scorecardresearch

বড় খবর

বোনের বিরুদ্ধে প্রচারে নামবেন না দাদা বাবুল, আশায় ভবানীপুরের বিজেপি প্রার্থী

“আমি হলে অন্তত ওনার বিরুদ্ধে প্রচার করতাম না। এবার ওনার সিদ্ধান্ত উনি কী করবেন।”

Priyanka tibrewal hopes Babul will not campaign in Bhawanipur for mamata banerjee
বাবুল সুপ্রিয়, প্রিয়াঙ্কা টিব্রেওয়াল

কথা ছিল, ‘বোনে’র হয়ে নির্বাচনী প্রচার করবেন ‘দাদা’। হেভিওয়েট প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে ‘বোন’ প্রার্থী হওয়ায় পর টুইটে শুভেচ্ছাও জানিয়েছিলেন। যদিও, দলের সেই প্রস্তাব আগেই নাকচ করেছিলেন ‘দাদা’। তারপর নাটকীয় মোড়। এক ফুল ছেড়ে ‘দাদা’ এখন জোড়া-ফুলে। এবার কী তাহলে ‘বোনে’র বদলে ‘দিদি’র হয়ে প্রচারে ঝাঁপাতে দেখা যাবে ‘দাদা’কে? বাবুল সুপ্রিয়র সাফ জবাব, ভবানীপুরের তৃণমূল প্রার্থী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় চাইলে তাঁর প্রচারের নামতে তাঁর কোনও বাধা নেই।

‘দাদা’র এই বদলকে কীভাবে দেখছেন ভবানীপুরের বিজেপি প্রার্থী প্রিয়াঙ্কা টিব্রেওয়াল? তাঁর বদলে ‘দিদি’র মমতার হয়ে বাবুল সুপ্রিয় প্রচার চালালে আদৌ কী অসুবিধায় পড়বে পদ্ম শিবির? রবিবার সকালে চেতলায় প্রচারে নেমে এইসব প্রশ্নের জবাব দিয়েছেন বিজেপির ‘লড়াকু’ প্রার্থী প্রিয়াঙ্কা।

আরও পড়ুন- ‘দলের বিরুদ্ধে বড় প্রতিশোধ’, বাবুল খুইয়ে দাবি বঙ্গ বিজেপির

ভবানীপুরের বিজেপি প্রার্থী বলেন, “আমার সঙ্গে বাবুল সুপ্রিয়র ব্যক্তিগত সম্পর্ক ভালো। উনি আমাকে নিজের বোনের মতই মনে করেন। আশা করি বোনের বিরুদ্ধে এখানে উনি প্রচার করবেন না।” এরপরই কিছুটা আবেগপ্রবণ প্রিয়াঙ্কা টিব্রেওয়াল। এই পরিস্থিতি হলে তিনি কী করতেন তা জানিয়ে বলেন, “আমি হলে অন্তত ওনার বিরুদ্ধে প্রচার করতাম না। এবার ওনার সিদ্ধান্ত উনি কী করবেন।”

আরও পড়ুন- অর্পিতার জায়গায় কি রাজ্যসভায় বাবুল সুপ্রিয়? তৃণমূলের কৌশল নিয়ে তুঙ্গে জল্পনা

হাইভোল্টেজ উপনির্বাচনের আগেই বাবুলের দল বদল। কতটা প্রভাব পড়তে পারে ভবানীপুরের ভোটে? প্রিযাঙ্কার কথায়, “এই কেন্দ্রে ওনার তো কোনও প্রভাব নেই। সাংগঠনিক দিক থেকেও উনি সক্রিয় ছিলেন না। আসোনসোল হলে তবু প্রভাব পড়তে পারতো। কিন্তু এখানে কোনও প্রভাবই পড়বে না।”

এদিন প্রিয়াঙ্কার সঙ্গে মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিমের এলাকা চেতলায় প্রচার চালান রাজ্য বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ। বাবুলের দল বদল প্রসঙ্গে শনিবার মুখ না খুললেও এদিন কড়া প্রতিক্রিয়া দিয়েছেন তিনি। বাবুলকে ‘পলিটিক্যাল টুরিস্ট’ বলে কটাক্ষ করেছেন দিলীপ ঘোষ। তাঁর কথায়, “যাঁরা মনে করেন বিজেপিতে থেকে লাভ হচ্ছে না, তাঁরাই চলে যাচ্ছেন। দলে এসেই একজন সাংসদ ও সাত বছর ধরে মন্ত্রী হয়েছেন। এখন লাভ হচ্ছে না দেখে চলে গিয়েছেন। এঁরা পলিটিক্যাল টুরিস্ট। এঁদের দেখে রাজনীতি কেউ শিখবেন না। সাত বছর পর দলবদলের জন্য যাঁর সিদ্ধান্ত চার দিনে হয় তাঁর রাজনৈতিক বোধ নিয়ে প্রশ্ন থাকছে। এটা যাঁর যাঁর ব্যক্তিগত চরিত্র। দলের এতে কোনও ক্ষতি হবে না।”

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Politics news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Priyanka tibrewal hopes babul will not campaign in bhawanipur for mamata banerjee