বড় খবর

অন্ধ্রপ্রদেশের বিশেষ মর্যাদার দাবিতে অনশন, নাইডুর পাশে রাহুল, মনমোহন

লোকসভার আগে দেশের অন্যতম বিরোধী নেতার কেন্দ্রের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ বিক্ষোভের প্রভাব পড়তে পারে ভোট ব্যাঙ্কে। সেরকমই বলছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা।

chandrababu naidu
গত সপ্তাহেই মমতার ধর্না মঞ্চে দেখা গিয়েছিল চন্দ্রবাবুকে

কেন্দ্রের বিরুদ্ধে চন্দ্রবাবু নাইডুর প্রতিবাদে সমর্থন জানিয়ে অনশন মঞ্চে এলেন রাহুল গান্ধী, মনমোহন সিং। প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং দিল্লির অনশন মঞ্চে এসে নাইডুর সমর্থনে বলেন, “অবিলম্বে অন্ধ্রপ্রদেশকে বিশেষ মর্যাদা দেওয়া হোক”। প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী আরও বলেন, “সংসদে যখন বিষয়টি নিয়ে আলোচনা হয়েছিল, সবাই সমর্থন জানিয়েছিল”।

কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী অনশন মঞ্চে এসে ফের নিশানা করলেন মোদীকে। বললেন, “অন্ধ্রপ্রদেশের মানুষের কাছ থেকে টাকা নিয়ে অনীল আম্বানি কে দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। যেখানেই যান মোদী, সেখানেই মিথ্যে কথা বলেন। অন্ধ্রপ্রদেশের বিশেষ মর্যাদা নিয়ে মিথ্যে কথা বলেন। উত্তরপূর্ব ভারতে গিয়ে অন্য কোনো মিথ্যে বলেন। প্রধানমন্ত্রীর কোনও বিশ্বাসযোগ্যতাই নেই”।

সপ্তাহ খানেক আগে কলকাতার নগরপালের বাড়িতে সিবিআই হানা নিয়ে প্রশাসনের বিরুদ্ধে ধর্নায় বসেছিলেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মমতার পাশে আছেন, বোঝাতে ধর্না মঞ্চে ছুটে এসেছিলেন চন্দ্রবাবু নাইডু। সপ্তাহ ঘুরতে না ঘুরতেই রাজধানীতে অনশনে বসলেন অন্ধ্রপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী নিজেও। তাঁর রাজ্যকে বিশেষ মর্যাদা দিতে হবে, এই দাবিতে অনশনে বসলেন নাইডু।

“রাজধর্ম পালন করছে না কেন্দ্রের সরকার”, সোমবার অনশন মঞ্চ থেকে বললেন নাইডু। বিশেষ মর্যাদার প্রতিশ্রুতি দেওয়া হলেও তা পায়নি অন্ধ্রপ্রদেশ। এই রাজ্যের সঙ্গে চূড়ান্ত অন্যায় হয়েছে”, বললেন নাইডু।

মোদীর উদ্দেশে চন্দ্রবাবুর বার্তা, “আপনাকে স্পষ্ট জানিয়ে দিচ্ছি, আমাই আমার রাজ্যের ৫ কোটি মানুষের প্রতিনিধি হিসেবে এখানে এসেছি। আমাকে কিমবা আমার রাজ্যের মানুষকে ব্যক্তিগত আক্রমণ করবেন না। রাজ্যের প্রধান হিসেবে আমি আমার কর্তব্য পালন করছি। আমাদের যা যা প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছিল, তাই-ই দাবি করছি”।

আরও পড়ুন, মেট্রো চ্যানেলে মুকুলের ধর্না, ‘অনুমতি না পেলে আদালতে যাব’

রাজঘাটে গান্ধীমূর্তিতে শ্রদ্ধা জানিয়ে সোমবার দিল্লির অন্ধ্রপ্রদেশ ভবনে অনশন শুরু করলেন মুখ্যমন্ত্রী নাইডু। কেন্দ্রের বিরোধী নেতারা নাইডুকে সমর্থন জানিয়ে অনশন মঞ্চে উপস্থিত থাকতে পারেন বলেই মনে করছে রাজনৈতিক মহল। মঙ্গলবার দেশের রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দের কাছে একটি মেমোরেন্ডাম জমা দেবেন টিডিপি নেতা।

লোকসভার আগে দেশের অন্যতম বিরোধী নেতার কেন্দ্রের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ বিক্ষোভের প্রভাব পড়তে পারে ভোট ব্যাঙ্কে। সেরকমই বলছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা।

২০১৮ সালের মার্চ মাসেই এনডিএ জোট থেকে বেরিয়ে আসে টিডিপি। তার পেছনেও রয়েছে অন্ধ্রপ্রদেশকে বিশেষ মর্যাদা না দেওয়া নিয়ে তৈরি হওয়া অসন্তোষ। মুখ্যমন্ত্রীর দাবি, তেলেঙ্গানা এবং অন্ধ্রপ্রদেশ ভাগ হয়ে যাওয়ার সময়  অন্ধ্রপ্রদেশ রেজিস্ট্রেশন অ্যাক্ট, ২০১৪ অনুযায়ী মনমোহন সিং সরকার আশ্বাস দিয়েছিল এই রাজ্যকে বিশেষ মর্যাদা দেওয়া হবে। মোদী সরকার ক্ষমতায় এসে নাকচ করে দেয় সেই প্রস্তাব। কারণ স্বরূপ বলা হয় ১৪ তম কমিশনে সেরকম কোনো শর্তের উল্লেখ নেই।

Read the full story in English

 

Get the latest Bengali news and Politics news here. You can also read all the Politics news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Chandrababu naidu fast in delhi andhra cm reiterates demand for special category status

Next Story
মেট্রো চ্যানেলে মুকুলের ধর্না, ‘অনুমতি না পেলে আদালতে যাব’Mamata mukul
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com