড়ুন, জাতীয় নিরাপত্তা আইনে ধৃত ত্রিপুরার বিজেপি নেতা

তাঁর দলের বিরুদ্ধে এহেন অভিযোগ ওঠায়, মুখ খুলেছেন বিজেপি মুখপাত্র ড. অশোক সিনহা। তিনি বলেন যে, জনগণের আস্থা হারিয়েছে কংগ্রেস। তাই রাজ্যে তাঁদের অস্তিত্ব যে রয়েছে তা জানাতে ভিত্তিহীন দাবি করছে। উল্লেখ্য, প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা বিরোধী নেতা মানিক সরকারও এরকম ঘটনার সম্মুখীন হয়েছিলেন বলে জানা গিয়েছে। গত জুলাইয়ে ঢালাই জেলায় তিনিও এমন বিক্ষোভের মুখে পড়েছিলেন।

এমন অভিযোগ প্রসঙ্গে বিরাজিত সিনহা আরও বলেন যে, বিরোধীদের কন্ঠরোধ করছে বিজেপি-আইপিএফটি সরকার। তিনি বলেন,‘‘অতীতে আমরা অন্য সরকার দেখেছি। কিন্তু আগে কখনও এমন ভাবে আমাদের উপর হামলা চালানো হয়নি।’’

Read the full story in English

Web Title: Bjp conspiring to kill me tripura congress chief

Next Story
খোল করতালে বিপুল টাকা ব্যয় অনুব্রতর, তৃণমূলের প্রচারে কীর্তনীয়ারা
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com