scorecardresearch

বড় খবর

“বিজেপিতে যোগ দেওয়ার জন্য বাবাকে চাপ দেওয়া হয়েছিল”, বিস্ফোরক দাবি ফিরহাদ-কন্যার

“যাঁরা আজ বিজেপিতে যায়নি তাঁদেরই গ্রেফতার করা হয়েছে। যাঁরা গেছেন তাঁদের গ্রেফতার করা হয়নি।”

“সিবিআই বিজেপির তোতাপাখি। বিজেপিতে যোগ দিলে তুমি গ্রেফতার হবে না, নাহলে জেলে থাকবে। আমার বাবাকেও বিজেপিতে যোগ দেওয়ার জন্য চাপ দেওয়া হয়েছিল। বাবা বিজেপিতে যোগ না দেওয়ায় সিবিআই দিয়ে গ্রেফতার করানো হয়েছে।” বিস্ফোরক অভিযোগ করলেন ফিরহাদ কন্যা প্রিয়দর্শিনী হাকিম।

সংবাদমাধ্যমকে জানালেন, “যাঁরা আজ বিজেপিতে যায়নি তাঁদেরই গ্রেফতার করা হয়েছে। যাঁরা গেছেন তাঁদের গ্রেফতার করা হয়নি।” উল্লেখ্য, এর আগে সোমবারও প্রিয়দর্শিনী অভিযোগ করেন, “এটা প্রধানমন্ত্রী মোদী এবং অমিত শাহের ষড়যন্ত্র। গণতান্ত্রিকভাবে বাংলায় ভোটে জিততে না পেরে সবচেয়ে জনপ্রিয় নেতাদের গ্রেফতার করছে আর রাজ্য অশান্তি সৃষ্টি করে রাষ্ট্রপতি শাসনের ফাঁদ তৈরি করছে।”

মঙ্গলবার সকালে প্রেসিডেন্সি জেলের বাইরে আসেন প্রিয়দর্শিনী। বাবার সঙ্গে দেখা করতে চেয়েছিলেন তিনি। কিন্তু তাঁকে অনুমতি দেওয়া হয়নি। প্রসঙ্গত, গ্রেফতারি নিয়ে বিজেপিকে তোপ দেগেছিলেন ফিরহাদ হাকিম নিজেও। সোমবার রাতে প্রেসিডেন্সি জেলে নিয়ে যাওয়ার সময় তিনি কান্নায় ভেঙে পড়েন।

সংবাদমাধ্যমকে তিনি বলেন, “আইনের মধ্যে দিয়ে আমরা মুক্তি পাব। বিজেপি, ইডি, সিবিআই সব কিনে নিতে পারে। কিন্তু দেশের আইন মুখ বন্ধ করে থাকবে না। আইনের মধ্যে দিয়ে আমরা ন্যায়-বিচার পাব। পপুলার হওয়াটা কোনও অন্যায় নয়, আমি পপুলার। তাই হাজার হাজার মানুষ আমার সমর্থনে এসেছে। আমি সিবিআইকে সহযোগিতা করেছি, ভাল ব্যবহার করেছি। তাহলে আমার দোষ কোথায়? আমি জামিনের অধিকার থেকে বঞ্চিত হয়েছি। আমাকে কোভিড মোকাবিলার দায়িত্ব দেওয়া হয়েছিল। কলকাতার মানুষকে আমায় বাঁচাতে দিল না।”

Stay updated with the latest news headlines and all the latest State news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Firhad hakim has been pressured to join bjp alleged daughter priyadarshini