বড় খবর


‘মহাত্মা গান্ধী সবচেয়ে বড় আন্দোলনজীবী’, প্রধানমন্ত্রীকে খোঁচা পি চিদম্বরমের

যদিও প্রধানমন্ত্রীর এই ‘আন্দোলনজীবী’ মন্তব্যকে কটাক্ষের সুরে বিঁধেছে আন্দোলনরত কৃষকরা।

প্রধানমন্ত্রীর ‘আন্দোলনজীবী’ খোঁচাকে বুধবার কটাক্ষের সুরে বিঁধেছেন পি চিদম্বরম। এদিন টুইটে প্রাক্তন অর্থমন্ত্রী বলেন, “আমি আন্দোলনজীবী হিসেবে গর্বিত। সবচেয়ে বড় আন্দোলনজীবী ছিলেন মহাত্মা গান্ধী।” সোমবার রাজ্যসভায় রাষ্ট্রপতি ভাষণের ওপর ধন্যবাদ জ্ঞাপন বক্তব্য পেশ করেন প্রধানমন্ত্রী। সেই ভাষণে তিনি বলেন, ‘দেশে এখন নতুন ধরনের মানুষের উদয় হয়েছে। ওরা আন্দোলনজীবী। কখনও আইনজীবীদের আন্দোলনে এদের দেখা যায়। কখনও পড়ুয়াদের আন্দোলনে, কখনও বা শ্রমিকদের আন্দোলনে এদের দেখতে পাওয়া যায়। কখনও সামনে এসে এরা আন্দোলন করে, কখনও বা নেপথ্যে থেকে আন্দোলন করে। এরা প্রতিবাদ-বিক্ষোভ ছাড়া থাকতে পারে না। আমাদের এঁদেরকে চিহ্নিত করতে হবে যাঁরা সবসময় মতাদর্শ নিয়ে বক্তব্য দিয়ে অপরকে ভুল পথে চালিত করে।’

যদিও প্রধানমন্ত্রীর এই ‘আন্দোলনজীবী’ মন্তব্যকে কটাক্ষের সুরে বিঁধেছে আন্দোলনরত কৃষকরা। তাঁদের মন্তব্য, ‘এই আন্দোলনে সবচেয়ে বেশী অবদান পাঞ্জাবের কৃষকদের। কিন্তু গোটা ভারতের  কৃষকদের জন্য আমাদের এই আন্দোলন। তবে আমরা প্রধানমন্ত্রীকে স্মরণ করিয়ে দিতে চাই এই আন্দোলনের জন্য ব্রিটিশ সাম্রাজ্যবাদ দেশ থেকে বিদায় নিয়েছিল। তাই আমরা গর্বিত আন্দোলনজীবী।

এদিকে, কৃষকদের আন্দোলনের পক্ষে জনমত গড়ে তোলা ১২০০ টুইটার অ্যাকাউন্ট ব্লক করতে নোটিস পাঠায় কেন্দ্র। কেন্দ্রীয় তথ্য ও প্রযুক্তি মন্ত্রক ১২০০ অ্যাকাউন্টের নতুন তালিকা টুইটারকে পাঠিয়েছে। কেন্দ্রের আবেদন, “ভারতে হয় এই অ্যাকাউন্টগুলো ব্লক করা হোক বা সাসপেন্ড করা হোক। গোয়েন্দা বিভাগ খতিয়ে দেখেছে এই অ্যাকাউন্টগুলোর সঙ্গে খলিস্তান-পন্থীদের যোগ আছে কিংবা পাকিস্তানের মদত আছে।” ওই তালিকা পাঠিয়ে আরও আবেদন করা হয়েছে, “তালিকাভুক্ত অ্যাকাউন্টগুলো থেকে বিকৃত তথ্য পরিবেশন করা হচ্ছে। কৃষক আন্দোলনের পক্ষে প্ররোচনামূলক তথ্য পেশ করা হচ্ছে।”

ব্লগ পোস্টে টুইটার কর্তৃপক্ষ আরও জানিয়েছে, সাংবাদিক বা সংবাদমাধ্যমের কর্মী, সমাজকর্মী এবং রাজনীতিবিদদের অ্যাকাউন্ট বন্ধ করছে না তারা। বাক স্বাধীনতায় হস্তক্ষেপ না করে ভারতীয় আইনের মধ্যে থেকেই প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ করবে বলে তারা জানিয়েছে। উল্লেখ্য, #FarmerGenocide হ্যাশট্যাগ দিয়ে ২৫৭টি অ্যাকাউন্ট থেকে টুইট সরকার বিরোধী টুইট করা হয়েছে। তার মধ্যে ১২৬টি অ্যাকাউন্ট ডিঅ্যাক্টিভেট বা নিষ্ক্রিয় করেছে টুইটার। কেন্দ্রীয় মন্ত্রক যে ১২০০টি অ্যাকাউন্ট বন্ধ করার নির্দেশ দিয়েছে, তার মধ্যে ৫৮৩টি বন্ধ করা হয়েছে বলে টুইটার সূত্রে খবর।

Web Title: Mahatma gandhi was biggest andolanjivi p chidambaram slams pm modi over his rs speech national

Next Story
‘পিসি-ভাইপোর গুন্ডামির জন্যই মা-মাটি-মানুষকে ধিক্কার দেয় জনতা’, কটাক্ষ নাড্ডার
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com