বড় খবর

দলের পুরনো কর্মীরা গুমরে গুমরে কাঁদছে: পার্থ

“পুরনোদের আর অবহেলা করা যাবে না। পছন্দ হোক বা না হোক। কে কাকে গালমন্দ করেছে। নির্বাচনের সময় কাজ করেছে, কি করেনি। এসব ভুলে যেতে হবে’’।

partha chatterjee
পার্থ চট্টোপাধ্য়ায়।

‘বাংলার গর্ব মমতা’ কর্মসূচির মাধ্যমে পুরনো কর্মীদের দলে টানতে মরিয়া তৃণমূল কংগ্রেসের শীর্ষ নেতৃত্ব। পুরনো কর্মীরা যে এখনও অবহেলিত তা স্বীকার করে নিলেন দলের মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায়। শনিবার পার্থ চট্টোপাধ্যায় বেহালায় এই কর্মসূচির সূচনা করতে গিয়ে বলেন, “১৯৯৮ সাল থেকে যাঁরা দল করেছেন তাঁদের অনেকেই আজ বসে গুমরে গুমরে কাঁদছেন। তাঁদের দলে এনে সম্মান দিতে হবে। কে পছন্দ করল, কে করল না, তা ভাবলে হবে না’’।

দলের কঠিন লড়াইয়ের অনেক সৈনিক আজ  বসে গিয়েছেন। কেউ কেউ আবার অন্য় দলে যোগ দিয়েছেন। ২০১১ বিধানসভা নির্বাচনের সময়ও তাঁরা পাশে ছিলেন। কিন্তু পরবর্তীতে দলের ভাল সময়ে তাঁরা অবহেলিত হয়েছেন। অন্য় দল থেকে যোগ দেওয়া কর্মী স্থানীয় স্তরে দলের হাল ধরেছেন। কিন্তু পুরনোরা দলে পাত্তা পাননি। ২০১৬ সালের বিধানসভা নির্বাচনেও দল ভাল ভাবে উতরে গিয়েছে। কিন্তু ২০১৯ লোকসভা নির্বাচনে ১৮টি লোকসভা আসনে জয় পায় বিজেপি। তৃণমূলের শীর্ষ নেতৃত্বের টনক নড়ে যায়। এবার ‘বাংলার গর্ব মমতা’ কর্মসূচির একটা অংশ হল পুরনোদের দলে ফিরিয়ে নিয়ে আসা।

আরও পড়ুন: শোভনকে ‘ধাক্কা’ তৃণমূলের! বড় দায়িত্ব পেলেন রত্না

এদিন বেহালায় পার্থ চট্টোপাধ্য়ায় বলেন, “পুরনোদের আর অবহেলা করা যাবে না। পছন্দ হোক বা না হোক। কে কাকে গালমন্দ করেছে। নির্বাচনের সময় কাজ করেছে, কি করেনি। এসব ভুলে যেতে হবে’’। তবে এখানেই থামেননি তৃণমূল কংগ্রেসের মহাসচিব।

আরও পড়ুন: মমতা প্রধানমন্ত্রী হবেন বলে গোপন বোঝাপড়া করছেন, বিস্ফোরক মুকুল

তাঁর উপলব্ধি, “১৯৯৮ সাল থেকে যাঁরা দল করেছেন তাঁদের অনেকেই আজ বসে গুমরে গুমরে কাঁদছেন। শুধু বেহালা নয়, সারা রাজ্যেই এই খবর আছে”। দলীয় কর্মীদের উদ্দেশে তৃণমূল মহাসচিব বলেন, “তাঁদের ডেকে আনতে হবে। তাঁদের মঞ্চে ডেকে সম্মানিত করতে হবে। পুরনো কর্মী হিসাবে স্বীকৃতি দেওয়া হবে’’।

আরও পড়ুন:  পুরভোটে প্রার্থী খুঁজতে ড্রপ বক্সে আস্থা বিজেপির

কলকাতা পুরসভা নির্বাচনের দামামা বেজে গিয়েছে। এদিন সেই প্রসঙ্গে পার্থ চট্টোপাধ্যায় বলেন, “কেউ ঝগড়াঝাটি করবেন না। দল প্রার্থী ঠিক করে দেবে। প্রার্থী যে হবে তাঁর হয়ে কাজ করতে হবে। দেওয়ালে দলের প্রতীক এঁকে রাখুন। প্রার্থী ঠিক হলে নাম বসিয়ে দেবেন।” পার্থর বক্তব্য,,”স্বচ্ছ ভাবমূর্তিদের দলে নিতে হবে। যাদের দেখলে লোক পালিয়ে যাবে না’’।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Web Title: Partha chatterjee called old party workers tmc mamata banerjee

Next Story
শোভনকে ‘ধাক্কা’ তৃণমূলের! বড় দায়িত্ব পেলেন রত্নাSovan Chatterjee, শোভন চট্টোপাধ্যায়, রত্না চট্টোপাধ্যায়, ratna chatterjee, শোভন, রত্না, বেহালা পূর্ব কেন্দ্রের দায়িত্বে রত্না, শোভন চট্টোপাধ্যায়, শোভন, রত্না, রত্না, শোভন, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, মমতা শোভন, রত্না, পার্থ চট্টোপাধ্যায়, sovan, ratna, partha chatterjee, sovan ratna, mamata banerjee, tmc, তৃণমূল, পুরভোটের আগে বড় দায়িত্বে রত্না
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com