scorecardresearch

বড় খবর

সংরক্ষণের রাজনীতিতে হাত পাকাতে মরিয়া কংগ্রেস, মহিলা সংরক্ষণ বিলে সংশোধন দাবি

লোকসভা এবং রাজ্য বিধানসভায় মহিলাদের জন্য এক-তৃতীয়াংশ আসন সংরক্ষিত করার জন্য মহিলা সংরক্ষণ বিলটি ২০১০ সালে রাজ্যসভায় পাস হয়েছিল কিন্তু ইউপিএ সরকার সমাজবাদী পার্টির মুলায়ম সিং যাদব, রাষ্ট্রীয় জনতা দলের প্রবল বিরোধিতার কারণে এগিয়ে নিতে যেতে পারেনি।

sonia_gan

দলের ভোটব্যাংক পুনরুদ্ধারে দলিত, উপজাতি, ওবিসি ও সংখ্যালঘুদের ওপর ভরসা রাখছে কংগ্রেস। এই সব শ্রেণির সমর্থন পুনরুদ্ধারে এবার সংরক্ষণের রাজনীতিকে দল হাতিয়ার করতে চলেছে। এই লক্ষ্যে এবার বেসরকারি চাকরির ক্ষেত্রে এসসি, এসটি এবং ওবিসিদের জন্য সংরক্ষণ দাবি করতে চলেছে দল। শুধু তাই নয়, সংসদ এবং বিধানসভায় ওবিসিদের জন্য সংরক্ষণের দাবিও তুলতে চলেছেন কংগ্রেস নেতৃত্ব। রাজস্থানের উদয়পুরে দলের তিন দিনের চিন্তন বৈঠকে আলোচনায় উঠেছে মহিলা সংরক্ষণ বিলের প্রসঙ্গ। এই বিলে এসসি, এসটি, ওবিসি এবং মুসলিমদের জন্য সংরক্ষণ নিয়ে আলোচনা হয়েছে। গত কয়েক বছর ধরেই ঝুলে আছে মহিলা সংরক্ষণ বিল।

লোকসভা এবং রাজ্য বিধানসভায় মহিলাদের জন্য এক-তৃতীয়াংশ আসন সংরক্ষিত করার জন্য মহিলা সংরক্ষণ বিলটি ২০১০ সালে রাজ্যসভায় পাস হয়েছিল কিন্তু ইউপিএ সরকার সমাজবাদী পার্টির মুলায়ম সিং যাদব, রাষ্ট্রীয় জনতা দলের প্রবল বিরোধিতার কারণে এগিয়ে নিতে যেতে পারেনি। লালুপ্রসাদ যাদব ও তৎকালীন সংযুক্ত জনতা দলের প্রধান শরদ যাদব মহিলা সংরক্ষণ বিলে এসসি, এসটি, ওবিসি এবং সংখ্যালঘুদের জন্য ‘কোটার মধ্যে কোটা’ দাবি করেছিলেন। যদিও সেই সময় কংগ্রেস সেই দাবি মানেনি। কিন্তু, বর্তমান রাজনৈতিক পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে দল এখন আগের অবস্থান থেকে ১৮০ ডিগ্রি ঘুরে গিয়েছে।

কারণ, এই ১২ বছরে কংগ্রেসের ভোটব্যাংক রীতিমতো চুপসে গিয়েছে। নির্বাচনী প্রভাব কার্যত নেই বললেই চলে। এই কারণে এখন দল অবস্থান পরিবর্তন করতে বাধ্য হয়েছে। উদয়পুরের চিন্তন শিবিরে, কংগ্রেস সভাপতির গড়ে দেওয়া সামাজিক ন্যায়বিচার কমিটি তাদের প্রস্তাব পেশ করেছে। সলমন খুরশিদের নেতৃত্বাধীন এই কমিটি নারী সংরক্ষণ বিলে কোটার দাবি জানিয়েছে। রবিবার তিন দিনের চিন্তন বৈঠক শেষে দল যে উদয়পুর ঘোষণাপত্র গ্রহণ করবে, তাতে খুরশিদদের এই দাবির প্রতিফলন থাকতে পারে।

আরও পড়ুন- ঘুরে দাঁড়াতে কৌশল কংগ্রেসের, দলে বাড়ছে তপশিলি জাতি-উপজাতি, অনগ্রসর, সংখ্যালঘু সংরক্ষণ

দলের সামাজিক ন্যায়বিচার কমিটির অন্যতম সদস্য কংগ্রেস নেতা কে রাজু বলেন, ‘সামাজিক ন্যায়বিচার প্যানেল চায় কংগ্রেস একটি অবস্থান নিক। সমস্ত সম্প্রদায়ের জাতিভিত্তিক আদমশুমারি অনুযায়ী তপশিলি জাতি-উপজাতিদের জন্য কেন্দ্রীয় এবং রাজ্যস্তরে সংরক্ষণের ব্যবস্থা করুক। দলের উচিত মহিলা সংরক্ষণ বিল পাসের জন্য চাপ দেওয়া, যেখানে কোটার মধ্যে কোটা থাকবে। মহিলা সংরক্ষণ বিলে এসসি, এসটি এবং ওবিসি মহিলাদের আনুপাতিক প্রতিনিধিত্ব থাকা উচিত।’

Read story in English

Stay updated with the latest news headlines and all the latest National news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Cong want quota within women reservation bill